লক্ষ্মী বাওড় জলাবন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

লক্ষ্মী বাওড় জলাবন বা লক্ষ্মী বাওড় সোয়াম্প ফরেস্ট বাংলাদেশের সর্ববৃহত মিঠাপানির জলাবন এবং পাখির অভয়ারণ্য, যা হবিগঞ্জের বানিয়াচং এ অবস্থিত।[১] দৈর্ঘ্য ও প্রস্থে প্রায় সমান এই বনের আয়তন সাড়ে ৩ কিলোমিটার এবং আকার ও আয়তনের ব্যাপ্তিতে এটি রাতারগুল জলাবন অপেক্ষাও অনেক বড়।[২]

অবস্থান[সম্পাদনা]

সিলেট বিভাগের হবিগঞ্জ জেলার বানিয়াচং-এর খড়তি নদীর দক্ষিণ দিকে বিরাট হাওরের মধ্যে অবস্থিত এই জলাবন।[১] এই বনের দক্ষিণ দিকে লোহাচুড়া, উত্তরে খড়তি আর পশ্চিমে নলাই নদী আর পূর্বপাশে রয়েছে গঙ্গাজলের হাওরের অবস্থান।[২] হবিগঞ্জ থেকে ১২ মাইল দূরবর্তী বানিয়াচং উপজেলা সদরের আদর্শ বাজার নৌকাঘাট থেকে ৫ কিলোমিটার উত্তরে হাওরের মাঝে এ জলাবন।[১]

নামকরণ[সম্পাদনা]

খড়তি নদীর দক্ষিণ দিকে বিরাট হাওরের মধ্যে অবস্থিত এই জলাবন এলাকাবাসীর নিকট খড়তির জঙ্গল নামে পরিচিত।[৩]

উদ্ভিদবৈচিত্র্য[সম্পাদনা]

এই বনটিকে প্রথম-দর্শনে মনে হবে হিজল আর করচের বাগান।[৪] এই মিঠাপানির জলাবনটিতে দৃশ্যমান উদ্ভিদের মধ্যে হিজল-কড়চ ছাড়াও রয়েছে বরুণ, কাকুরা, বউল্লা, খাগড়া, চাইল্লা, নল ইত্যাদি অসংখ্য গাছ ও গুল্ম-লতা।[১]

প্রাণিবৈচিত্র্য[সম্পাদনা]

জলমগ্ন এই বনে সাঁপের আবাস বেশি; এদের মধ্যে রয়েছে কেউটে, লাড্ডুকা, দারাইশ সহ বিভিন্ন বিষধর সাপ।[১] এছাড়াও আছে জোঁক; শুকনো মৌসুমে বেজি আর গুই সাপও দেখা যায়। রয়েছে মেছোবাঘ, শিয়াল প্রভৃতি প্রাণী।[১] হরেক রকমের বিরল প্রজাতির পাখির বসবাস এই জলাশয়ে। এই জলাঞ্চলে বাংলাদেশের জাতীয় পাখি দোয়েল, সাদা বক, ঘুঘু, বালি হাঁস, পানকৌড়ি ও শালিকসহ বিভিন্ন প্রজাতির দেশীয় পাখির পাশাপাশি শীতকালে প্রচুর পরিযায়ী পাখিও আসে।[১][২] এটি দেশী ও অতিথি পাখির অভয়ারন্য হিসাবে সংরক্ষিত এলাকা।[১] এছাড়াও এখানকার খাল-বিল ও হাওড়-বাওড়ে পাওয়া যায় প্রচুর মিঠাপানির মাছ।[১]

পর্যটন আকর্ষণ[সম্পাদনা]

জলে ডুবে থাকা এই বনটি দেখতে বিভিন্ন সময়, বিশেষতঃ বর্ষা মৌসুমে এখানে ভিড় করেন পর্যটকগণ; বনের ভিতর ডিঙি নৌকায় চড়ে ঘুরতে ঘুরতে দেখা যায় অপরূপ প্রকৃতি।[৩]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "লক্ষ্মী বাওর জলাবন"। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার। ৫ মে ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৯ 
  2. "জেলা ব্র্যান্ডিং : বানিয়াচং'এর লক্ষ্মী বাওর জলাবন"। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার। ১১ জুলাই ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৯ 
  3. "ঈদে ঘুরে আসুন বিশ্বের বৃহত্তম গ্রাম বানিয়াচং"সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম। ৫ জুন ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৯ 
  4. "বানিয়াচংয়ের জলাবন : পর্যটকদের নতুন আকর্ষণ"দৈনিক কালেরকন্ঠ। ২৩ জুন ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৯ 

বহি:সংযোগ[সম্পাদনা]