ক্রিস স্মলিং

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ক্রিস স্মলিং
Chris Smalling and Wes Brown cropped.jpg
ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের হয়ে খেলছেন স্মলিং, ২০১১ সাল
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নাম ক্রিস্টোফার লয়েড স্মলিং[১]
জন্ম (1989-11-22) ২২ নভেম্বর ১৯৮৯ (বয়স ৩১)[১]
জন্ম স্থান গ্রীনউইচ, লন্ডন, ইংল্যান্ড
উচ্চতা ১.৯২ মি (৬ ফু ৪ ইঞ্চি)[২]
মাঠে অবস্থান সেন্ট্রাল ব্যাক
ক্লাবের তথ্য
বর্তমান ক্লাব
ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড
জার্সি নম্বর ১২
যুব পর্যায়
মিলওয়াল
মেইডস্টোন ইউনাইটেড
জ্যেষ্ঠ পর্যায়*
সাল দল ম্যাচ (গোল)
২০০৭–২০০৮ মেইডস্টোন ইউনাইটেড ১২ (১)
২০০৮–২০১০ ফুলহাম ১৩ (০)
২০১০– ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ৭৫ (২)
জাতীয় দল
২০০৮ ইংল্যান্ড অনূর্ধ্ব ১৮ (১)
২০০৯ ইংল্যান্ড অনূর্ধ্ব ২০ (০)
২০০৯–২০১১ ইংল্যান্ড অনূর্ধ্ব ২১ ১৪ (১)
২০১১– ইংল্যান্ড ১২ (০)
* শুধুমাত্র ঘরোয়া লীগে ক্লাবের হয়ে ম্যাচ ও গোলসংখ্যা গণনা করা হয়েছে এবং ১৯:৩৮, ১১ মে ২০১৪ (ইউটিসি) তারিখ অনুযায়ী সকল তথ্য সঠিক।
‡ জাতীয় দলের হয়ে ম্যাচ ও গোলসংখ্যা ১৮:২৬, ৫ জুন ২০১৪ (ইউটিসি) তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

ক্রিস্টোফার লয়েড "ক্রিস" স্মলিং (জন্ম ২২ নভেম্বর ১৯৮৯) একজন ইংরেজ পেশাদার ফুটবলার যিনি একজন সেন্টার ব্যাক হিসেবে প্রিমিয়ার লীগ ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড এবং ইংল্যান্ড জাতীয় দলে খেলে থাকেন।

তরুণ বয়সে স্মালিং মিলওয়াল একাডেমীর হয়ে খেলা শুরু করেন এবং ের পরে মেইডস্টোন ইউনাইটেডে চলে আসেন। ২০০৫ সালে তিনি কেন্ট স্কুলের অনূর্ধ্ব ১৬ দলে সুযোগ পান যার হাত ধরে ২০০৮ সালে ইংল্যান্ড অনূর্ধ্ব ১৮ স্কুল দলে জায়গা পান। এই সময়কালে স্মলিং নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করেন যার ফলস্বরূপ তিনি মেইডস্টোন ইউনাইটেডের প্রথম একাদশে খেলার সুযোগ পান। ২০০৮ সালের মে মাসে মিডল্‌স্‌ব্রোর সাথে ২ বছর মেয়াদী চুক্তি করেন। যদিও মিডল্‌স্‌ব্রো কর্তৃপক্ষ স্মলিং এর হোম সিকনেসের ব্যাপারে উদ্বিগ্ন হয়ে তার সাথে করা চুক্তি বাতিল করে।

এর কিছুদিন পর, ২০০৮ সালের জুন মাসে স্মলিং প্রিমিয়ার লীগ ক্লাব ফুলহামের সাথে চুক্তিবদ্ধ হন এবং তাদের হয়ে ২০০৯ সালে পেশাদার ফুটবলে তার অভিষেক ঘটে। তাদের হয়ে ২০০৮-০৯ মৌসুমে ঐ অভিষেক খেলায় তিনি দলকে পরবর্তী মৌসুমের (২০১০) ইউরোপা লীগের চূড়ান্ত পর্বে পৌছাতে সাহায্য করেন।

২০১০ সালের জানুয়ারি মাসে স্মলিং ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের সাথে প্রাক-চুক্তি স্বাক্ষর করেন এবং জুন মাসে আনুষ্ঠানিক চুক্তি স্বাক্ষর করেন। ২০১০ সালের এফএ কমিউনিটি শিল্ডের ফাইনালে চেলসির বিপক্ষে প্রতিযোগিতামূলক খেলায় ইউনাইটেডের হয়ে তার অভিষেক ঘটে। তখন থেকে এ পর্যন্ত ইউনাইটেডের হয়ে ৭০ এর অধিক খেলায় তিনি মাঠে নেমেছেন।

স্মলিং বিভিন্ন বয়সভিত্তিক স্তরে ইংল্যান্ডের প্রতিনিধিত্ব করেছেন। ২০১১ সালের সেপ্টেম্বর মাসে বুলগেরিয়ার বিরুদ্ধে ৩-০ গোলে জয়লাভের খেলায় সিনিয়র দলে তার অভিষেক ঘটে। ১২ মে ২০১৪ সালে স্মলিং ইংল্যান্ডের ২০১৪ ফিফা বিশ্বকাপ এর ২৩ সদস্যের মুল দলে ডাক পান এবং কোস্টারিকার সাথে ০-০ ড্র এর খেলায় প্রথম একাদশে মাঠে নামেন।

ক্যারিয়ার পরিসংখ্যান[সম্পাদনা]

ক্লাব[সম্পাদনা]

১১ মে ২০১৪ পর্যন্ত হালনাগাদকৃত।[৩]
ক্লাব মৌসুম লীগ এফএ কাপ লীগ কাপ ইউরোপ অন্যান্য সর্বমোট
উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল
মেইডস্টোন ইউনাইটেড ২০০৬–০৭
২০০৭–০৮ ১২ ১৫
সর্বমোট ১২ ১৬
ফুলহাম ২০০৮–০৯
২০০৯–১০ ১২ ১৮
সর্বমোট ১৩ ১৯
ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ২০১০–১১ ১৬ ৩৩
২০১১–১২ ১৯ ৩০
২০১২–১৩ ১৫ ২২
২০১৩–১৪ ২৫ ৩৮
সর্বমোট ৭৫ ১২ ২৫ ১২৩
ক্যারিয়ার সর্বমোট ১০০ ১৩ ১০ ২৯ ১৫৮

আন্তর্জাতিক[সম্পাদনা]

ইংল্যান্ড জাতীয় দল
বছর উপস্থিতি গোল
২০১১
২০১২
২০১৩
২০১৪
সর্বমোট ১২
৪ জুন ২০১৪ পর্যন্ত হালনাগাদকৃত।[৪]

সম্মাননা ও অর্জন[সম্পাদনা]

ক্লাব[সম্পাদনা]

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড

ব্যক্তিগত[সম্পাদনা]

  • উয়েফা ইউরোপিয়ান অনূর্ধ্ব ২১ ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপ টুর্নামেন্ট সেরা একাদশ (১): ২০১১

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Hugman, Barry J., সম্পাদক (২০১০)। The PFA Footballers' Who's Who 2010–11। Mainstream Publishing। পৃষ্ঠা 382। আইএসবিএন 978-1-84596-601-0 
  2. "Chris Smalling"ManUtd.com। Manchester United। ১৪ ডিসেম্বর ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩০ জুন ২০১১ 
  3. Endlar, Andrew। "Chris Smalling"। StretfordEnd.co.uk। সংগ্রহের তারিখ ২৭ মার্চ ২০১১ 
  4. ন্যাশনাল-ফুটবল-টিমস.কমে "Chris Smalling" (ইংরেজি ভাষায়)। জাতীয় ফুটবল দল। সংগ্রহের তারিখ ২ সেপ্টেম্বর ২০১১ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]