সাক্ষী মালিক

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
সাক্ষী মালিক
ব্যক্তিগত তথ্য
জাতীয়তাভারতীয়
জন্ম (1993-01-03) ৩ জানুয়ারি ১৯৯৩ (বয়স ২৬)
রোহতক,[১] হরিয়াণা, ভারত
উচ্চতা১৬২ সেমি (৫ ফু ৪ ইঞ্চি) (2016)[২]
ওজন৫৮ কিলোগ্রাম (১২৮ পা) (২০১৬)[২]
ক্রীড়া
দেশভারত
ক্রীড়াফ্রিস্টাইল কুস্তি
ঘটনাসমূহ৬৩ কেজি
কোচঈশ্বর দাহিয়া

সাক্ষী মালিক (জন্ম: ৩ সেপ্টেম্বর ১৯৯২) হলেন একজন ভারতীয় মহিলা কুস্তিগীর।[৪] তিনি সাধারণত মহিলাদের ৫৮ কেজি ফ্রিস্টাইল শ্রেণীতে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে থাকেন। ২০১৬ গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিকে তিনি মেয়েদের কুস্তির ৫৮ কেজি বিভাগে ব্রোঞ্জ পদক জয় করেন, তিনি প্রথম ভারতীয় নারী হিসেবে অলিম্পিকের কুস্তিতে পদক জয় করেন।[৫]

মালির এর আগে গ্লাসগোতে অনুষ্ঠিত ২০১৪ কমনওয়েলথ গেমসে রৌপ্য এবং দোহায় ২০১৫ এশিয়ান রেসলিং চ্যাম্পিয়নশিপে ব্রোঞ্জ পদক জিতেন।[৪][৬] এছাড়াও তিনি ২০১৪ ওয়ার্ল্ড রেসলিং চ্যাম্পিয়নশিপে মহিলাদের ফ্রিস্টাইল ৬০ কেজি শ্রেণীতে ভারতের প্রতিনিধিত্ব করেছিলেন।

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

আন্তর্জাতিক অঙ্গনে একজন পেশাদার কুস্তিগির হিসেবে মালিকের প্রথম সাফল্য এসেছিল জুনিয়র বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপে ২০১০ সালে যেখানে তিনি ৫৮ কেজি ফ্রিস্টাইল ইভেন্টে ব্রোঞ্জ পদক জেতেন।[৭] ২০১৪ সালে ডেভ শুলজ আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টে, তিনি ৬০ কেজি ওজন শ্রেণীতে স্বর্ণ পদক জিতেছিলেন।

২০১৪ কমনওয়েলথ গেমস[সম্পাদনা]

সাক্ষী কমনওয়েলথ গেমস, স্কটল্যান্ডের গ্লাসগো ক্যাম্পেইনে তার প্রথম ম্যাচ কোয়ার্টার ফাইনালে ক্যামেরুনের এডিগ নাগোনো আয়িই সাথে লড়েন এবং ৪-০ ব্যবধানে সহজেই পরাজিত করেন। সেমিফাইনালে, সাক্ষী কানাডার ব্রাক্সটন রেই স্টোন এর মুখোমুখি হন, যাদের লড়াই ভালই জমে উঠে কিন্তু সাক্ষী শিগ্রই ৩-১ ব্যবধানে জয়ী হয়ে কমনওয়েলথ গেমসে পদক নিশ্চিত করেন। ফাইনালে তার নাইজেরিয়ার আমিনাত আদিনিয়ি সাথে মোকাবিলা হয়, যাতে সাক্ষী ৪ - ০ ব্যবধানে পরাজিত হন এবং রৌপ্য পদক জয়ের সৌভাগ্য লাভ করেন।[৮]

২০১৪ বিশ্ব কুস্তি চ্যাম্পিয়নশিপ[সম্পাদনা]

উবেকিস্তানের তাসখন্দে অনুষ্ঠিত ওয়ার্ল্ড রেসলিং চ্যাম্পিয়নশিপে অংশগ্রহণ করেন। ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৪ তারিখে ১৬ জনের পর্বে তিনি সেনেগালের আন্তা পামবেউর মুখোমুখি হন এবং ৪-১ ব্যবধানে জয়ী হন। কিন্তু পরের রাউন্ডে তিনি শীঘ্রই ফিনল্যান্ডের প্রেত্রা মেরিট ওলির নিকট ১ - ৩ ব্যবধানে পরাজয় বরন করেন। তবে সেদিন তার ফলাফলই সেরা ছিল, যখন অন্য তিনজন কুস্তিগীর শুরুতেই পরাজিত হয়ে বিদায় নিয়েছিলেন।[৯]

২০১৫ সিনিয়র এশিয়ান কুস্তি চ্যাম্পিয়নশিপ[সম্পাদনা]

৯ মে ২০১৫ সালে কাতারের দোহায় শুরু হওয়া মাসব্যাপী সিনিয়র এশিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপে ৬০ কেজি শ্রেণীতে পাঁচটি রাউন্ডে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। তারমধ্যে দুটিতে পরাজয় ও তিনটিতে জয়লাভ করে তিনি ব্রোঞ্জ পদক জিতে নেন। প্রথম রাউন্ডে সাক্ষী চীনের লিও জিওজুনের মুখোমুখি হন এবং ৪ - ৫ ব্যবধানে পরাজিত করেন। দ্বিতীয় রাউন্ডে তিনি মঙ্গোলিয়ার তুনগালাগকে ১৩-০ ব্যবধানে পরাজিত করেন। তৃতীয় রাউন্ডে তিনি জাপানের উশিমি কায়ামার নিকট শোচনীয়ভাবে পরাজিত হন। চতুর্থ রাউন্ডে সাক্ষী কাজাখস্তানের আয়ালীম কাসিমোভাকে পরাজিত করে ব্রোঞ্জ পদক জিততে সক্ষম হন।[১০]

২০১৬ গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিক[সম্পাদনা]

মালিক মে ২০১৬তে অলিম্পিকের বিশ্ব অলিম্পিক বাছাইপর্বে ৫৮কেজির ওজন শ্রেণীতে সেমিফাইনালে চীনের ঝাং লানকে পরাজিত করে ২০১৬ রিও অলিম্পিকে যোগ্যতা অর্জন করেন, তিনি ৩২ দফা কুস্তিতে সুইডেনের জোহান্না মাট্টসনের বিরুদ্ধে এবং মোল্দাভিয়ার, মারিয়ানা ছেরদিভারার বিরুদ্ধে ১৬ দফার কুস্তিতে জেতেন।[১১]. কোয়ার্টার ফাইনালে রাশিয়ার সম্ভাব্য ফাইনালিস্ট ভ্যালেরিয়া কোবলোভার কাছে পরাজিত হবার পর, তিনি রিপিচেজ দফায় উন্নীত হন, যেখানে তিনি তার প্রথম দফার কুস্তিতে মঙ্গোলিয়ার পুরেভদোরজিন অর্খোনকে পরাজিত করেন। তিনি এক পর্যায়ে ০-৫ এ পিছিয়ে থেকেও রিপিচেজ দফায়, এশিয়ান চ্যাম্পিয়ন কিরগিজস্তানের আইসুলু টাইনিবেকোভাকে উপর ৮-৫ এ পরাজিত করে ব্রোঞ্জ পদক লাভ করেন এবং ভারতের মহিলা কুস্তিগীরের মধ্যে প্রথম অলিম্পিক পদক লাভের সম্মান অর্জন করেন।[১২]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "SAKSHI MALIK" [সাক্ষী মালিক] (ইংরেজি ভাষায়)। কমনওয়েলথ গেমস ফেডারেশন। সংগ্রহের তারিখ ৭ মার্চ ২০১৬ 
  2. "Sakshi Malik profile — Rio 2016" [সাক্ষী মালিকের প্রোফাইল - রিও ২০১৬]। rio2016.com (ইংরেজি ভাষায়)। ১৭ আগস্ট ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৮ আগস্ট ২০১৬ 
  3. "Commonwealth Championship: Female wrestling Seniors: 2013-12-05 Johannesburg (RSA): 63.0 kg"iat.uni-leipzig.de (ইংরেজি ভাষায়)। ইউনাইটেড ওয়ার্ল্ড রেসলিং। ২০১৬-০৪-১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ আগস্ট ২০১৬ 
  4. "SAKSHI MALIK" (ইংরেজি ভাষায়)। কমনওয়েলথ গেমস ফেডারেশন। সংগ্রহের তারিখ ৭ মার্চ ২০১৬ 
  5. "মেডেল কামড়ে বোঝালেন ভারতের পদকের ক্ষুধা!"প্রথম আলো। সংগ্রহের তারিখ ১৮ আগস্ট ২০১৬ 
  6. "Commonwealth Games 2014: Sakshi Malik Gets Silver in Women's 58kg Freestyle Wrestling"NDTVSports.com (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৪-০৭-৩০। ২০১৬-০১-০৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৫-১০-২৭ 
  7. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; th1 নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  8. "Glasgow 2014 - Sakshi Malik Profile"g2014results.thecgf.com (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৫-০৭-৩০। সংগ্রহের তারিখ ২০১৫-১০-২৭ 
  9. "Sakshi Malik exits in quarterfinal of Freestyle women's 60kg on Day 3 of Wrestling World Championships at Tashkent - India at Sports"India at Sports (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৪-০৯-১০। সংগ্রহের তারিখ ২০১৫-১০-২৭ 
  10. "Sakshi, Lalita win bronze in Asian Wrestling Championship - Times of India"The Times of India (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৫-০৫-০৯। সংগ্রহের তারিখ ২০১৫-১০-২৭ 
  11. Biswal, Sattwik (৭ মে ২০১৬)। "Wrestlers Vinesh Phogat, Sakshi Malik grab Rio 2016 berths"India Today। সংগ্রহের তারিখ ১৮ আগস্ট ২০১৬ 
  12. "Sakshi Malik wins bronze medal in women's wrestling 58kg category, opens India's account at Rio 2016 Olympics"The Indian Express। সংগ্রহের তারিখ ১৭ আগস্ট ২০১৬