বসুন্ধরা দাস

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
বসুন্ধরা দাস
Vasundhara Das (cropped).jpg
জন্ম (1977-10-27) ২৭ অক্টোবর ১৯৭৭ (বয়স ৪৩)
পেশাগায়িকা, অভিনেত্রী, সুরকার, উদ্যোক্তা, স্পিকার, গীতিকার
কর্মজীবন১৯৯৮–বর্তমান
দাম্পত্য সঙ্গীরবার্তো নারায়ণ

বসুন্ধরা দাস (জন্ম: ২৭শে অক্টোবর ১৯৭৭) হলেন একজন ভারতীয় গায়িকা, অভিনেত্রী, সুরকার, উদ্যোক্তা, বক্তা, গীতিকার এবং পরিবেশকর্মী। তিনি হে রাম (তামিল/হিন্দি), মনসুন ওয়েডিং (ইংরেজি), সিটিজেন (তামিল), রাবণ প্রভু (মালয়ালম), লঙ্কেশ প্যাট্রিক (কন্নড়)-এর মতো বেশ কয়েকটি জনপ্রিয় চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন। বসুন্ধরা এ আর রহমান, বিশাল-শেখর, প্রীতম এবং শঙ্কর এহসান লায়ের মতো খ্যাতনামা সুরকারদের জন্য গান লেখার মাধ্যমে কাজ করেছেন। বসুন্ধরা বর্তমানে বেঙ্গালুরু ভিত্তিক স্টুডিওতে 'দ্য অ্যাকটিভ'-এর জন্য সংগীত রচনার কাজ করে থাকেন। তিনি চ্যানেল ভি জ্যামিন, ব্রিটিশ ব্রডকাস্টিং কর্পোরেশনের ভারতের জন্য এইচআইভি সচেতনতা সংগীত হর কদম, মিশন ওস্তাদ, আর্য, গ্লোবাল রিদমস, নাইলন সাউন্ডজ এবং সম্প্রতি শাহ দ্য হুসেন (যেখানে তিনি সুফি গায়ক মীর মুখতিয়ার আলীর সাথে অ্যালবাম একটি অ্যালবামে কাজ করেছেন) প্রকল্পের মতো একাধিক স্বাধীন প্রকল্পেও অংশ নিয়েছিলেন। মুদালভান নামক তামিল চলচ্চিত্রে তাঁর কাজের জন্য তিনি "সেরা নেপথ্য সঙ্গীতশিল্পী (নারী)" বিভাগে ফিল্মফেয়ার পুরস্কার (তামিল) জয়লাভ করেছেন।[১]

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

বসুন্ধরা দাস ১৯৭৭ সালের ২৭শে অক্টোবর তারিখে ভারতের কর্ণাটকের বেঙ্গালুরুতে জন্মগ্রহণ করেছিলেন। তিনি বেঙ্গালুরুর ক্লুনি কনভেন্ট হাই স্কুল, বেঙ্গালুরুর শ্রী বিদ্যা মন্দির এবং বেঙ্গালুরুর মাউন্ট কারমেল কলেজ হতে অর্থনীতি, পরিসংখ্যান এবং গণিত নিয়ে স্নাতক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছিলেন। তিনি তাঁর দাদি ইন্দিরা দাসের অধীনে হিন্দুস্তানি ধ্রুপদী সংগীতের প্রশিক্ষণ গ্রহণ শুরু করেছিলেন এবং পরে ললিতা কৈকিনী এবং পণ্ডিত পরমেশ্বর হেগদার অধীনে প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেছেন।

তাঁর কলেজের দিনগুলোতে তিনি একটি মেয়েদের গানের দলের প্রধান গায়িকা ছিলেন এবং কলেজের গায়কদলের মধ্যে উচ্চ সপ্তকধারী ছিলেন। একটি সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছেন যে, "মঞ্চে আমি যখন প্রথম গান করলাম তখন আমাকে গান গাওয়া নিয়ে অনুৎসাহিত করা হয়েছিল"। তিনি একজন বহুভাষিক; তিনি তামিল, কন্নড়, তেলুগু, ইংরেজি, মালয়ালম এবং স্পেনীয় ভাষায় সাবলীলভাবে কথা বলতে পারেন।

বসুন্ধরা তাঁর দীর্ঘকালীন বন্ধু রবার্তো নারায়ণের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছেন।[২]

পেশা[সম্পাদনা]

১৯৯৯ সালে, বসুন্ধরা কামাল হাসানের সাথে হে রাম নামক চলচ্চিত্রে অভিনয়ের মাধ্যমে অভিনয় জগতে পা রাখেন। অতঃপর তিনি মালয়ালম চলচ্চিত্র রাওয়ানা প্রভু তে মোহনলালের সাথে কেন্দ্রীয় চরিত্রে, তামিল চলচ্চিত্র সিটিজেন-এ অজিথ কুমারের সাথে এবং কন্নড় চলচ্চিত্রে লঙ্কেশ প্যাট্রিক দর্শনের সাথে অভিনয় করেছেন। তিনি মীরা নায়ারের ইংরেজি ভাষার চলচ্চিত্র মনসুন ওয়েডিং-এ অভিনয় করেছেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "47th Annual Filmfare South Best Playback Singer : Santosh : Free Down…"archive.is। ২০১৭-০২-০৫। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-০৫-০৮ 
  2. "Manglorean – Vasundhara wedding"। ২০ ডিসেম্বর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০ ডিসেম্বর ২০১৩ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]