মুক্ত সফটওয়্যার আন্দোলন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
রিচার্ড স্টলম্যান ফ্রি সফটওয়্যার আন্দোলনের অগ্রপথিক

মুক্ত সফটওয়্যার আন্দোলন বা ফ্রি/ওপেন সোর্স আন্দোলন অথবা ফ্রি/লিব্রে ওপেন সোর্স আন্দোলন (ইংরেজি: Free software movement) একটি সামাজিক আন্দোলন[১] যার উদ্দেশ্য সফটওয়্যার ব্যবহারকারীদের নির্দিষ্ট কিছু অধিকার সংরক্ষণ করা, যার মধ্যে সফটওয়্যারটি রান করার স্বাধীনতা, অধ্যয়ন ও পরিবর্তন করার স্বাধীনতা এবং পরিবর্তনসহ বা পরিবর্তন ছাড়া পুনবিতরণ করার স্বাধীনতা রয়েছে। যদিও ৭০-এর দশকের হ্যাকার সংস্কৃতির সদস্যদের মধ্যে এধরনের দর্শনের দেখা মিলে, রিচার্ড স্টলম্যান গ্নু প্রকল্প শুরুর মাধ্যমে ১৯৮৩ সালে আনুষ্ঠানিকভাবে এর সূচনা করেন। [২] এ আন্দোলনকে এগিয়ে নেয়ার উদ্দেশ্যে ১৯৮৫ সালে স্টলম্যান ফ্রি সফটওয়্যার ফাউন্ডেশন গঠন করেন।

দর্শন[সম্পাদনা]

এ আন্দোলনটির দর্শন হলো, কম্পিউটার ব্যবহার মানুষকে একে অন্যকে সহযোগিতা করে থেকে বিরত যেন না পারে। প্রকৃতপক্ষে এর মানে হচ্ছে মালিকানাধীন সফটওয়্যার ব্যবহার না করা, এবং ফ্রি সফটওয়্যার ব্যবহার করা,[৩] যার মূল লক্ষ্য সাইবারস্পেসে সবাইকে তার স্বাধীনতা প্রদান করা।[৪] স্টলম্যান এ বিষয়কে প্রযুক্তির অগ্রগতিতে একটি উল্লেখযোগ্য অবদান হিসেবে দেখেন, কারণ এটি একই কাজের বিভিন্ন অপচয়জনক অনুলীপি তৈরিকে বাধাগ্রস্থ করে। বরং একে শিল্পের বিপরীত বলা যায় বলে তিনি জানান।[৫]

ফ্রি সফটওয়্যার আন্দোলনের সদস্যরা বিশ্বাস করে যে সফটওয়্যারে সমস্ত ব্যবহারকারীর ফ্রি সফটওয়্যার সংজ্ঞায় প্রদত্ত সমস্ত স্বাধীনতা থাকা উচিত। তাদের অনেকেই এধরনের স্বাধীনতা চর্চা থেকে ব্যবহারকারীকে বিরত করাকে অনৈতিক মনে করে। তারা আরও মনে করে সুষ্ঠ সমাজ গঠনে এবং তাদের নিজের কম্পিউটারের উপর তার নিজের পূর্ণ নিয়ন্ত্রনের জন্যে এ ধরনের চর্চা করা উচিত।[৬]

কিছু ফ্রি সফটওয়্যার ব্যবহারকারী এবং প্রোগ্রামার মালিকানাধীন সফটওয়্যারে উজ্জীবিত লাভজনকতা ও এর পেছনে তাদের প্রদত্ত বাড়তি সুবিধাকে বিবেচনা করে একে একেবারে অনৈতিক মনে করে না।[৭]

ফ্রি সফটওয়্যার ফাউন্ডেশন আরও বিশ্বাস করে যে সমস্ত সফটওয়্যারেরই ফ্রি ডকুমেন্টেশন প্রয়োজন, কারণ প্রোগ্রামার যে পরিবর্তনটি সফটওয়্যারটিতে এনেছে তা নির্দেশিকায়ও হালনাগাদ করা উচিত। [৮]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]