মোক্তারপুর ইউনিয়ন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
মোক্তারপুর
ইউনিয়ন
মোক্তারপুর ইউনিয়ন পরিষদ
ডাকনাম: মোক্তারপুর
মোক্তারপুর ঢাকা বিভাগ-এ অবস্থিত
মোক্তারপুর
মোক্তারপুর
মোক্তারপুর বাংলাদেশ-এ অবস্থিত
মোক্তারপুর
মোক্তারপুর
বাংলাদেশে মোক্তারপুর ইউনিয়নের অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ২৩°৫৮′৪২″ উত্তর ৯০°৩৪′৩৮″ পূর্ব / ২৩.৯৭৮২৯০৪° উত্তর ৯০.৫৭৭৩৪৫৫° পূর্ব / 23.9782904; 90.5773455
দেশবাংলাদেশ
বিভাগঢাকা বিভাগ
জেলাগাজীপুর জেলা
উপজেলাকালীগঞ্জ উপজেলা, গাজীপুর উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন
আয়তন
 • মোট১,২০০ বর্গকিমি (৫০০ বর্গমাইল)
জনসংখ্যা
 • মোট৪,৭৩,০২৭
 • জনঘনত্ব৩৯০/বর্গকিমি (১,০০০/বর্গমাইল)
সাক্ষরতার হার
 • মোট৮০%
সময় অঞ্চলবিএসটি (ইউটিসি+৬)
ওয়েবসাইটপ্রাতিষ্ঠানিক ওয়েবসাইট উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন
মানচিত্র

মোক্তারপুর ইউনিয়ন বাংলাদেশের গাজীপুর জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার অন্তর্গত একটি ইউনিয়ন।[১]

অবস্থান[সম্পাদনা]

ইউনিয়নের পূর্বে শীতলক্ষ্যা মোক্তারপুর চরসিন্দুর সেতু, দক্ষিণে জামালপুর ইউনিয়ন, পশ্চিমে দিয়ে জাঙ্গালিয়া উনিয়ন ও উত্তরে দুর্গাপুর ইউনিয়নের কাপাসিয়া থানা অবস্থিত।

প্রশাসনিক এলাকা[সম্পাদনা]

গ্রামের সংখ্যা ২১টি। গ্রামসমূহ হলো বড়হরা, নোয়াপাড়া, পোটান, মৈশাইর, বাঘুন, ভিটি বাঘুন, বড়গাঁও, চর বাঘুন, দড়ি বাঘুন, শিংলাব, রামচন্দ্রপুর, রাথুরা, শংকরপুর, ধনপুর, বরাইদ, ডেমরা, মোক্তারপুর, সাওরাইদ, একুতা, দিঘুয়া ও নাশেরা।

  • গ্রাম পরিচিতি, গ্রামের নাম - বাঘুন (ভিটি বাঘুন), শিক্ষা, শিল্প-সাহিত্য,সংস্কৃতি, রাজনৈতিক এবং অর্থনৈতিক দিক বিবেচনায় মোক্তারপুর ইউনিয়নের একটি ঐতিহ্যবাহী গ্রাম হচ্ছে বাঘুন গ্রাম। গ্রামের নামকরণ নিয়ে সুনির্দিষ্ট কোন তথ্য-প্রমাণ পাওয়া না গেলেও ধারণা করা হয় যে, ‘বাঘ’ থেকেই বাঘুন গ্রামের নামকরণ করা হয়েছে। সবুজের সমারোহ, বিভিন্ন প্রজাতির বৃক্ষরাজি, নির্জন পরিবেশের বন- জঙ্গল এবং প্রাকৃতিক গজারী বা শালবনের বিশাল বিস্তৃতি এর সাক্ষী হয়ে আছে। প্রচলিত আছে যে, গ্রামটিতে এক সময় বাঘের বিচরণ ছিল এবং সন্ধ্যা হলে কিংবা রাতের আধারে বাঘের গর্জন শোনা যেত। এমনকি বিভিন্ন সময় বাঘের আক্রমনে গবাদি পশু এবং অন্যান্য গৃহপালিত পশুকে রক্ষা করতে বিভিন্ন কৌশল অবলম্বন করতে হত। সেই প্রাচীন কাল থেকেই গ্রামটির নামকরণ করা হয় বাঘুন। শিক্ষা, শিল্প-সাহিত্য,সংস্কৃতি, রাজনীতিসহ তৃনমূলথেকে শুরু করে জাতীয় পর্যায়ে এই গ্রামের কৃতিসন্তানদের অবদান অনস্বীকার্য। আমাদের গৌরবময় মহান মুক্তিযুদ্ধেও গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখেন এই গ্রামের বীরমুক্তিযোদ্ধারা। গ্রামটিতে রয়েছে মসজিদ, মাদ্রাসা, ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান, ডাকঘর, সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়, উচ্চ বিদ্যালয় এবং সিনিয়র মাদ্রাসাসহ একাধিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান । স্বাধীনতাত্তোর থেকে শুরু করে স্বাধীনতা পরবর্তী এবং বর্তমান সময়েও প্রশাসনিক ও জাতীয় পর্যায়ে বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পদে দায়িত্বপালন করেন, এই গ্রামের কৃতিসন্তানরা- যার কারনে অত্র ইউনিয়নের মধ্যে ঐতিহ্যবাহী এই গ্রামটি আদর্শ গ্রাম হিসেবে পরিচিতি লাভ করেছে।........

ইতিহাস[সম্পাদনা]

শীতলক্ষা নদীর পশ্চিম তীরে গড়ে উঠা কালীগঞ্জ উপজেলার একটি অঞ্চল মোক্তারপুর। কাল পরিক্রমায় আজো মোক্তারপুর ইউনিয়ন শিক্ষা, সংস্কৃতি, ধর্মীয় অনুষ্ঠান, খেলাধুলাসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে তার নিজস্বতা বজায় রেখেছে।[তথ্যসূত্র প্রয়োজন] মোক্তারপুর ইউনিয়নের নামের সাথেই জড়িয়ে আছে মরহুম মাহফুজুর রহমান খান (আরমান মিয়া) এই নামটি। মোক্তারপুর ইউনিয়নের ‘বাঘুন’ গ্রামের মিয়া বাড়ি (খান বাড়ির) সন্তান মরহুম আরমান মিয়া। সর্বজন শ্রদ্ধেয় জনপ্রিয় এই মানুষটি মোক্তারপুরবাসীর জন্য অনন্য অবদান রেখে গেছেন। মোক্তারপুর ইউনিয়নে বাঘুন উচ্চ বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা এবং অন্যান্যগুরুত্ব স্থাপনা নির্মাণে তিনি অবদান রাখেন। তিনি অত্যন্ত সফলতার সাথে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তার পরবর্তীতে চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন মোঃ আব্দুর রহমান পাঠান, মরহুম মোতাহার হোসেন ভূইয়া এবং বর্তমান চেয়ারম্যান মোঃ শরীফুল ইসলাম সরকার (তোরন)। জনাব মোঃ শরীফুল ইসলাম সরকার (তোরন) এলাকার উন্নয়ন এবং সাধারণ মানুষের আস্থা অর্জন করে দীর্ঘ ১৫ বছরেরও বেশি সময় তিনি একধারে নির্বাচিত হয়ে আসছেন। র্বর্তমানে দৃষ্টিনন্দন মোক্তারপুর ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয়টি অবস্থিত ‘রাথুরা বাজারে’।

জনসংখ্যার উপাত্ত[সম্পাদনা]

লোকসংখ্যা – ৪৭৩০২৭ জন (জন্ম নিবন্ধনের তথ্য অনুযায়ী)

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "মোক্তারপুর ইউনিয়ন"বাংলাদেশ জাতীয় তথ্য বাতায়ন। ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৭ মার্চ ২০২০ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]