মালালাই জয়া

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
মালালাই জয়া
ملالی جویا
Malalai Joya, Afghan MP.jpg
জয়া ২০০৭ সালের মার্চ মাসে অস্ট্রেলিয়ায় কথা বলছেন।
হাউজ অফ দ্য পিপুল অফ আফগানিস্তানের সদস্য।
দায়িত্বাধীন
অধিকৃত কার্যালয়
১ ডিসেম্বর ২০০৩
সংসদীয় এলাকাফারাহ প্রদেশ
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্ম (1978-04-25) ২৫ এপ্রিল ১৯৭৮ (বয়স ৪২)
ফারাহ প্রদেশ, আফগানিস্তান
বাসস্থানকাবুল[১]
পেশারাজনীতিবিদ
যে জন্য পরিচিতআফগান সরকারের সমালোচনা এবং আফগানিস্তানে মার্কিন-ন্যাটোর বাহিনীতে উপস্থিতি। [২]

মালালাই জয়া ( পশ্তু مل مليا جویا ) (জন্ম ২৫ এপ্রিল, ১৯৭৮) একজন কর্মী, লেখক এবং আফগানিস্তানের প্রাক্তন রাজনীতিবিদ[৩] আফগান সংসদে প্রকাশ্য যুদ্ধবাজযুদ্ধাপরাধীদের উপস্থিতি প্রকাশ্যে নিন্দিত করার কারণে বরখাস্ত করা হয়। ২০০৫ সাল থেকে ২০০৭ সালের প্রথমদিকে তিনি আফগানিস্তানের জাতীয় পরিষদে সংসদ সদস্য হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন । তিনি কারজাই প্রশাসন এবং এর পশ্চিমা সমর্থকদের বিশেষত আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রের একজন স্পষ্টবাদী সমালোচক। [৪] [৫]

২০০৭ সালের মে মাসে তার স্থগিতাদেশ আন্তর্জাতিকভাবে বিক্ষোভ সৃষ্টি করে এবং তার পুনর্বহালের জন্য আপিলের আবেদন করা হয়। এই আবেদন বড় মাপের লেখকদের দ্বারা স্বাক্ষরিত হয়েছে। যেমন নোম চোম্স্কির মতো বুদ্ধিজীবি এবং কানাডা, জার্মানি, যুক্তরাজ্য, ইতালি এবং স্পেনের সংসদ সদস্যসহ রাজনীতিবিদসহ রাজনীতিবিদ।[৬] বিবিসি কর্তৃক তাকে "আফগানিস্তানে ব্র্যাভ্যান্স নারী" বলা হয়।[৭]

২০১০ সালে, টাইম ম্যাগাজিন মালালাই জয়াকে তাদের বিশ্বের ১০০ প্রভাবশালী ব্যক্তির বার্ষিক তালিকায় রাখে। [৮] ফরেন পলিসি ম্যাগাজিনটি মালালাই জয়াকে তার বার্ষিক শীর্ষ ১০০ বৈশ্বিক চিন্তকদের তালিকায় তালিকাবদ্ধ করে। [৯] ৮ ই মার্চ, ২০১১-এ দ্য গার্ডিয়ান তাকে "শীর্ষস্থানীয় ১০০ জন মহিলা: কর্মী ও প্রচারকারী" এর মধ্যে তালিকাভুক্ত করে। [১০]

প্রাথমিক ও ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

জয়া পশ্চিম আফগানিস্তানে ফারাহ প্রদেশের ২৫ এপ্রিল, ১৯৭৮ সালে জন্মগ্রহণ করেন। সোভিয়েত-আফগান যুদ্ধের যুদ্ধের সময় তার বাবা একজন প্রাক্তন মেডিকেল ছাত্র ছিলেন। ১৯৮২ সালে, যখন তিনি ৪ বছর বয়সী ছিলেন। তখন তার পরিবার আফগানিস্তান থেকে প্রতিবেশী রাষ্ট্র ইরানে শরণার্থী হিসাবে বসবাস করার জন্য পালিয়ে যায়।

" আমি খুব অল্প বয়সের ছিলাম। আমি একজন কর্মী হিসেবে ৮ম শ্রেণির কাজ শুরু করিI যখন আমি আমাদের জনগণদের নিয়ে কাজ শুরু করি, বিশেষ করে নারীদের নিয়ে। তখন এটা আমার জন্য খুব উপভোগ্য ছিল।তারা শিক্ষিত না হলেও তাদের কাছ থেকে অনেক কিছু শিখেছি। আমি কাজ শুরু করার আগে আমি আপনাকে বলতে চাই, আমি রাজনীতি সম্পর্কে কিছুই জানতাম না। আমি এমন ব্যক্তিদের কাছ থেকে রাজনীতি শিখেছি যারা অ-শিক্ষিত এবং তারা ছিল অরাজনৈতিক লোক যারা রাজনৈতিক পরিস্থিতির মধ্যে অন্তর্ভুক্ত ছিল। আমি শরণার্থী শিবিরে বিভিন্ন কমিটির সাথে কাজ করেছি। আমার মনে আছে যে প্রত্যেক বাড়িতে আমি যেতাম প্রত্যেকেরই বিভিন্ন কষ্টের গল্প তারা আমাকে বলত। আমি আমাদের এক পরিবারের সাথে দেখা করেছি। তাদের শিশুটির কেবল ত্বক এবং হাড় ছিল। তাদের বাচ্চাকে ডাক্তারের কাছে নিয়ে যাওয়ার সামর্থ্য নেই। তাই তাদের কেবল তাদের শিশুর মৃত্যুর জন্য অপেক্ষা করতে হচ্ছিল। আমি বিশ্বাস করি যে কোনও সিনেমা নির্মাতা, কোনও লেখকই আমাদের এই দুর্ঘটনার কথা লিখতে পারবেন না। শুধু আফগানিস্তানেই নয়, প্যালেস্তাইন, ইরাক… আফগানিস্তানের শিশুরাও ফিলিস্তিনের সন্তানের মতো। তারা কেবল পাথর দিয়ে শত্রুদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করে। এই ধরণের শিশুরা আমার নায়ক এবং নায়িকা।."[১১]

— মলালাই জয়া, ৫ নভেম্বর ২০০৭

সোভিয়েত প্রত্যাহারের পরে, জয়া ১৯৯৯ সালে তালিবানের শাসনামলে আফগানিস্তানে ফিরে আসেন। অল্প বয়সী মহিলা হিসাবে তিনি একজন সামাজিক কর্মী হয়ে কাজ করেছিলেন এবং পশ্চিমাঞ্চলীয় হেরত ও ফারাহ প্রদেশে অরগানাইজেশন অফ প্রমোটিং আফগান ওমেন পাওয়ারের (ওপিএডব্লিউসি) একজন বেসরকারী গোষ্ঠীর একজন পরিচালক হিসাবে মনোনীত হন।[১২] তিনি বিবাহিত, তবে তার সুরক্ষার ভয়ে স্বামীর নাম প্রকাশ করেননি। [১৩]

পুরস্কার[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Militarism, Mutilation, and Minerals: Understanding the Occupation of Afghanistan"। culturesofresistance.org। জানুয়ারি ২৯, ২০১১। মার্চ ৪, ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৪-০৪ 
  2. Hirsi Ali, Ayaan (২০১০-০৪-২৯)। http://www.time.com/time/specials/packages/article/0,28804,1984685_1984949_1985238,00.html। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৪-২৯  |শিরোনাম= অনুপস্থিত বা খালি (সাহায্য)
  3. "Profile: Malalai Joya"BBC News। নভেম্বর ১২, ২০০৫। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-২৬ 
  4. "The NS Interview: Malalai Joya"। Newstatesman.com। জানুয়ারি ২৫, ২০১০। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২Obama is a warmonger, no different from Bush 
  5. "Malalai Joya - extended interview"। Newstatesman.com। জানুয়ারি ২৯, ২০১০। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  6. "International appeal at Znet"। Zmag.org। ২০০৮-০৪-২৪। ২০০৯-০৮-০৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  7. "'The Bravest Woman in Afghanistan': Malalai Joya Speaks Out Against the Warlord-Controlled Afghan Government & U.S. Military Presence"Democracy Now!। ২০০৭-০৬-১৯। সংগ্রহের তারিখ ২০০৮-১২-০৮ 
  8. Hirsi Ali, Ayaan (২০১০-০৪-২৯)। http://www.time.com/time/specials/packages/article/0,28804,1984685_1984949_1985238,00.html। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৪-২৯  |শিরোনাম= অনুপস্থিত বা খালি (সাহায্য)
  9. "The FP Top 100 Global Thinkers"। ২০১০-১২-০১। ২০১০-১২-০২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-১১-২৮ 
  10. Saner, Emine (২০১১-০৩-০৮)। "Malalai Joya: Afghan politician and human rights campaigner who has shown phenomenal courage"। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-০৮ 
  11. Whitfield, Gina (২০০৭-১১-০৫)। "Malalai Joya: "truth has a very strong voice""Rabble News। সংগ্রহের তারিখ ২০০৮-১২-০৮ 
  12. Satterlee, Saundra (২০০৮-১২-০১)। "A brave woman in Afghanistan"The Guardian Weekly। সংগ্রহের তারিখ ২০০৮-০৮-২১ 
  13. "Malalai Joya: Afghan politician and human rights campaigner who has shown phenomenal courage", Emine Saner, The Guardian, 7 March 2011
  14. "يادداشتی بر آخرين تحولات لويه جرگه قانون اساسی"। Archived from the original on সেপ্টেম্বর ২৮, ২০০৮। সংগ্রহের তারিখ ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৪ [যাচাই প্রয়োজন]
  15. "Donna dell'anno 2004"। Consiglio.regione.vda.it। ২০০৯-০৬-৩০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  16. "Document scan"। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  17. "Gwangju Prize for Human Rights"। May 18 Memorial Foundation। ৩ জুন ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৪ এপ্রিল ২০১১ 
  18. "Women of Peace Award 2006 to Joya"। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  19. "Malalai Joya"। জুলাই ৩১, ২০০৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০১৬ 
  20. "The Forum of Young Global Leaders"। Younggloballeaders.org। ২০০৬-১০-০৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  21. "Archived Page"। এপ্রিল ৮, ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০১৬ 
  22. "YouTube"। YouTube। ২০০৭-০৭-২৫। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  23. "Sakharov Prize 2007: five nominees announced"। Europarl.europa.eu। ২০০৬-১০-০৭। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  24. "Joya received Mare Nostrum Award"। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  25. "Malalai Joya: la guerra di una ragazza contro la guerra"। Comunesupino.it। ২০০৯-১০-১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  26. "Malalai Joya: The 14th Angel Festival"। Theangelfestival.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  27. "Joya is awarded International Human Rights Film Award 2008"। News.yahoo.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  28. "Reuters AlertNet - INTERVIEW-Afghan woman rights campaigner wins courage award"। Alertnet.org। ২০০৮-১০-০৬। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  29. "Comunicato stampa"। Consiglio.regione.toscana.it। ২০০৮-১০-২০। ২০০৯-০৮-০২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  30. "EuroPress: Leyla Zana y Malalai Joya, ganadoras del VII Premio Juan María Bandrés a la Defensa del Derecho de Asilo"। Europapress.es। ২০০৮-১০-৩০। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  31. "Malalai Joya receives International Anti-discrimination Award 2009"। Malalaijoya.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  32. "Member of Congress Barbara Lee Honors Malalai Joya"। Malalaijoya.com। ২০০৯-১১-০৮। ২০১৬-০৩-০৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-০২ 
  33. "TIME distorts truth about occupation"। Presstv.com। ২০১০-০৫-১১। ২০১২-০৬-১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-২৩ 
  34. "Time has painted a false picture of me: Malalai Joya"Tehran Times। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-২৩ 
  35. "MALALAI JOYA Y BENEDETTA TAGLIABUE YO DONA entrega sus V Premios Internacionales"El Mundo। ২০১০-০৭-১২। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৬-২৩ 
  36. http://www.newstatesman.com//2010/09/afghanistan-joya-heroine-life। সংগ্রহের তারিখ ২৬ অক্টোবর ২০১০  |শিরোনাম= অনুপস্থিত বা খালি (সাহায্য)
  37. "UNIVERSITÀ DELLA PACE DELLA SVIZZERA ITALIANA, Donna dell'Anno 2010"। ১৫ নভেম্বর ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ নভেম্বর ২০১০ 
  38. Howard, Caroline। https://blogs.forbes.com/carolinehoward/2010/11/04/the-worlds-most-powerful-feminists-and-least-powerful-women/। সংগ্রহের তারিখ ৪ নভেম্বর ২০১০  |শিরোনাম= অনুপস্থিত বা খালি (সাহায্য)
  39. "The FP Top 100 Global Thinkers"। ২০১০-১২-০১। ২০১০-১২-০২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-১১-২৮ 
  40. Saner, Emine (২০১১-০৩-০৮)। "Malalai Joya: Afghan politician and human rights campaigner who has shown phenomenal courage"। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-০৮