সিরওয়াল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
ওসমানীয়রা সিরওয়াল পোশাকে
(১৮২৯) ম্যাডেন, সিরিয়ায় সিরওয়াল পরিহিত রিচার্ড রবার্ট

সিরওয়াল, এছাড়াও সরোয়াল,[১][২] সেরুয়াল, সারুয়েল বা সেরুয়েল[৩] (আরবি: سِرْوَال‎‎ (সিরওয়াল); ফার্সি: شلوار‎‎ (সালওয়ার); কুর্দি: شه‌واڵ (শাওয়াল); উর্দু: شلوار‎‎ (শালওয়ার); তুর্কী: şalvar; আজারবাইজানি: সালওয়ার; কাজাখ: шалбар (সালবার); বাংলা: সালোয়ার), কিছু ক্ষেত্রে, হারেম প্যান্ট নামেওপরিচিত, হল প্রাচীন খ্রিস্টান যুগের এক ধরনের ঢোলা প্যান্ট।[৪] এগুলি সাধারণত মুসলিম দেশে পরিহিত হয়, তবে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের আগে উস্মানীয় তুর্কি দ্বারা প্রভাবিত গ্রিসদেশীয় গ্রামাঞ্চলে এবং বলকান অঞ্চলে ব্যাপকভাবে পরা হত। উৎসগতভাবে পোশাকটি মূলত একটি আরবীয় পোশাক নয় এবং ইরান থেকে অন্যান্য মধ্যপ্রাচ্য অঞ্চলে প্রবর্তিত হয়েছিল।[৫][৬] উত্তর ভারতের বিভিন্ন সম্প্রদায়গুলিও সিরওয়াল পরে থাকে।[৭]

দড়িবাঁধা থাকার ফলে সিরওয়ালকে কোমর বা নিতম্বের স্তরে পরা যায়।

প্রকার[সম্পাদনা]

এটি সাধারণত সুতি, লিনেন বা পলিয়েস্টার থেকে তৈরি করা হয়। কখনও কখনও আস্তিনে সূচিকর্ম করা থাকে।

দুটি ধরনের সিরওয়াল রয়েছে, দীর্ঘ এবং খাটো আকারের। খাটো সিরওয়াল পরতে দেখা যায় বেশিরভাগ সৌদি পুরুষদের। পাশ্চাত্য অঞ্চলের পুরুষরা সাধারণত দীর্ঘ সিরওয়াল পরে থাকেন।

উর্দি[সম্পাদনা]

ফরাসী সেনাবাহিনীর আলজেরীয় সৈনিক তার জোয়াভ উর্দির অংশ হিসাবে সিরওয়াল পরিহিত ১৯১৩।

নেপোলিয়নের ইম্পেরিয়াল গার্ডের মামলুক সেনাদলের সাধারণ উর্দির অংশ ছিল সিরওয়াল।[১][২][৮] ১৮৩০ সাল থেকে ১৯৬২ সাল অবধি উত্তর আফ্রিকার জোয়াভ, স্পাহী এবং ফরাসি সেনাবাহিনীর তিরাইলুর সেনাদলের উর্দি ছিল সিরওয়াল। ফরাসি সেনাবাহিনীর সিরওয়াল সংস্করণটি এত প্রশস্ত ছিল যে এর জন্য প্যান্টের দুটি পৃথক পায়ের প্রয়োজন হত না। আমেরিকান গৃহযুদ্ধ চলাকালীন বেশ কয়েকটি স্বেচ্ছাসেবী সেনাদল, যাদের জোয়াভ বলা হত, তারা সিরওয়াল পাজামাও পরত। কিন্তু এগুলি সাধারণত চাসেওর নকশার ছিল অর্থাৎ প্রচলিত প্যান্টের কেবল অনেকটা ঢোলা সংস্করণ।[৩]

আরো দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Strachan, Edward (2009) Russian Orientalism & Constantinople, p. 150. Sphinx Fine Art At Google Books. Retrieved 23 August 2013.
  2. Pawly, Ronald (2012) Napoleon's Mamelukes, p. 46. Osprey Publishing At Google Books. Retrieved 23 August 2013.
  3. Smith, Robin (1996)American Civil War Zouaves, p. 52. Osprey Publishing At Google Books. Retrieved 23 August 2013.
  4. The word is of Persian origin; [shalwār] (F. Steingass: Persian-English Dictionary, p.758a) was borrowed into Greek as σαράβαρα sarábāra, "loose trousers worn by Scythians" (Liddell & Scott, A Greek-English Lexicon). The words used in Balkan languages came through the Ottoman Turks and did not continue the Ancient Greek designation.
  5. "Sirwāl" in Walther Björkman (1997), Encyclopaedia of Islam, 2nd ed., volume IX: San–Sze, edited by C. E. Bosworth, E. van Donzel, W. P. Heinrichs and the late G. Lecomte, Leiden: E. J. Brill, আইএসবিএন ৯০-০৪-১০৪২২-৪, page 676
  6. "الثقافة الشعبية"www.folkculturebh.org। সংগ্রহের তারিখ ১৭ আগস্ট ২০১৮ 
  7. Sikh Cultural Centre., (2003) The Sikh Review, Volume 51, Issues 1-6; Volume 51, Issues 589-594 [১]
  8. Thomas, Nigel (2012) Armies in the Balkans 1914-18, p. 23. Osprey Publishing. At Google Books. Retrieved 23 August 2013.