দহগ্রাম

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

দহগ্রাম বাংলাদেশের একটি ছিট মহল, যা ভারতের মূল ভূখন্ডে অবস্থিত।

১৯৪৭ খ্রিস্টাব্দে ভারত বিভাগের সময় তদানিন্তন বাংলা প্রদেশটি ব্রিটিশ শাসকেরা ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে ভাগ করে দেয়। মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠতার ফলে দহগ্রাম, যা ভারতীয় ভূখন্ড দ্বারা চারিদিকে ঘেরা, পাকিস্তানের ভাগে পড়ে। এটি ছিল ভারতে অবস্থিত পাকিস্তানের বৃহত্তম ছিট মহল।

১৯৫৩ সালের পূর্বে পাকিস্তান দাবি করেছিল যে, দহগ্রাম পূর্ব পাকিস্তানের মূল ভূখন্ডের সাথে সরাসরি ভাবে যুক্ত। কিন্তু মানচিত্র পর্যালোচনা করে দেখা যায় যে, এটি পূর্ব পাকিস্তান সীমান্ত হতে প্রায় ৮৫ মিটার পশ্চিমে অবস্থিত। তখন থেকে এটি দুই দেশের মধ্যকার বিরোধের অন্যতম প্রধান বিষয় হয়ে দাঁড়ায়।

বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধের পরে ভারত ও বাংলাদেশ সরকারের মধ্যে ছিট মহল সংক্রান্ত বিরোধ নিরসনের জন্য চুক্তি হয়। কিন্তু এই চুক্তি বাস্তবায়িত হয় নাই, এবং দহগ্রাম সংক্রান্ত বিবাদ এখন পর্যন্ত বিরাজমান রয়েছে। ১৯৮২ সালে একটি নতুন চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়, যা ১৯৯২ সালে বাস্তবায়িত হয়। এই চুক্তি অনুসারে বাংলাদেশ ও দহগ্রামের মধ্যে যাতায়াতের জন্য ৩০ মিটার প্রশস্ত একটি করিডোরের ব্যবস্থা করা হয়। তিন বিঘা করিডোর নামে পরিচিত এই যাতায়াতের পথটি প্রতিদিনের একটি নির্দিষ্ট সময়ের জন্য খোলা থাকে।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  • Willem van Schendel, "Stateless in South Asia: The Making of the India-Bangladesh Enclaves", The Journal of Asian Studies, 61, No. 1, ফেব্রুয়ারি ২০০২।