ব্রহ্মস

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ব্রহ্মস
Brahmos imds.jpg
আইএমডিএস ২০০৭-এ ব্রহ্মস প্রদর্শন করা হয়
প্রকার ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র
বায়ুতে উৎক্ষেপণ যোগ্য ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র
জাহাজ বিরোধী ক্ষেপণাস্ত্র
ভূমিতে আক্রমণকারী ক্ষেপণাস্ত্র
ভূমি থেকে ভূমিতে নিক্ষেপণ যোগ্য ক্ষেপণাস্ত্র
উদ্ভাবনকারী ভারত / রাশিয়া
ব্যবহার ইতিহাস
ব্যবহারকাল নভেম্বর ২০০৬
ব্যবহারকারী ভারতীয় সেনাবাহিনী
ভারতীয় নৌবাহিনী
ভারতীয় বিমানবাহিনী
উৎপাদন ইতিহাস
নকশাকারী প্রতিরক্ষা গবেষণা ও উন্নয়ন সংস্থা
এনপিও মাশিনোস্ট্রোয়েনিয়া
উৎপাদনকারী ব্রাহ্মস এয়ারস্পেস লিমিটেড[১]
উৎপাদন
খরচ (প্রতিটি)
$২.৭৫ মিলিয়ন
সংস্করণসমূহ জাহাজ-উৎক্ষেপণ
ভূমি-উৎক্ষেপণ
ডুবোজাহাজ-উৎক্ষেপণ
বায়ু-উৎক্ষেপণ
ব্রহ্মস-২
তথ্যাবলি
ওজন ৩,০০০ কেজি (৬,৬০০ পা)
২,৫০০ কেজি (৫,৫০০ পা) (বায়ু-উৎক্ষেপণ)
দৈর্ঘ্য ৮.৪ মি (২৮ ফু)
ব্যাস ০.৬ মি (২.০ ফু)

Warhead ২০০ কেজি (৪৪০ পা) প্রচলিত আধা- তীক্ষ্ন-বর্ম ও পারমাণবিক [১১][১৪]
৩০০ কেজি (৬৬০ পা) (বায়ু-উৎক্ষেপণ) উভয়ই দেশীয়ভাবে ভারতীয় অর্ডিন্যান্স কারখানাগুলি দ্বারা উৎপাদিত

ইঞ্জিন প্রথম পর্যায়ে: শক্ত জ্বালানী রকেট বুস্টার
দ্বিতীয় পর্যায়: তরল জ্বালানী রামজেট

উভয়ই দেশীয়ভাবে ভারতীয় অর্ডিন্যান্স কারখানাগুলি দ্বারা উৎপাদিত[২][৩]

অপারেশনাল
রেঞ্জ
ভূমি পৃষ্ঠ/সমুদ্র প্ল্যাটফর্ম- ৫০০ কিমি (৩১০ মা; ২৭০ নটিক্যাল মাইল) (আসল/রপ্তানি)[৫][৬][৭] উন্নয়নের মাধ্যমে ৬০০ কিমি (৩৭০ মা; ৩২০ নটিক্যাল মাইল) করে হয়েছে

এয়ার প্ল্যাটফর্ম - ৪০০ কিমি (২৫০ মা; ২২০ নটিক্যাল মাইল)[৮]

Flight ceiling ১৫ কিমি (৪৯,০০০ ফু)[১১]
ফ্লাইট উচ্চতা সাগর স্কিমিং, সর্বোনিন্ম ৩-৪ মিটার[১১][১২]
গতিবেগ Mach ৪ (৪,৯০০ কিমি/ঘ; ৩,০০০ মা/ঘ; ১.৪ km/s)[১][৪]
নির্দেশনা
পদ্ধতি
আইএনএস দ্বারা মিড-কোর্স গাইডেন্স
সক্রিয় রাডার হোমিং-এর মাধ্যমে টার্মিনাল গাইডেন্স
জিপিএস/গ্লোনাস/গগন উপগ্রহ গাইডেন্স[৯][১০]
Accuracy ১ মিটার সম্ভাব্য বৃত্তাকার ত্রুটি [১৩]
লঞ্চ
প্লাটফর্ম
জাহাজ, ডুবোজাহাজ , বিমান (পরীক্ষাধীন) এবং ভূমি ভিত্তিক মোবাইল লঞ্চার।

ব্রহ্মস (মনোনীত পিজে-১০)[১৫] একটি মাঝারি পরিসরের রামজেট সুপারসনিক ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র, যা ডুবোজাহাজ, জাহাজ, বিমান বা ভূমি থেকে উৎক্ষেপণ করা যায়। এটি বিশ্বের দ্রুততম সুপারসনিক ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র।[১৫] এটি রাশিয়ান ফেডারেশনের এনপিও মাশিনোস্ট্রোয়েনিয়া এবং ভারতের প্রতিরক্ষা গবেষণা ও উন্নয়ন সংস্থা (ডিআরডিও) এর মধ্যে একটি যৌথ উদ্যোগে নির্মিত, যারা মিলে ব্রহ্মোস এয়ারোস্পেস গঠন করে।[১৬] এটি রাশিয়ান পি-৮০০ ওনিক্স ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র এবং অন্যান্য অনুরূপ সমুদ্র-স্কিমিং রাশিয়ান ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র প্রযুক্তির উপর ভিত্তি করে নির্মিত। ব্রহ্মস নামটি ভারতের ব্রহ্মপুত্র এবং রাশিয়ার মস্কভা নামে দুটি নদীর নাম থেকে গঠিত একটি পোর্টম্যানট্যু।

এটি বিশ্বের দ্রুততম অ্যান্টি-শিপ ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র।[১৭][১৮][১৯] ক্ষেপণাস্ত্রটি মাচ ৪,[৪] গতিতে ভ্রমণ করে, যা মাচ ৫.০-তে উন্নীত করা হচ্ছে।[২০] ভূমি থেকে উৎক্ষেপণ এবং জাহাজ থেকে উৎক্ষেপণ করার সংস্করণগুলি ইতিমধ্যে পরীক্ষামূলক পর্যায়ে বায়ু এবং ডুবোজাহাজ থেকে উৎক্ষেপণ যোগ্য সংস্করণগুলির সাথে ইতিমধ্যে পরিষেবাতে রয়েছে।[২১] ব্রহ্মসের একটি বায়ুতে উৎক্ষেপণ যোগ্য সংস্করণ ২০১২ সালে উপস্থিত হয়। ক্ষেপণাস্ত্রটির একটি হাইপারসোনিক সংস্করণ, ব্রহ্মোস-২, বর্তমানে দ্রুতগতির বায়ু প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর জন্য মাচ ৭-৮ এর গতির সাথে উন্নয়নের মধ্যে রয়েছে। এটি ২০২০ সালের মধ্যে পরীক্ষার জন্য প্রস্তুত বলে আশা করা হচ্ছে।[২২]

ভারত চেয়েছিল ব্রাহ্মস পি-৭০০ গ্রানিটের মতো মাঝারি পাল্লার ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রের ভিত্তিতে তৈরি হোক। এর ইঞ্জিন রাশিয়ান ক্ষেপণাস্ত্র উপর ভিত্তি করে এবং ক্ষেপণাস্ত্র নির্দেশিকা ব্রহ্মস এয়ারোস্পেস দ্বারা তৈরি করা হয়। এই ক্ষেপণাস্ত্রের মোট ক্রয়ের আবেদন মূল্য $১৩ বিলিয়ন মার্কিন ডলারে পৌঁছবে বলে আশা করা হচ্ছে।[২৩][২৪]

২০১৬ সালে, ভারত মিসাইল টেকনোলজি কন্ট্রোল রেজিম-এর (এমটিসিআর) সদস্য হয়, ভারত এবং রাশিয়া যৌথভাবে ৬০০ কিলোমিটারের বেশি পাল্লার এবং যথার্থতার সাথে সুরক্ষিত ভাবে লক্ষ্যবস্তুগুলিকে আঘাত করার ক্ষমতা'সহ ব্রাহ্মস ক্ষেপণাস্ত্রগুলির একটি নতুন প্রজন্মকে যৌথভাবে আধুনিকরণের পরিকল্পনা করে। ২০১৯ সালে, ভারত ৫০০ কিলোমিটার পাল্লার নতুন ক্ষেপণাস্ত্র বিকশিত করে।[৫][২৫][২৬][২৭]

উৎপাদন এবং বিস্তার[সম্পাদনা]

মানচিত্রে নীল রঙে চিহ্নিত দেশগুলি ব্রহ্মস পরিচালনা করে।

ভারতরাশিয়া তাদের যৌথ উদ্যোগী সংস্থার মাধ্যমে আগামী দশ বছরে ২ হাজার ব্রহ্মস সুপারসনিক ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র তৈরির পরিকল্পনা করেছে এবং তাদের প্রায় ৫০% বন্ধুত্বপূর্ণ দেশে রফতানি হবে বলে আশা করা হচ্ছে।[২৮][২৯] ব্রাহ্মস সদর দপ্তর নতুন দিল্লিতে অবস্থিত এবং এটি একটি নকশা কেন্দ্র এবং মহাকাশ জ্ঞান কেন্দ্র নিয়ে গঠিত। একত্রীকরণ কেন্দ্র হায়দ্রাবাদে এবং একটি উৎপাদন কেন্দ্রটি তিরুবনন্তপুরমে অবস্থিত।[৩০] পিলানীতে আরও একটি ক্ষেপণাস্ত্র সংযোজন কেন্দ্র স্থাপন করা হচ্ছে।[৩১]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "BRAHMOS Supersonic Cruise Missile"BrahMos.com। ৫ আগস্ট ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  2. https://m.timesofindia.com/city/pune/pune-lab-develops-indigenous-booster-for-brahmos-missile/articleshow/61774751.cms
  3. http://forceindia.net/interview/director-general-drdo-brahmos-ceo-managing-director-brahmos-aerospace-dr-sudhir-kumar-mishra/
  4. "BrahMos test-fired off west coast"Hinduonnet.com। ১৬ এপ্রিল ২০০৫। ২২ আগস্ট ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩১ আগস্ট ২০১০ 
  5. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; :4 নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  6. "Archived copy"। ২২ মার্চ ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২১ মার্চ ২০১৭ 
  7. "Archived copy"। ২২ মার্চ ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২১ মার্চ ২০১৭ 
  8. http://pib.nic.in/newsite/PrintRelease.aspx?relid=173744
  9. Bana, Sarosh (মে–জুন ২০১৭)। "Armed to the Hilt – Indian Navy's Anti-Ship Missiles" (PDF)Vayu Aerospace and Defence Review। নং 3। Society for Aerospace Studies। পৃষ্ঠা 68। 
  10. "Indian Navy test-fires Brahmos supersonic missile" (PDF)Vayu Aerospace and Defence Review। নং 3। Society for Aerospace Studies। মে–জুন ২০১৭। পৃষ্ঠা 18। 
  11. "BrahMos supersonic cruise missile"। Brahmos Aerospace। ৫ আগস্ট ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৮ জুলাই ২০১৩ 
  12. "Ship launched Sea skimming BrahMos destroys target"। ৩ সেপ্টেম্বর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  13. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; forcem2009 নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  14. "BrahMos test-fired off west coast"। RiaNovosti----The integration of the navigation systems from Kh-555 will turn BrahMos, a supersonic cruise missile, into a "super-rocket" with almost a sub-strategic capability above its normal tactical range, capable of hitting targets up to 290 km away, from sea, land and air launchers, and capable of being armed with a nuclear warhead, the source said.। ৯ অক্টোবর ২০১২। ২০ ডিসেম্বর ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৮ নভেম্বর ২০১২ 
  15. "BrahMos air launch completes India's supersonic cruise missile triad: Five things you need to know"Indian Express 
  16. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; aw4m13 নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  17. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; pru20a নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  18. "BRAHMOS- The Record Breaker"। BrahMos। ১২ আগস্ট ২০১১। ৮ এপ্রিল ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  19. Diplomat, Franz-Stefan Gady, The। "India Test Fires Supersonic Cruise Missile"The Diplomat (ইংরেজি ভাষায়)। ২০ মার্চ ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৯ মার্চ ২০১৭ 
  20. IANS (৫ ডিসেম্বর ২০১৭)। "BrahMos to be upgraded to 'hypersonic' in a decade: Scientist"news। The Economic Times। ৬ ডিসেম্বর ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৫ ডিসেম্বর ২০১৭ 
  21. "armed with brahmos, INS Teg inducted into Indian Navy"। BrahMos। ১২ এপ্রিল ২০১২। ৭ জানুয়ারি ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  22. "Russia, India to test-fly hypersonic missiles by 2017: BrahMos chief"The Hindu। ২৮ জুন ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুন ২০১২ 
  23. Peerzada Abrar,ET Bureau (২৩ জুলাই ২০১০)। "BrahMos order book swells to $13 billion – The Economic Times" (ফরাসি ভাষায়)। Economictimes.indiatimes.com। ৫ সেপ্টেম্বর ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৫ সেপ্টেম্বর ২০১০ 
  24. Peerzada Abrar (১ সেপ্টেম্বর ২০১০)। "BrahMos aims to create $13 billion order book – The Economic Times"। Economictimes.indiatimes.com। ৪ সেপ্টেম্বর ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৫ সেপ্টেম্বর ২০১০ 
  25. "Press Releases :: Upgraded BRAHMOS with 500-km range ready: BrahMos Chief"BrahMos Aerospace। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০৮-১৬ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  26. "MTCR benefit: India, Russia to develop 600-km range cruise missiles that can cover entire Pakistan"The Economic Times। ১৯ অক্টোবর ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৯ অক্টোবর ২০১৬ 
  27. "BrahMos missile with higher range: This 'killer' India-Russia project will scare Pakistan and China"The Financial Express (India)। ২০ অক্টোবর ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৯ অক্টোবর ২০১৬ 
  28. "BrahMos to increase production of Russian-Indian cruise missiles"RIA NOVOSTI। ৬ ডিসেম্বর ২০০৭। ২৯ সেপ্টেম্বর ২০০৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০ নভেম্বর ২০১১ 
  29. "Brahmos Cruise Missile Production To Double in 2008"। Aeroindia.org। ২৫ এপ্রিল ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩০ এপ্রিল ২০১৩ 
  30. "BrahMos Work Centres - BrahMos.com"www.brahmos.com। ৬ জুন ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১১ আগস্ট ২০১৭ 
  31. "2 state villages chosen by DRDO for setting up radar to track enemy | Latest News & Updates at Daily News & Analysis"dna (ইংরেজি ভাষায়)। ৪ আগস্ট ২০১৭। ১১ আগস্ট ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১১ আগস্ট ২০১৭ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]