জর্ডানের ইতিহাস

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

জর্দানের ইতিহাস বলতে হাশেমীয় জর্দান রাজ্যের ইতিহাস এবং ব্রিটিশ প্রটেক্টরেটের অধীনে ট্রান্সজর্ডান আমিরাত এর পটভূমির পাশাপাশি ট্রান্সজর্ডান অঞ্চলের সাধারণ ইতিহাসকে বোঝায়।

ট্র্যান্সজর্ডানে পুরা প্রস্তর যুগের বা আদিম প্রস্তর যুগের মানব ক্রিয়াকলাপের প্রমাণ পাওয়া যায়। এলাকাটি ব্রোঞ্জ যুগের (মানব সভ্যতার প্ৰাক ঐতিহাসিক কালের তিনটি প্ৰধান পুরাতাত্ত্বিক ভাগের (প্ৰস্তর যুগ, ব্ৰোঞ্জ যুগলৌহ যুগ) দ্বিতীয় ভাগ) যাযাবর উপজাতিদের দ্বারা প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল, যা লৌহ যুগের সময় ছোট ছোট সাম্রাজ্য যেমন ইদোমীয় এবং অম্মোনয়ীদের দ্বারা একত্রিত হয়েছিল যার আংশিক এলাকায ইস্রায়েলীয়দের দ্বারা নিয়ন্ত্রিত হত।

ক্লাসিক পিরিয়ডে, ট্রান্সজর্ডান গ্রীকদের দখলে এবং পরবর্তীতে রোমানদের দখলে চলে যায়। রোমান জুদিয়া প্রদেশের অধিকাংশ অধিবাসীই হচ্ছে নবতাঈ, তবে ইহুদীরা জর্দান উপত্যকায় বসতি স্থাপন করেছিল। রোমান এবং বাইজেন্টাইনদের অধীনে, ট্রান্সজর্ডান ছিল উত্তরের ডেকাপোলিসদের আবাসস্থল, যার অধিকাংশ এলাকায় বাইজেন্টাইন আরব নামে আখ্যায়িত করা হয়েছিল।

প্রাচীন ইতিহাস[সম্পাদনা]

জর্দানে পুরা প্রস্তর যুগের বা আদিম প্রস্তর যুগের মানুষের ক্রিয়াকলাপের প্রমাণ পাওয়া যায় । যদিও সেখানে ঐ যুগের কোন স্থাপত্যের সন্ধান মেলেনি, তবে প্রত্নতত্ত্ববিদরা বেশ কিছু সরঞ্জাম যেমন চকমকি পাথর এবং শিলার কুড়াল, ছুরি, চাঁচুনি পাওয়া যায়।

নব্যপ্রস্তরযুগ বা নবপোলিয় যুগে (৮৫০০-৪৫০০ খ্রিস্টপূর্ব) (প্রস্তরযুগের শেষ অধ্যায়) মূলত তিনটি প্রধান পরিবর্তন সংঘঠিত হয়। প্রথমত, মানুষ শারীরিকভাবে সক্রিয় হতে শুরু করে, ছোট ছোট গ্রামে বসবাস করতে শুরু করে, এবং খাদ্যশস্য, মটরশুটি এবং মরিচ, পাশাপাশি ছাগলের মতো গৃহস্থালীর নতুন নতুন খাদ্যের উৎস আবিষ্কার করতে শুরু করেন। এই সময় জনসংখ্যা হাজারে হাজারে বৃদ্ধি পেয়েছে।

দ্বিতীয়ত, এই স্থানান্তরের ধরন জলবায়ু পরিবর্তনের অনুঘটক হিসেবে কাজ করেছে। পূর্ব মরুভূমি, বিশেষত, ধীরে ধীরে উষ্ণতর এবং শুষ্ক থেকে শুষ্কতর হয়ে উঠে, এবং এমন পর্যায় চলে যায় যে বছরের বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই অনাবাসী হয়ে ওঠে। এই জলাশয় জলবায়ু পরিবর্তন ৬৫০০ এবং ৫৫০০ খ্রিস্টপূর্বের মধ্যে ঘটেছে বলে মনে করা হয়ে থাকে।

তৃতীয়ত, ৫৫০০ এবং ৪৫০০ খ্রিস্টপূর্বের শুরুতে, এই অঞ্চলে অধিবাসীরা প্লাস্টারের পরিবর্তে মৃত্তিকা থেকে মৃৎশিল্প তৈরি করতে শুরু করেছিলেন। সম্ভবত মেসোপটেমীয় সভ্যতা থেকে ঐ যুগের কারিগররা মাটির পাত্র তৈরির প্রযুক্তি শুরু করেছিল।

ট্রান্সজর্ডান আমিরাত[সম্পাদনা]

চার শতাব্দীর স্থায়ী অটোমান শাসনের পর (১৫১৬-১৯১৮), প্রথম বিশ্বযুদ্ধের সময় ট্রান্সজর্ডানের উপর তুর্কি নিয়ন্ত্রণের সমাপ্তি ঘটে।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]