স্পিরুলিনা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
Spirulina tablets
স্পিরুলিনা(শুষ্ক)
প্রতি ১০০ গ্রাম (৩.৫ আউন্স) পুষ্টিগত মান
শক্তি১,২১৩ কিজু (২৯০ kcal)
23.9 g
সুসিক্ত স্নেহ পদার্থ2.65 g
এককঅসুসিক্ত0.675 g
বহুঅসুসিক্ত2.08 g
ট্রিপ্টোফ্যান0.929 g
থ্রিয়েনিন2.97 g
আইসুলেসিন3.209 g
লুসিন4.947 g
লাইসিন3.025 g
মেথাইনিন1.149 g
সিস্টাই0.662 g
ফিনাইনলালনিন2.777 g
টাইরোসিন2.584 g
ভ্যালিন3.512 g
আরজানাইন4.147 g
হিস্টিডিন1.085 g
অ্যালানিন4.515 g
গ্লাইসিন3.099 g
প্রোলিন2.382 g
সেরিন2.998 g
ভিটামিনসমূহ
ভিটামিন এ সমতুল্য
(3%)
342 μg
0 μg
(70%)
3.48 mg
ফোলেট (বি)
(24%)
94 μg
কোলিন
(13%)
66 mg

Percentages are roughly approximated using US recommendations for adults.
Source: USDA Nutrient Database

স্পিরুলিনা নামটি উদ্ধুত হয়েছে ল্যাটিন শব্দ "spira" হতে, যার অর্থ হচ্ছে পাকানো বা সর্পিলাকার। স্পিরুলিনা' হলো অতি ক্ষুদ্র নীলাভ সবুজ শৈবাল যা সূর্যালোকের মাধ্যমে দেহের প্রয়োজনীয় শক্তি উৎপাদন করে । এটি সাধারণত জলে জন্মায়। সামুদ্রিক শৈবাল নামেই এর বেশি পরিচিতি। বর্তমানে কৃত্রিম জলাধারে এর বাণিজ্যিক উৎপাদন হচ্ছে। এতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন, ভিটামিন, লৌহ ও একাধিক খণিজ পদার্থ। সাধারণ খাদ্য হিসেবে তো বটেই নানা রোগ নিরাময়ে মুল্যবান ভেষজ হিসেবে দেশে-বিদেশে স্পিরুলিনার প্রচুর চাহিদা রয়েছে। স্পিরুলিনা একটি শক্তিবর্ধক সম্পূরক খাদ্য। প্রোটিন, ভিটামিন ও মিনারেলস সমৃদ্ধ প্রকৃতির আশ্চর্য খাবার স্পিরুলিনা। স্পিরুলিনার গুণাগুণ অনেক। বিশেষ করে প্রচুর ভিটামিন, লৌহ ও নীলাভ সবুজ রং থাকার কারণে স্পিরুলিনায় রয়েছে নানা ধরনের রোগ প্রতিরোধের উপাদান। স্বাদ ও পার্শ্ব প্রতিক্রিয়াহীন স্পিরুলিনা নিয়মিত সেবন করলে দৈনন্দিন পুষ্টি চাহিদা পূরণ করে পুষ্টিহীনতা, রক্তশূন্যতা, রাতকানা, ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ, আলসার, বাত, হেপাটাইটিস ও ক্লান্তি দূর হবে। বিসিএসআইআর-এর বিজ্ঞানীরা ৬০ জন আর্সেনিকোসিস রোগীর উপর স্পিরুলিনা নিয়ে গবেষণা চালান। গবেষণায় দেখা গেছে যে, প্রতিদিন ১০ গ্রাম করে স্পিরুলিনা খাওয়ালে প্রায় ৪ মাস পর রোগী সম্পূর্ণরূপে সুস্থ্য হয়ে উঠে।