বিলবাও

স্থানাঙ্ক: ৪৩°১৫′২৫″ উত্তর ২°৫৫′২৫″ পশ্চিম / ৪৩.২৫৬৯৪° উত্তর ২.৯২৩৬১° পশ্চিম / 43.25694; -2.92361
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
বিলবাও
Bilbo (Basque ভাষায়)
পৌরসভা
উপরের বাম দিক থেকে: বিস্তৃত দৃশ্য, গুগেনহাইম মিউজিয়াম, আজকুনা জেনট্রোয়া, চার্চ অব সান অ্যান্টন, পাপি, আররিয়াগা থিয়েটার, ইবারড্রোলা টাওয়ার, সান মামেস স্টেডিয়াম, মেট্রো বিলবাও-এর উরিবারি স্টেশন, আস্তে নাগুসিয়ার আতশবাজি, ফস্টেরিটো, মিগেল দে উনামুনো স্কোয়ারে কাস্কো ভিয়েকো, লা সালবে এবং বিলবাও-আবান্দো রেলওয়ে স্টেশন।
বিলবাওয়ের পতাকা
পতাকা
বিলবাওয়ের প্রতীক
প্রতীক
ডাকনাম: "দ্য হোল" (স্পেনীয়: El Botxo)
মিথষ্ক্রিয় মানচিত্র বিলবাও রূপরেখা
বিলবাও বাস্কে দেশ-এ অবস্থিত
বিলবাও
বিলবাও
বিলবাও স্পেন-এ অবস্থিত
বিলবাও
বিলবাও
বিলবাও ইউরোপ-এ অবস্থিত
বিলবাও
বিলবাও
বাস্কে দেশ স্পেন ও ইউরোপে অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ৪৩°১৫′২৫″ উত্তর ২°৫৫′২৫″ পশ্চিম / ৪৩.২৫৬৯৪° উত্তর ২.৯২৩৬১° পশ্চিম / 43.25694; -2.92361
রাষ্ট্র স্পেন
স্বায়ত্তশাসিত সম্প্রদায়বাস্ক দেশ
প্রদেশবিস্কে
কোমারকাবৃহত্তর বিলবাও
প্রতিষ্ঠা১৫ জুন ১৩০০
প্রতিষ্ঠা করেনদিয়েগো লোপেজ ভি দে আরো
সরকার
 • ধরনটাউন হল
 • শাসকবিলবাও সিটি কাউন্সিল
 • মেয়রহুয়ান মারিয়া আবর্তো (পিএনভি)
আয়তন
 • পৌরসভা৪১.৫০ বর্গকিমি (১৬.০২ বর্গমাইল)
 • পৌর এলাকা১৮.২২ বর্গকিমি (৭.০৩ বর্গমাইল)
 • গ্রামীণ২৩.৩০ বর্গকিমি (৯.০০ বর্গমাইল)
উচ্চতা১৯ মিটার (৬২ ফুট)
সর্বোচ্চ উচ্চতা৬৮৯ মিটার (২,২৬০ ফুট)
সর্বনিন্ম উচ্চতা০ মিটার (০ ফুট)
জনসংখ্যা (2018)[২]
 • পৌরসভা৩,৪৫,৮২১
 • জনঘনত্ব৮,৩০০/বর্গকিমি (২২,০০০/বর্গমাইল)
 • মহানগর১০,৩৭,৮৪৭[১]
সময় অঞ্চলসিইটি (ইউটিসি+১)
 • গ্রীষ্মকালীন (দিসস)সিইএসটি (ইউটিসি+০২:০০)
পোস্টাল কোড৷৪৮০০১–৪৮০১৫
ডায়ালিং কোড+৩৪ ৯৪
সরকারি ভাষা(সমূহ)বাস্ক
স্প্যানিশ
ওয়েবসাইটপ্রাতিষ্ঠানিক ওয়েবসাইট

বিলবাও (/bɪlˈb, -ˈbɑː/, এছাড়াও ইউএস: /-ˈb/,[৩][৪][৫] স্পেনীয়: [bilˈβao]; বাস্ক: Bilbo [bilβo]) উত্তর স্পেনের একটি শহর, বিস্কাই প্রদেশের ও সামগ্রিকভাবে বাস্কে দেশের বৃহত্তম শহর। এছাড়া এটি উত্তর স্পেনের সবচেয়ে বড় শহর। বিলবাও ২০১৫ সালের হিসাবে ৩,৪৫,১৪১ জন জনসংখ্যা সহ স্পেনের দশম বৃহত্তম শহর[৬] বিলবাও মহানগর অঞ্চলে ১০,৩৭,৮৪৭ জন বাসিন্দা রয়েছে,[৭][৮][৯] যা এটিকে উত্তর স্পেনের অন্যতম জনবহুল মহানগর অঞ্চলে পরিণত করেছে; ৮,৭৫,৫৫২ জন জনসংখ্যার[১০] বৃহত্তর বিলবাওয়ের কোমারকা হল স্পেনের পঞ্চম বৃহত্তম শহুরে এলাকা। এছাড়া বিলবাও হল প্রধান শহুরে এলাকা, যা বৃহত্তর বাস্কে অঞ্চল হিসাবে সংজ্ঞায়িত করা হয়।

বিলবাও বিস্কাই উপসাগর থেকে প্রায় ১৬ কিলোমিটার (১০ মাইল) দক্ষিণে স্পেনের উত্তর-মধ্য অংশে অবস্থিত, যেখানে অর্থনৈতিক সামাজিক উন্নয়ন অবস্থিত, যেখানে বিলবাও-এর মোহনা গঠিত হয়েছে। এর প্রধান শহুরে কেন্দ্রটি ৪০০ মিটার (১,৩০০ ফুট) গড় উচ্চতা সহ দুটি ছোট পর্বতশ্রেনি দ্বারা বেষ্টিত।[১১] এখানকার জলবায়ু বিস্কাই উপসাগরের নিম্নচাপ ব্যবস্থা ও মৃদু বায়ু দ্বারা গঠিত, কম সূর্যালোক ও উচ্চ বৃষ্টিপাত সহ ইবেরীয় মান অনুসারে গ্রীষ্মের তাপমাত্রা পরিমিত হয়। অক্ষাংশের জন্য বার্ষিক তাপমাত্রার পরিসীমা কম হয়।

শক্তিশালী আরো পরিবারের প্রধান দিয়েগো লোপেজ ভি দে আরো ১৪তম শতকের গোড়ার দিকে শহরটির ভিত্তি স্থাপনের পর, বিলবাও বাস্কে দেশের অন্যতম বাণিজ্যিক কেন্দ্র ছিল, যা ক্রাউন অব ক্যাস্টিলে উল্লেখযোগ্য গুরুত্ব উপভোগ করেছিল। এটি সমগ্র ইউরোপ জুড়ে বিস্কাই কোয়ারি থেকে আহরিত উল ও লোহার পণ্য রপ্তানির উপর ভিত্তি করে সমৃদ্ধ বন্দর কার্যকলাপের কারণে হয়েছিল। ঊনবিংশ শতাব্দীতে ও বিংশ শতাব্দীর শুরুতে, বিলবাও ব্যাপক শিল্পায়নের অভিজ্ঞতা লাভ করে, এটি বার্সেলোনার পরে স্পেনের দ্বিতীয় সর্বাধিক শিল্পোন্নত অঞ্চলের কেন্দ্রে পরিণত হয়।[১২][১৩] একই সময়ে একটি অস্বাভাবিক জনসংখ্যা বিস্ফোরণ বেশ কয়েকটি সংলগ্ন পৌরসভার সংযুক্তি প্ররোচিত করে। বর্তমানে, বিলবাও একটি জোরালো পরিষেবা শহর, যা একটি চলমান সামাজিক, অর্থনৈতিক ও নান্দনিক পুনরুজ্জীবন প্রক্রিয়ার সম্মুখীন হচ্ছে, যা আইকনিক বিলবাও গুগেনহাইম মিউজিয়াম দ্বারা শুরু হয়েছে,[১২][১৪][১৫][১৬] এবং পরিকাঠামো বিনিয়োগের মাধ্যমে অব্যাহত রয়েছে, যেমন বিমানবন্দর টার্মিনাল, দ্রুতগামী গণপরিবহন ব্যবস্থা, ট্রাম লাইন, আজকুনা জেনট্রোয়া এবং বর্তমানে উন্নয়নাধীন আবানদোইবারাজোরোজাউরে পুনর্নবীকরণ প্রকল্প।[১৭]

বিলবাও হল অ্যাথলেটিক ক্লাব ফুটবল দলের আবাসস্থল, যা বাস্কে জাতীয়তাবাদের[১৮] একটি উল্লেখযোগ্য প্রতীক, কারণ এটি শুধুমাত্র বাস্ক খেলোয়াড়দের প্রচার করে এবং স্প্যানিশ ফুটবল ইতিহাসের অন্যতম সফল ক্লাব।

বিলবাও শহরটি ২০১০ সালের ১৯শে মে সুইডিশ নোবেল একাডেমির সঙ্গে সহযোগিতায় সিঙ্গাপুর নগররাষ্ট্র দ্বারা প্রদত্ত লি কুয়ান ইউ ওয়ার্ল্ড সিটি পুরস্কারে স্বীকৃত হয়।[১৯] নগরবাদের জন্য নোবেল পুরষ্কার হিসাবে বিবেচিত পুরষ্কারটি ২০১০ সালের ২৯শে জুন হস্তান্তর করা হয়েছিল। শহরের মেয়র ইনাকি আজকুনা ১৯৯০-এর দশক থেকে বিস্কাইয়ের রাজধানী দ্বারা অভিজ্ঞ শহুরে রূপান্তরের স্বীকৃতিস্বরূপ ২০১৩ সালের ৭ই জানুয়ারি ব্রিটিশ ফাউন্ডেশন দ্য সিটি মেয়র ফাউন্ডেশন দ্বারা প্রতি দুই বছর অন্তঃর প্রদান করা ওয়ার্ল্ড মেয়র পুরষ্কার লাভ করেন।[২০][২১] বিলবাওকে ২০১৭ সালের ৮ নভেম্বর আন্তর্জাতিক সংস্থা দ্য একাডেমি অব আরবানিজম দ্বারা ‘দ্য আরবানিজম অ্যাওয়ার্ডস ২০১৮’ পুরস্কারে “সেরা ইউরোপীয় শহর ২০১৮” নির্বাচিত করা হয়।[২২]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Population on 1 January by age groups and sex – functional urban areas" 
  2.   এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |সংগ্রহের-তারিখ= (সাহায্য); |শিরোনাম= অনুপস্থিত বা খালি (সাহায্য);
  3. "Bilbao"Collins English DictionaryHarperCollins। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১ 
  4. "Bilbao" (US) and "Bilbao"[[এক্সপ্রেশন ত্রুটি: অযাচিত < অপারেটর।]] ইউকে ডিকশনারি (ইংরেজি ভাষায়)। অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটি প্রেস। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১ 
  5. "Bilbao"মেরিয়াম-ওয়েবস্টের ডিকশনারি (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৯ মে ২০১৯ 
  6. "List of place names"National Statistics Institute। ২ জানুয়ারি ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১ 
  7. "Urban zones in Spain. World Gazetteer"। Population-statistics.com। ৪ অক্টোবর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১ 
  8. "Functional area. Bilbao Metropolitan Area." (PDF)। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১ 
  9. Proyecto Audes ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ২২ আগস্ট ২০১১ তারিখে
  10. "Population by province and sex"Basque Statistics Office। ৩১ ডিসেম্বর ২০০৮। ২৩ অক্টোবর ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১ 
  11. Quiroga 2001: 17
  12. De La Puerta Rueda 1998: 73
  13. Gómez Piñeiro 1979: 169
  14. "Mission Statement"Bilbao Guggenheim Museum। ৪ অক্টোবর ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১ 
  15. Iglesias, Lucía (সেপ্টেম্বর ১৯৯৮)। "Bilbao: The Guggenheim effect" (PDF)The UNESCO CourierUNESCO: 41। আইএসএসএন 0041-5278 
  16. "Europe needs to multiply 'Guggenheim effect' to stay attractive, Hübner tells World Investment Conference in La Baule"Europa (web portal)। ৫ জুন ২০০৮। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১ 
  17. "Proyectos de Bilbao"El Correo। ২৬ অক্টোবর ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১ 
  18. "El nacionalismo vasco en la historia del Athletic Club de Bilbao"। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১ 
  19. "Bilbao, un ejemplo urbanístico para el mundo"। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১ 
  20. "Azkuna: "El premio no es para mí, sino para los bilbaínos""। সংগ্রহের তারিখ ৭ জানুয়ারি ২০১৩ 
  21. Tann vom Hove (৮ জানুয়ারি ২০১৩)। "Iñaki Azkuna, Mayor of Bilbao, Spain awarded the 2012 World Mayor Prize"World Mayor. The 2012 Project। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১ 
  22. "Bilbao, elegida Mejor Ciudad Europea 2018"। Eitb। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০২১