ঘ (ইন্ডিক)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
Gha
বাংলা দেবনাগরী গুরুমুখী গুজরাটি ওড়িয়া
Gha Gha Gha
তামিল তেলুগু কন্নড় মালয়ালম সিংহলী
-
থাই লাও তিব্বতি বর্মী খমের
-
বায়বায়িন হানুনো বুহিদ তাগবানওয়া লোনতারা
- - - - -
বালী সুন্দা লিম্বু তাই লে নয়া তাই লু
- - -
লেপছা সৌরাষ্ট্র রেজং জাভাই চাম
- -
থাই থম থাই ভিয়েত কায়াঽ লি ফাগ্‌স-পা সিদ্ধং
-- - - Siddhaṃ 'Gha'
মহাজনি খোজকি খোদাবাদি সিলেটি মেইতেই
𑅘 𑈌 𑊾
Modi তিরহুতা কৈথি সোরা গ্রন্থ
𑘑 𑒒 𑂐 - 𑌘
চাকমা শারদা তাকরি খরোষ্ঠী ব্রাহ্মী
𑄊 𑆔 𑚍 𐨓 Brahmi 'Gha'
ধ্বনিগ্রামিক প্রতিনিধি: /gʱ/
আসলিব প্রতিবর্ণীকরণ: gha
ইসকি কোড পয়েন্ট: B6 (182)

হলো ইন্ডিক আবুগিদার চতুর্থ ব্যঞ্জনবর্ণ। আধুনিক ইন্ডিক লিপিতে, ঘ ব্রাহ্মী বর্ণ gha থেকে উদ্ভূত হয়েছে যা কি-না আবার সম্ভবত গুপ্ত বর্ণ Gupta allahabad gh.svg-এর মধ্য দিয়ে আরামাইক Heth.svg ("H/X") থেকে উদ্ভূত হয়েছিল।

গণিতে ঘ[সম্পাদনা]

আর্যভট্টের ব্যবহার[সম্পাদনা]

ভারতীয় সংখ্যা প্রণালী সৃষ্টির পেছনে আর্যভট্টের দেবনাগরী অক্ষর সমূহকে প্রায় গ্রীকদের দ্বারা সংখ্যা লেখার মতো ব্যবহার করা হত। घ’র বিভিন্ন রূপের মানসমূহ নিচে দেয়া হল:[১]

  • [gʱə] = ৪ (४)
  • घि [gʱɪ] = ৪০০ (४००)
  • घु [gʱʊ] = ৪০,০০০ (४० ०००)
  • घृ [gʱri] = ৪,০০০,০০ (४० ०० ०००)
  • घॢ [gʱlə] = ৪×১০ (४०)
  • घे [gʱe] = ৪×১০১০ (४०१०)
  • घै [gʱɛː] = ৪×১০১২ (४०१२)
  • घो [gʱoː] = ৪×১০১৪ (४०१४)
  • घौ [gʱɔː] = ৪×১০১৬ (४०१६)

বাংলা ঘ[সম্পাদনা]

(আ-ধ্ব-ব: [gha])) হলো বাংলা বর্ণমালার চতুর্থ ব্যঞ্জনবর্ণ এবং ১৯তম বর্ণবাংলা ব্যঞ্জনবর্ণের সংখ্যা মোট ৩৯টি; তার মধ্যে পূর্ণমাত্রাযুক্ত ব্যঞ্জনবর্ণ ২৬টি, অর্ধমাত্রাযুক্ত ব্যঞ্জনবর্ণ ৭টি এবং মাত্রা ছাড়া ব্যঞ্জনবর্ণ ৬টি। 'ঘ' হলো একটি পূর্ণমাত্রাযুক্ত ব্যঞ্জনবর্ণ।

বৈশিষ্ট্য[সম্পাদনা]

এটি একটি পূর্ণমাত্রাবিশিষ্ট ব্যঞ্জন ধ্বনি। ২৫ টি স্পর্শধ্বনি বা বর্গীয় ধ্বনির একটি এবং ক-বর্গের অন্তর্গত অঘোষ মহাপ্রাণ তালব্য ধ্বনি। এর উচ্চারণস্হান জিহবামূল বা পশ্চাত্তালু।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Ifrah, Georges (২০০০)। The Universal History of Numbers. From Prehistory to the Invention of the Computer (ইংরেজি ভাষায়)। নিউ ইয়র্ক: John Wiley & Sons। পৃষ্ঠা 447–450। আইএসবিএন 0-471-39340-1