মহাত্মা গান্ধীর ভাস্কর্য

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
মহাত্মা গান্ধীর ভাস্কর্য
মহাত্মা গান্ধীর ভাস্কর্য দিল্লি-এ অবস্থিত
মহাত্মা গান্ধীর ভাস্কর্য
দিল্লিতে অবস্থান
স্থানাঙ্ক২৮°৩৭′০২″ উত্তর ৭৭°১২′২৯″ পূর্ব / ২৮.৬১৭১৮৯° উত্তর ৭৭.২০৮০৮৪° পূর্ব / 28.617189; 77.208084
অবস্থানসংসদ ভবন (ভারত)
নকশাকারকরাম ভি. সুতার
ধরনভাস্কর্য
উপাদানব্রোঞ্জ
উচ্চতা১৬ ফুট
খোলার তারিখ১৯৯৩
নিবেদিতমোহনদাস করমচাঁদ গান্ধী

মহাত্মা গান্ধীর ভাস্কর্য মোহনদাস করমচাঁদ গান্ধীর একটি ১৬ ফুট লম্বা ব্রোঞ্জের ভাস্কর্য যা ভারতের সংসদ ভবন চত্বরে অবস্থিত। রাম ভি. সুতার ভাস্কর্যটির নকশা করেছেন। ১৯৯৩ সালে ভাস্কর্যটির উদ্বোধন করা হয় এবং বর্তমানে এটি ভারতীয় সংসদ সদস্যদের প্রতিবাদের জন্য জড়ো হওয়ার অঘোষিত কেন্দ্রীয় স্থান হয়ে উঠেছে।[১]

ইতিহাস[সম্পাদনা]

নয়াদিল্লির সেন্ট্রাল ভিস্তায় গান্ধীর ভাস্কর্য নির্মাণের প্রাথমিক প্রস্তাব ১৯৬৮ সালে ইন্ডিয়া গেটের পিছনের ছাউনি থেকে রাজা পঞ্চম জর্জের ভাস্কর্য অপসারণের পর তৈরি করা হয়েছিল।[২] ১৯৬৯ সালে, সংসদে ঘোষণা করা হয়েছিল যে ভাস্কর্যটি ইন্ডিয়া গেটের কাছে সরকারি খরচে স্থাপন করা হবে।[৩] ১৯৭৮ সালে, মোরারজী দেসাই নেতৃত্বাধীন সরকার একটি ভাস্কর্য নির্মাণের জন্য নকশা জমাদানের প্রস্তাব দেয়। ভারত জুড়ে ভাস্করদের কাছ থেকে বারোটি নকশা পাওয়া যায় যার মধ্যে রাম সুতারের নকশাটি নির্বাচিত হয়েছিল।[৪][৫] ১৯৮১ সালে, ইন্ডিয়া গেটের কাছে ক্যানোপিতে স্থাপন করার জন্য ধ্যানের ভঙ্গিতে গান্ধীর একটি নকশা নিয়ে নির্মাণকাজ শুরুর সিদ্ধান্ত হয়েছিল। যাইহোক, প্রস্তাবিত ভাস্কর্যটি একটি নন্দনতত্ত্ব প্রস্তুত করার জন্য ছাউনি অপসারণের প্রস্তাব সম্পর্কে স্থপতি এবং ঐতিহ্য সংরক্ষণকারীদের বিরোধিতার কারণে এই প্রস্তাব বাস্তবায়িত হয়নি। ১৯৮৯ সালের মধ্যে, ভাস্কর্যর প্লাস্টার ঢালাই সম্পন্ন হয়।[৬] ১৯৯৩ সালের মধ্যে এটির নির্মাণ শেষ হয়েছিল কিন্তু এটিকে ছাউনির নীচে রাখার প্রস্তাবে সংসদ সদস্যরা আপত্তি করেছিলেন।[৭] জর্জ ফার্নান্দেস বিষয়টি সংসদে উত্থাপন করেছিলেন; তিনি সরকারকে 'রাস্তার মাঝখানে গান্ধী' রেখে যাওয়ার অভিযোগ করেছিলেন।[৮] ভাস্কর্যটি পরবর্তীকালে নগর উন্নয়ন মন্ত্রক সংসদকে দান করে এবং ১৯৯৩ সালের গান্ধী জয়ন্তীতে রাষ্ট্রপতি শঙ্কর দয়াল শর্মা এটি উন্মোচন করেন।[৯][১০]

নকশা[সম্পাদনা]

রাম সুতার দ্বারা নকশা করা ভাস্কর্যটিতে পদ্মের অবস্থানে উপবিষ্ট ধ্যানরত গান্ধীকে চিত্রিত করা হয়েছে।[১১] সংসদ ভবনের ১নং গেইটের কাছে এটি স্থাপন করা হয়েছিল যাতে সংসদ সদস্যরা ভবন থেকে বের হয়ে গান্ধীর শান্তিপূর্ণ ভাস্কর্য দেখতে পান। ভাস্কর্যটি ব্রোঞ্জের তৈরি এবং এর উচ্চতা ১৬ ফুট।[১২][১৩] ভাস্কর্যটিতে গান্ধীর উপবিষ্ট ভঙ্গি তার ঐতিহ্যবাহী উপস্থাপনা থেকে আমূলভাবে আলাদা এবং এটি গান্ধীর অভিব্যক্তির নির্মলতা এবং তার ভারবহনের নিস্তব্ধতার উল্লেখ করা হয়েছে।[১৪][১৫]

প্রতিবাদ স্থল[সম্পাদনা]

ভাস্কর্যটির অবস্থানে প্রায়শই সংসদ সদস্যরা বিশেষ করে বিরোধী দলের সদস্যরা বিভিন্ন প্রতিবাদ এবং সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে থাকেন।[১৬][১৭][১৮] ২০০৫ সালে, ক্ষমতাসীন দলের বেশ কয়েকজন সদস্য বিরোধীদের দ্বারা সংসদ ঘন ঘন বিঘ্নিত হওয়ার কারণে এইস্থলে প্রতিবাদ করেছিলেন।[১৯] লোকসভা সচিবালয় একটি সংবাদ বিজ্ঞপ্তি জারি করে কোনও বিক্ষোভ বা ধর্মীয় অনুষ্ঠানের জন্য সংসদের প্রাঙ্গণ ব্যবহার করতে বাঁধা দেওয়ার পরে তৃণমূল কংগ্রেসের সাংসদ মহুয়া মৈত্র ভাস্কর্যটিকে সংসদ ভবনের চত্বর থেকে সরিয়ে নেওয়ার প্রস্তাব করেছিলেন।[২০]

স্থানান্তর[সম্পাদনা]

নতুন সংসদ ভবনের নির্মাণ কাজের অংশ হিসেবে ভাস্কর্যটিকে সংসদ ভবনের প্রধান ফটকের পাশের অবস্থান থেকে ৩ নং গেইটের কাছে স্থানান্তর করা হয়েছে।[২১] এটি সম্পূর্ণ হওয়ার পরে নতুন ভবনের আশেপাশে একটি বিশিষ্ট স্থানে পুনরায় স্থানান্তর করার প্রস্তাব করা হয়েছে।[২২]

প্রতিরূপ[সম্পাদনা]

মহাত্মা গান্ধীর ভাস্কর্য, বিধান সৌধ

করনাটকের বিধান সৌধে গান্ধীর ২৭ ফুট লম্বা ভাস্কর্য ২০১৪ সালে উদ্বোধন করা হয়েছিল, এটি সংসদ ভবনের মূর্তির প্রতিরূপ। এটিকে উপবিষ্ট অবস্থায় গান্ধীর বিশ্বের সবচেয়ে উঁচু মূর্তি বলে দাবি করা, এই ভাস্কর্যটিও রাম সুতার তৈরি করেছিলেন।[২৩][২৪][২৫]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Mahatma Gandhi's Statue At Parliament Moved To Make Way For Construction"NDTV.com। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  2. Vohra, Pankaj (২২ জানুয়ারি ২০২২)। "Not Gandhi's but Netaji statue under the canopy next to India Gate"The Daily Guardian। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  3. Alley, Kelly D. (১৯৯৭)। "Gandhiji on the Central Vista: A Postcolonial Refiguring": 967–994। আইএসএসএন 0026-749Xজেস্টোর 312851ডিওআই:10.1017/S0026749X00017224। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  4. Alley, Kelly D. (১৯৯৭)। "Gandhiji on the Central Vista: A Postcolonial Refiguring": 967–994। আইএসএসএন 0026-749Xজেস্টোর 312851ডিওআই:10.1017/S0026749X00017224। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  5. "The Location of Netaji's Statue Should Have Been Better Chosen"The Wire। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  6. Alley, Kelly D. (১৯৯৭)। "Gandhiji on the Central Vista: A Postcolonial Refiguring": 967–994। আইএসএসএন 0026-749Xজেস্টোর 312851ডিওআই:10.1017/S0026749X00017224। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  7. "Why PM Modi wasted no time in installing Netaji's statue"The Indian Express (ইংরেজি ভাষায়)। ৩০ জানুয়ারি ২০২২। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  8. Mathew, Liz (২৬ নভেম্বর ২০২০)। "Mahatma Gandhi's iconic statue, part of Parliament's identity, site of protest and veneration"The Indian Express (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  9. "Statues / Busts of National Leaders installed outside the Parliament House building"। Lok Sabha, India। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  10. "PM Modi likely to lay foundation stone for new Parliament building in December"Deccan Herald (ইংরেজি ভাষায়)। ২৫ নভেম্বর ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  11. "Story behind the statue of protest in Parliament"The Indian Express (ইংরেজি ভাষায়)। ১৯ ডিসেম্বর ২০২১। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  12. "This Gandhi Jayanti, we follow trail of the Mahatma's statues in Delhi NCR"Hindustan Times (ইংরেজি ভাষায়)। ১ অক্টোবর ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  13. "Modi Likely To Lay Foundation Stone for New Parliament Building in December"The Wire। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  14. Narayanan, Nayantara। "Two Indian sculptors have created most of the Gandhi statues around the world"Scroll.in। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  15. "Ram Sutar and Mahatma Gandhi -the journey goes back to many decades"Times of India। ১ অক্টোবর ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  16. "Iconic Gandhi Statue at Parliament House to Be Moved During Construction of New Building"The Wire। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  17. "New Parliament building: Gandhi statue hurriedly shifted, move raises eyebrows"Hindustan Times (ইংরেজি ভাষায়)। ২১ জানুয়ারি ২০২১। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  18. "Protests or Religious Ceremonies Cannot Be Held in the Parliament House: Rajya Sabha Circular"The Wire। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  19. Mathew, Liz (২৬ নভেম্বর ২০২০)। "Mahatma Gandhi's iconic statue, part of Parliament's identity, site of protest and veneration"The Indian Express (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  20. "'Why not just remove Gandhi's statue': TMC MP Mahua Moitra after Parliament says no dharna inside House"TimesNow (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  21. "Parliament work on, Gandhi statue moved temporarily"The Indian Express (ইংরেজি ভাষায়)। ২১ জানুয়ারি ২০২১। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  22. Nath, Damini (২৪ নভেম্বর ২০২০)। "Gandhi statue to be shifted to temporary spot to make way for Parliament construction"The Hindu (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  23. Prasad, Shyam। "Vidhana Soudha to get bronze Mahatma"Bangalore Mirror (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  24. "Tall Gandhi statue to grace Vidhana Soudha"Deccan Herald (ইংরেজি ভাষায়)। ২ সেপ্টেম্বর ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২ 
  25. "Showing peace on Gandhi's face was quite a task: Sculptor"Deccan Herald (ইংরেজি ভাষায়)। ২ অক্টোবর ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০২২