নুরুল ইসলাম বাবুল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
নুরুল ইসলাম বাবুল
Nurul Islam Babul, Jamuna Group.jpg
জন্ম (1946-05-03) ৩ মে ১৯৪৬ (বয়স ৭৪)
মৃত্যু১৩ জুলাই ২০২০(2020-07-13) (বয়স ৭৪)
মৃত্যুর কারণকোভিড-১৯
জাতীয়তাবাংলাদেশি
কর্মজীবন১৯৭৪-২০২০
প্রতিষ্ঠানচেয়ারম্যান -যমুনা গ্রুপ
দাম্পত্য সঙ্গীসালমা ইসলাম
সন্তান৩ মেয়ে ১ ছেলে

নুরুল ইসলাম বাবুল (৩ মে ১৯৪৬ - ১৩ জুলাই ২০২০) একজন বাংলাদেশী ব্যবসায়ী ও মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন।[১] তিনি বাংলাদেশের একজন শিল্পোদ্যোক্তা ও যমুনা গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা হিসেবে পরিচিত ছিলেন।[২]

জন্ম ও পারিবারিক জীবন[সম্পাদনা]

নুরুল ইসলাম ৩ মে ১৯৪৬ সালে ঢাকার নবাবগঞ্জের চুড়াইন ইউনিয়নের কামালখোলা গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা আমজাদ হোসেন এবং মাতা জোমিলা খাতুন। বাবুলের স্ত্রী সাবেক মহিলা ও শিশুবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী, ঢাকা-১ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ও একাদশ সংরক্ষিত মহিলা আসনের সাংসদ সালমা ইসলাম। ছেলে শামীম ইসলাম, রোজালিন ইসলাম, মনিকা ইসলাম এবং সনিয়া ইসলাম যমুনা গ্রুপের পরিচালক। [৩][৪]

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

নুরুল ইসলাম বাবুল মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন। ১৯৭৪ সালে তিনি যমুনা গ্রুপ প্রতিষ্ঠা করেন। বস্ত্র, ইলেকট্রনিকস, ওভেন গার্মেন্টস, রাসায়নিক, চামড়া, বেভারেজ টয়লেট্রিজ, মোটরসাইকেল এবং আবাসন খাতে ব্যবসাও আছে তার। তিনি যমুনা ফিউচার পার্ক, বাংলা দৈনিক যুগান্তর পত্রিকার ও যমুনা টেলিভিশনের মালিক।[৩][৫]

সমালোচনা[সম্পাদনা]

২০০৭ সালে দুর্নীতি দমন কমিশনে (দুদক) সম্পদ বিবরণী জমা দেওয়ার পরে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল।[৬] ২০০৪ সালে বাবুলকে একটি হত্যার অভিযোগে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন এবং প্রতিরক্ষা গোয়েন্দা মহাপরিদপ্তর গ্রেপ্তার করেছিল যেখানে তাকে অভিযোগ করা হয়েছিল। ২০১১ সালে, ইনডিপেন্ডেন্ট পত্রিকায় জানা গেছে যে বাবুল বাংলাদেশের তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সময় লুৎফুজ্জামান বাবরকে প্রায় ৩.৬ মিলিয়ন মার্কিন ডলার প্রদান করেছিলেন।[৭]

২০০৫ সালে, তার বিরুদ্ধে অ্যালকোহল সম্পর্কিত অভিযোগে মামলাও করা হয়েছিল।[৮] ২০১৬ সালের জানুয়ারিতে মামলার বিচার হয়।[৯] ২০১৩ সালে পুলিশ প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি এইচএম এরশাদের বাসা থেকে বাবুলকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা করে।[১০]

মৃত্যু[সম্পাদনা]

নুরুল ইসলাম বাবুল ১৩ জুলাই ২০২০ সালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ঢাকার এভার কেয়ার হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন। ১৪ জুন ২০২০ সালে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে তার কিডনি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিল।[১১][১২]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Business Magnate, Newspaper Editor Arrested in Dhaka, Sent to Jail[স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ] ArabNews
  2. "サプリの達人ポムが厳選!プロポリス体験比較"www.probenewsmagazine.com (জাপানি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-০৬-২১ 
  3. সমকাল প্রতিবেদক (১৩ জুলাই ২০২০)। "যমুনা গ্রুপের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম বাবুল আর নেই"দৈনিক সমকাল। সংগ্রহের তারিখ ১৩ জুলাই ২০২০ 
  4. "যমুনা গ্রুপের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম বাবুল আর নেই"NTV Online (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২০-০৭-১৩। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৭-১৩ 
  5. "করোনাভাইরাসে মারা গেছেন যমুনা গ্রুপের মালিক নুরুল ইসলাম বাবুল"BBC News বাংলা। ২০২০-০৭-১৩। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৭-১৩ 
  6. Jamuna's Babul, ward commissioner Alam arrested.(2007) The Daily Star
  7. They want their money back[স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  8. "bdnews24.com"www.bdnews24.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-০৬-২১ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  9. "Trial of Jamuna's Babul starts in Hunter and Crown case"bdnews24.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-০৬-২১ 
  10. Attempt to arrest Babul from Ershad's house
  11. ঢাকা, নিজস্ব প্রতিবেদক (১৩ জুলাই ২০২০)। "যমুনা গ্রুপের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম মারা গেছেন"দৈনিক প্রথম আলো। সংগ্রহের তারিখ ১৩ জুলাই ২০২০ 
  12. "যমুনা গ্রুপের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম বাবুল মারা গেছেন"জাগো নিউজ। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৭-১৩