বিষয়বস্তুতে চলুন

চেঙ্গিজ (চলচ্চিত্র)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
চেঙ্গিজ
প্রেক্ষাগৃহে মুক্তির পোস্টার
চেঙ্গিজ: যার না আছে কোনো সীমানা না কোনো পরিধি
পরিচালকরাজেশ গঙ্গোপাধ্যায়
প্রযোজক
  • জিৎ
  • অমিত জুমরানি
  • গোপাল মাদনানী
রচয়িতা
  • রাজেশ গঙ্গোপাধ্যায়
  • নীরজ পান্ডে
চিত্রনাট্যকাররাজেশ গঙ্গোপাধ্যায়
কাহিনিকারনীরজ পাণ্ডে
শ্রেষ্ঠাংশে
সুরকারকৌশিক গুড্ডু
অনিক ধর
চিত্রগ্রাহকমানস গাঙ্গুলী[১]
সম্পাদকমলয় লাহা[১]
প্রযোজনা
কোম্পানি
জিৎ ফিল্মওয়ার্কস
এএ ফিল্মস
পরিবেশকজিৎ ফিল্মওয়ার্কস (বাংলা)
এএ ফিল্মস (হিন্দি)
মুক্তি
  • ২১ এপ্রিল ২০২৩ (2023-04-21)
স্থিতিকাল১৫৩ মিনিট
দেশভারত
ভাষাবাংলা
নির্মাণব্যয়₹ ১০ কোটি[২]
আয়₹ ৬.২৫ কোটি[৩]

চেঙ্গিজ: যার না আছে কোনো সীমানা না কোনো পরিধি[৪] (সংক্ষেপে চেঙ্গিজ) রাজেশ গঙ্গোপাধ্যায় পরিচালিত ২০২৩ সালে মুক্তি পাওয়া অপরাধজগৎ নিয়ে বাংলা ভাষার ভারতীয় চলচ্চিত্র।[৫] রাজেশের সাথে যৌথভাবে ছায়াছবির কাহিনি লিখেছেন নিরজ পান্ডে।[৬][১] তবে চিত্রনাট্য ও সংলাপ রাজেশের।[৭] জিৎ ফিল্মওয়ার্কস ও এএ ফিল্মসের ব্যানারে প্রযোজনা করেছেন জিৎ, গোপাল মদনানি ও অমিত জুমরানি।[৮][৯] চেঙ্গিজের চিত্রনাট্য ১৯৭০ থেকে ১৯৯০-এর দশকের মাঝামাঝি সময়ে কলকাতার অপরাধজগতের গ্যাংস্টারদের দাপট সম্পর্কিত।[১] প্রধান প্রধান চরিত্রে ছিলেন জিৎ, সুস্মিতা চট্টোপাধ্যায়, রোহিত রায় ও শতাফ ফিগার।[৮] সঙ্গীত পরিচালনা করেছেন কৌশিক গুড্ডু এবং অনিক ধর, অ্যাকশন ধারাবাহিক নকশা করেছেন স্টান্ট সিলভা।[১০][৭][১১]

চেঙ্গিজ ২০২৩ সালের ২১শে এপ্রিল একই সাথে হিন্দি ও বাংলা ভাষায় ভারতের প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পায়। এটি বাংলা ও হিন্দি ভাষায় একসঙ্গে মুক্তি পাওয়া প্রথম বাংলা ছবি।[৮][৯][১২] একই সাথে পশ্চিমবঙ্গ হতে প্রযোজিত বাংলা ভাষায় নির্মিত প্রথম সর্ব-ভারতীয় চলচ্চিত্র[২] এটি কয়েকজন সমালোচক থেকে প্রশংসার পাশাপাশি গল্পের প্রেক্ষাপট ও বিশদ বর্ণনার ক্ষেত্রে খামতিসহ মিশ্র প্রতিক্রিয়া পেয়েছে। চলচ্চিত্রটি বিভিন্ন সমালোচকদের কাছ থেকে ৫-এর মধ্যে ৩ থেকে ৪ রেটিং অর্জন করেছে। ১০ কোটি ভারতীয় রুপি নির্মাণ ব্যয়ের চেঙ্গিজ সবমিলিয়ে ৬.২৫ কোটি রুপি আয় করে।[৩] ব্যবসা সফল না হলেও এটি ২০২৩ সালের টালিঊডের সবচেয়ে বেশি আয় করা ছায়াছবি।[১৩]

সংক্ষিপ্ত-কাহিনি[সম্পাদনা]

কলকাতার সত্তোরোর্ধ পুলিশ অফিসার সমীর সিনহা অবসর নিয়েছেন। ১৯৭০ দশকের কলকাতা নিয়ে নিবন্ধ করতে চাওয়া এক মহিলা সাংবাদিকের কাছে সমীরের স্মৃতিচারণে চলে আসে চেঙ্গিজের কথা। ১৯৭০ সালের কলকাতার দুর্গাপুর। ১০ বছর বয়সি কিশোর জয়দেব সিং নিজচোখে নিজের পুলিশ বাবা ও মাকে স্থানীয় কাউন্সিলর গুন্ডা রশিদ খানের হাতে খুন হতে দেখে। মামা সৎ পুলিশ অফিসার এসিপি সমীর সিনহা ভাগনে জয়দেবকে নিজ বাড়িতে আশ্রয় দেন। ১৯৭৬ সাল। জয়দেব এখন ১৬ বছরের তরুণ। জয়দেব বড় হয়ে কি হতে চায়?- তার মামা মামি জানতে চাইলে, সে তার বাবা-মার খুনের প্রতিশোধ নিতে চায়। পরদিন মামা বাড়ি থেকে পালায় সে।

ফুটবল ময়দানে টিকিট কালোবাজারী ডন ওমর খালিদের নজরে পরা জয়দেব নাম পরিবর্তন করে হয়ে যায় চেঙ্গিজ। কলকাতার শক্তিশালী গ্যাংস্টার ওমর খালিদ ওরফে নল্লি ভাইয়ের হয়ে কাজ শুরু করে। নিজ বাবা-মার খুনের প্রতিশোধ নেয়, নব্বই দশকে মাঝে (১৯৯৫) এসে নল্লী ভাইকে খুন করে। চেঙ্গিজ হয়ে যায় ব্যাংকক থেকে কলকাতা শহরে মাদক চালানের প্রধান ডন। ব্যাংককে যাওয়ার পথে বিমানবালা নন্দিনীর সাথে প্রেম হয়। ব্যক্তিগত জীবনের বাইরে নিজের প্রতিপত্তি বাড়াতে পশ্চিমবঙ্গ, উত্তরপ্রদেশ এবং বিহার জুড়ে নিজের অপরাধের বলয় প্রতিষ্ঠা করে। ব্যাংকক থেকে কম দামে ভেজাল ছাড়া হেরোইন পাচার ও বিক্রি করতে গিয়ে কলকাতা শহরের তিন প্রান্তের তিন মাদক মাফিয়ার সাথে বিবাদ শুরু হয় চেঙ্গিজের। সব শত্রুদের দমন করে কলকাতার গুপ্ত অপরাধ জগতের একক ডন হয় চেঙ্গিজ।

ম্যাচ ফিক্সিং, মাদক বিস্তার, ঘোড়াদৌড়, হত্যার পাশাপাশি জমজমাট নৈশক্লাবের ব্যবসা করে চেঙ্গিজ। ১৯৯৫ সালে কলকাতার অন্ধকার অপরাধ জগৎ ও চেঙ্গিজ সহ অন্যান্য ডনদের নির্মূল করতে কলকাতা পুলিশের প্রধান কার্যালয় লালবাজারে বিশেষ স্কোয়াড বানানো হয়। এই স্কোয়াডে চেঙ্গিজের মামাও আছেন। মামা সমীর সিনহার মুখমুখি হয় তারই দত্তক নেওয়া জয়দেব ওরফে চেঙ্গিজ। চেঙ্গিজ আর সমীরের মধ্যে ধর-পাকড় নিয়ে চলে ইদুর-বিড়াল খেলা। বছর কয়েক ধরে তাকে ধরার চেষ্ঠা চলে। ড্যানিয়েল ডি সুজার সাথে চেঙ্গিজের চেহারার প্রায় অভিন্ন মিল থাকে। ২০০১ সালে ড্যানিয়েলকে ব্যবহার করে ছদ্মবেশ নিয়ে কলকাতার পুলিশকে ধোকা দিয়ে পালায় চেঙ্গিজ। একুশ বছর পর ২০২২ সালে মরোক্কোর মারাকেশে বয়স্ক বৃদ্ধ চেঙ্গিজকে পাওয়া যায় এক হোটেলে দুপুরের খাবার খাচ্ছে। এখনো কলকাতার কিছু অংশের গুপ্ত অপরাধের নিয়ন্তা চেঙ্গিজ। পাশাপাশি বৃদ্ধ মামা সমীর সিনহার উপর নজরদারি করে সময় কাটে চেঙ্গিজের।

অভিনয়শিল্পী[সম্পাদনা]

  • দ্বৈত চরিত্রে জিৎ -
    • জয়দেব সিং বা চেঙ্গিজ, কলকাতার ভয়ংকর গুন্ডা
    • ড্যানিয়েল ডি'সুজা, সফটওয়্যার প্রকৌশলী
      • তরুণ জয়দেব সিং চরিত্রে আয়ুষ দাস
  • রোহিত রায় - এসিপি সমীর সিনহা[১৪]
  • সুস্মিতা চট্টোপাধ্যায় - নন্দিনী সেন
  • শতাফ ফিগার - ওমর খালিদ ওরফে নল্লি ভাই
  • সুদীপ মুখোপাধ্যায় - কমিশনার অমিত ধর
  • বিশ্বরূপ বিশ্বাস - শার্পশুটার কাল্লু
  • রুকমা রায় - দেবজানী, দেবু ও রূপালীর মেয়ে
  • ইন্দ্রজিৎ মজুমদার - মুঘল আব্বাস ওরফে মিরচি ভাই
  • সুদীপ মুখোপাধ্যায় - কমিশনার অমিত ধর
  • বিশ্বরূপ বিশ্বাস - কাল্লু
  • অভ্রজিৎ চক্রবর্তী - ইস্পাহানি
  • অ্যানিন সেন - ইস্পাহানীর স্ত্রী পূবালী
  • স্যাম মুখার্জি - অ্যান্ড্রু
  • আয়েশা ভট্টাচার্য - অ্যান্ড্রুর স্ত্রী সোনালী
  • মৌসুমী দাস - দেবুর স্ত্রী রূপালী
  • সুভস্মিতা মুখোপাধ্যায়[১৫] - সমীরের সাক্ষাতকার নেওয়া সাংবাদিক
  • সোহন বন্দোপাধ্যায়[৪]

প্রযোজনা[সম্পাদনা]

জিৎ ফিল্মওয়ার্কসের রাবণ মুক্তি পায় ২০২২ সালের ২৯ এপ্রিল, সেসময়ই চেঙ্গিজ নির্মাণের ঘোষণা আসে। তখনই রাজেশ গঙ্গোপাধ্যায়কে পরিচালক ও কলকাতার আশেপাশে চিত্রগ্রহণের পরিকল্পনা করা হয়।[১৬] জিৎ ও রাজেশ চেঙ্গিজের কাহিনি নিয়ে ৩-৪ বছর ধরে কাজ করছিলেন। তাদের খসড়া কাহিনির ধারণা সম্পাদনা ও পূর্ণরূপ দেন নিরজ পান্ডে।[৬] অতপর সে কাহিনির ভিত্তিতে চিত্রনাট্য ও সংলাপ রচনা করেন রাজেশ।[৭] কলকাতার রাস্তাঘাট, খিদিরপুর, পার্ক সার্কাস, ডক এরিয়া, দক্ষিণেশ্বরের সেতু, মোহনবাগানের মাঠ, লালবাজার সহ বিভিন্ন জায়গা চিত্রগ্রহণ করা হয়েছে।[২] মানস গঙ্গোপাধ্যায়ের ক্যামেরায় চিত্রগ্রহণ চলে প্রায় সাত মাস।[১][৭] মলয় সাহার সম্পাদনা শেষে চলচ্চিত্রটি সম্পূর্ণ হতে সময় লাগে এক বছর।[১][১৭]

সঙ্গীত[সম্পাদনা]

চেঙ্গিজ
দিব্য কুমার, অরিজিৎ সিং, মিকা সিং ও সঞ্জিত হেগড়ে
কর্তৃক চলচ্চিত্র সঙ্গীত
মুক্তির তারিখ২০২৩
ঘরানাচলচ্চিত্র সঙ্গীত
দৈর্ঘ্য১০:৩৮
সঙ্গীত প্রকাশনীগ্রাসরুট এন্টারটেইনমেন্ট
প্রযোজকঅনিক ধর ও কৌশিক গুড্ডু

চেঙ্গিজের চলচ্চিত্র সঙ্গীত ও আবহ পরিচালনা করেছেন অনিক ধর এবং কৌশিক গুড্ডু।[১১] তিনটি মৌলিক গান,যথা- "উইদা", "এভাবে কে ডাকে" এবং "রাগদা"। গানের কথা লিখেছেন প্রাঞ্জল দাস এবং প্রসেন। প্রথম গান "উইদ্দা" বাংলা এবং হিন্দিতে ২০২৩ সালের ২৭ মার্চ প্রকাশিত হয়েছিল। বাংলায় দ্বিতীয় গান "এভাবে কে ডাকে" এবং হিন্দিতে "তেরি মেরি বাতেঁ" একই বছর ৮ এপ্রিল প্রকাশিত হয়েছে।[১৮] তৃতীয় গান "রাগদা" বাংলা ও হিন্দিতে ১৩ এপ্রিল মুক্তি পায়।[১৯]

বাংলা সংস্করণ:

নং.শিরোনামগীতিকারকণ্ঠশিল্পীদৈর্ঘ্য
১."উইদ্দা"প্রাঞ্জল দাসদিব্য কুমার৩:১৬
২."এভাবে কে ডাকে"প্রসেনঅরিজিৎ সিং৪:১৪
৩."রাগদা"প্রাঞ্জল দাসমিকা সিং৩:০৮
মোট দৈর্ঘ্য:১০:৩৮

হিন্দি সংস্করণ:

নং.শিরোনামগীতিকারকণ্ঠশিল্পীদৈর্ঘ্য
১."উইদ্দা"পাঁচি জলনভিদিব্য কুমার৩:১৬
২."তেরি মেরি বাতেঁ"কুনাল ভার্মাসঞ্জিত হেগড়ে৪:১৪
৩."রাগদা"শাব্বির আহমেদমিকা সিং৩:০৮
মোট দৈর্ঘ্য:১০:৩৮

প্রচারণা ও মুক্তি[সম্পাদনা]

চলচ্চিত্রটি আনুষ্ঠানিক বাংলা প্রথম বর্ণন ২০২২ সালের ৩০শে নভেম্বর। আনুষ্ঠানিক হিন্দি প্রথম বর্ণন আসে ২০২৩ সালের ২৩ মার্চ।[২০] সর্ব ভারতীয় মুক্তির জন্য চেঙ্গিজের প্রধান দুই কুশীলব জিৎ ও সুস্মিতা ভারতের কলকাতা, মুম্বই, লখনউ, জয়পুর সহ বিভিন্ন শহরে গিয়ে প্রচারণা চালান।[২১] চলচ্চিত্রটির আনুষ্ঠানিক বাংলা এবং হিন্দি ট্রেলার ২০২৩ সালের ৪ এপ্রিল প্রকাশিত হয়।[২২][২৩] ২০২৩ সালে ২১শে এপ্রিল বাংলা ও হিন্দি ভাষায় প্রেক্ষাগৃহে একযোগে মুক্তি পায়।[২৪] সমগ্র ভারতে বাংলা হিন্দি মিলিয়ে ৭৭৪ টি পর্দায় ১২০০ প্রদর্শনীসহ মুক্তি পায়।[২৫][২৬] এর মধ্যে শুধু বাংলা সংস্করণ ১২০টিরো বেশি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি দেওয়া হয়।[২৭]

অর্জন[সম্পাদনা]

সমালোচনামূলক প্রতিক্রিয়া[সম্পাদনা]

সমালোচকদের মূল্যায়ন
পর্যালোচনা স্কোর
সমালোচক সূত্র রেটিং
উজ্জয়িনী রায় দ্য টাইমস অব ইন্ডিয়া ৩/৫ তারকা
শময়িতা চক্রবর্তী ওটিটি প্লে ৩/৫ তারকা
সায়নিতা চক্রবর্তী এশিয়ানেট নিউজ ৪/৫ তারকা
শৌভিক সাহা সিনে কলকাতা ৩.৫/৫ তারকা
প্রসূন চন্দ দ্য ওয়াল ৩/৫ তারকা

টাইমস অব ইন্ডিয়ার উজ্জয়িনী রায়ের মতে "স্টান্ট সিলভার নির্দেশনায় করা মারামারির দৃশ্যগুলি চটকদার ও বেশ ভাল সম্পাদনা করা হয়েছে।" তিনি ৩/৫ রেটিং দেন।[২৮] হিন্দুস্তান টাইমসের রনিতা গোস্বামী গল্পের প্রেক্ষাপ্ট ও বর্ণনায় গবেষণার খামতি পেয়েছেন তার মতে "গল্পের প্রেক্ষাপট ও ডিটেলিংয়ে বেশকিছু গোলযোগ ও রিসার্চের অভাব রয়েছে। 'চেঙ্গিজ' কেন আন্ডার ওয়ার্ল্ডে থেকে গেল? সেবিষয়টি চিত্রনাট্যে স্পষ্ট নেই।" তবে অভিনেতাদের প্রশংসা করেন।[২] সংবাদ প্রতিদিনের নির্মল ধর জিত, সুস্মিতা, শতাফ ফিগার ও রোহিতের অভিনয়ের প্রশংসা করেন।[৬] এশিয়ানেট নিউজের সায়নিতা চক্রবর্তী চেঙ্গিজের চলচ্চিত্রায়ন ও বিশেষ আবহের প্রশংসা করেন, তার মতে "ভিজ্যুয়াল এফেক্ট ও সিনেমাটোগ্রাফি এক কথায় অসাধারণ" তিনি ৪/৫ রেটিং দেন।[৪] ওটিটিপ্লে - এর শময়িতা চক্রবর্তী ৫ এর মধ্যে ৩ রেটিং দিয়েছেন এবং লিখেছেন "চেঙ্গিজের চমৎকার একটি পটভূমি ও অ্যাকশন সিকোয়েন্স রয়েছে। তবে এটিতে বিশ্বাসযোগ্য উপস্থাপনার অভাব রয়েছে। সিনেমাটি অগোছালো অভিনয় দিয়ে শুরু হয় এবং এটি এগিয়ে যাওয়ার সাথে সাথে গবেষণার একটি অংশ প্রতিফলিত করে। একটি পিরিয়ড চলচ্চিত্র হিসাবে নির্মাণ করা হয়েছে, যেখানে ৯০-এর দশকের কোলকাতা দেখানো হয়েছে, কিন্তু নির্মাতা পিরিয়ডটিকে বিশ্বাসযোগ্য করে তোলার জন্য কোন চেষ্টা করেনি।"[২৯] সিনে কলকাতার শৌভিক সাহা চেঙ্গিজকে দুই-একটি জায়গায় বিপর্যস্ত ছাড়া নিরজের গল্প, জনসাধারণের জন্য শালীন উপস্থাপন, ক্যামেরার কাজ, আবহ সঙ্গীত এবং জিত, শতাফ ফিগার, রোহিত ও সুস্মিতার অভিনয়ের প্রস্ংশা সহ ৩.৫/৫ রেটিং দিয়েছেন।[১১] দ্য ওয়ালের প্রসূন চন্দের সমালোচনায় গল্প 'এ ছবির আসল উপাদান' হিসেবে বর্নিত হয়েছে। তিনি অভিনয় ও সাজ-সজ্জার প্রশ্ংসার পাশাপাশি চেঙ্গিজের সিংহভাগ কৃতিত্ব দিয়েছেন পরিচালক ও লেখকদের। চেঙ্গিজ তার কাছ থেকে ৩/৫ রেটিং পায়।[১৭]

বক্স অফিস[সম্পাদনা]

মুক্তির প্রথম দিন চেঙ্গিজ সমগ্র ভারতে মোট ₹ ০.৩৫ কোটি [২৭][৩০] - ₹ ০.৩৭ কোটি সংগ্রহ করেছে।[৩১] মুক্তির প্রথম পাঁচ দিনে বাংলা সংস্করণ ১.১২ কোটি আয় করে।[১২] [৩১] হিন্দি ডাব করা সংস্করণটি প্রথম সপ্তাহে বক্স অফিসে ₹ ১.২৫ কোটি সংগ্রহ করেছে।[৩২] প্রথম ৮ দিনে হিন্দি বাংলা মিলিয়ে চেঙ্গিজ ৪.১৯ কোটি রুপি ঘরে তোলে।[৩৩] ১০ কোটি রূপী বাজেটের চেঙ্গিজ প্রেক্ষাগৃহে ১ মাসের বেশি সময় প্রদর্শিত হয় এবং সবমিলিয়ে ৬.২৫ কোটি রুপি আয় করে।[৩]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Jeet vs Salman Khan: বাংলা ছবির জগতে ইতিহাস গড়তে চলেছেন জিৎ, এবার সলমানের মুখোমুখি বাংলার সুপারস্টার..."জি নিউজ। ২০২৩-০৩-২১। ২০২৩-০৩-২১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৩-২১ 
  2. গোস্বামী, রনিতা (২০২৩-০৪-২২)। "অ্যাকশনে ভরপুর! গ্যাংস্টার 'চেঙ্গিজ'-এর গল্প বলতে কতটা সফল জিৎ?"হিন্দুস্তান টাইমস। ২০২৩-০৮-১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৮-১৫ 
  3. "Chengiz Box Office Collection | Day Wise | India & Worldwide - Indian Paper Ink Hindi" (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২৩-০৪-২১। ২০২৩-১২-০১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-৩০ 
  4. চক্রবর্তি, সায়নিতা (২০২৩-০৪-২২)। "Chengiz Movie Review: মুক্তির পর কতটা সাফল্য পেল 'চেঙ্গিজ', দেখে নিন জিৎ-কে কত রেটিং দিলেন সিনেপ্রেমীরা"এশিয়া নেট নিউজ ৪/৫ তারকা। ২০২৩-০৮-১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৮-১৫ 
  5. "বাংলার পাশাপাশি এবার হিন্দিতেও 'চেঙ্গিজ', নতুন ছবিতে ইতিহাস গড়বেন সুপারস্টার জিৎ"এখন ভারত। ২০২৩-০৩-২২। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-২৯ 
  6. ধর, নির্মল (২০২৩-০৪-২৩)। "অ্যাকশন সর্বস্ব জিতের 'চেঙ্গিজ', ছবিতে রয়েছে সিক্যুয়েলের ইঙ্গিত, পড়ুন রিভিউ"সংবাদ প্রতিদিন। ২০২৩-০৮-১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৮-১৫ 
  7. লাহা, সোমনাথ (২০২২-১২-০৯)। "'চেঙ্গিজ' নিয়ে আগ্রহ তুঙ্গে -"বিনোদন প্লাস। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-২৯ 
  8. "Jeet's next 'Chengiz' to be first Bengali film ever to release in Hindi and Bengali simultaneously"টাইমস অব ইন্ডিয়া (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২৩-০৩-২১। আইএসএসএন 0971-8257। ২০২৩-০৩-২১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৩-২১ 
  9. কঞ্জি, সুস্মিতা (২০২৩-০৩-২১)। "জিৎ ইজ ব্যাক! ইদে অনন্য ডবল ধামাকা নিয়ে আসছে চেঙ্গিজ"হিন্দুস্তান টাইমস। ২০২৩-০৩-২১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৩-২১ 
  10. "Tollywood half-yearly report 2023: The box office hits and misses"টাইমস অব ইন্ডিয়া (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২৩-০৭-০৭। আইএসএসএন 0971-8257। ২০২৩-০৯-০৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-২৯ 
  11. শৌভিক, সাহা (২০২৩-০৪-২১)। "Chengiz Movie Review : চেঙ্গিজ রিভিউ"সিনে কলকাতা ৩.৫/৫ তারকা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-২৯ 
  12. "Tollywood: ৫ দিনে কোটির ঘরে 'চেঙ্গিজ', জিৎকে রানার অনুরোধ, আগামীতে নতুন কিছু ভাবুন"আজকাল। ২০২৩-০৪-২৬। ২০২৩-০৪-২৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৪-২৯ 
  13. "Box Office 2023: Punjabi films grossed Rs. 235 crores, Marathi films grossed Rs. 201 crores, Bengali films grossed Rs. 66 crores in 2023 :Bollywood Box Office - Bollywood Hungama"বলিউড হাঙ্গামা (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২৪-০২-০২। ২০২৪-০২-০৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-২৯ 
  14. "'Chengiz' update: First look of Rohit Bose Roy as ACP Samir Sinha from Jeet's upcoming action thriller"The Times of India। ২০২২-০৫-০৫। আইএসএসএন 0971-8257। ২০২৩-০৩-২২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৮-১৪ 
  15. "মিঠাই-খড়ি সবাই ফেল! ছোটপর্দা কাঁপিয়ে জিতের সাথে বক্স অফিস কাঁপাতে চলেছেন জি বাংলার এই নায়িকা"বঙ্গ ট্রেন্ড (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২৩-০৭-০৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৮-১৪ 
  16. "Ahead of 'Raavan' release, Jeet announces his next 'Chengiz'"টাইমস অব ইন্ডিয়া (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২২-০৩-৩০। আইএসএসএন 0971-8257। ২০২৩-০৩-২২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৮-১৪ 
  17. চন্দ, প্রসূন (২০২৩-০৪-২২)। "'চেঙ্গিজ' জিৎ সর্বস্ব নয়, পর্দাজুড়ে ভরপুর অ্যাকশনের মাঝেও নজর কাড়বে গল্পই"দ্য ওয়াল ৩/৫ তারকা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-২৯ 
  18. "Teri Meri Baatein | Chengiz | Jeet | Susmita | Sanjith Hegde | Kaushik-Guddu | Imran | Kunaal Verma"। ১২ এপ্রিল ২০২৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ ডিসেম্বর ২০২৩ 
  19. "Ragada Official Video Teaser | #Chengiz | Song out on 13th April 2023"। ১১ এপ্রিল ২০২৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ ডিসেম্বর ২০২৩ 
  20. "হাতে জ্বলছে চুরুট, চারপাশে উড়ছে টাকার নোট, জন্মদিনে এ কোন জিৎ?"আনন্দবাজার পত্রিকা। ২০২৩-০৩-২২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৩-২৬ 
  21. ঘোষ, দেবারতি (২০২৩-০৪-২০)। "সুস্মিতাকে বাইকে বসিয়ে জিতের সফর! চলছে 'চেঙ্গিজ' এর শেষ মুহূর্তের প্রোমোশন"এই সময়। ২০২৩-০৪-২০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-২৯ 
  22. "Chengiz Official Hindi Trailer | Jeet | Susmita | Rohit Roy | Shataf | Neeraj Pandey | Rajesh"। ৩ এপ্রিল ২০২৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৩ এপ্রিল ২০২৩ 
  23. ঘোষ, দেবারতি (২০২৩-০৪-০৪)। "নীরাজের হাত ধরে বলিউডে পা রাখলেন জিৎ, প্রকাশ্য়ে এল 'চেঙ্গিজ'-র ট্রেলার"এই সময়। ২০২৩-০৬-০৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-৩০ 
  24. "Jeet| Dev: 'চেঙ্গিজ' মুক্তির দিনে জিৎকে বার্তা দেবের..."Zee24Ghanta.com (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২৩-০৪-২৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-২৯ 
  25. "জিতের সঙ্গে কাকে বেশি মানায়? সুস্মিতার উত্তরে হেসে উঠলেন 'চেঙ্গিজ'"Hindustantimes Bangla। ২০২৩-০৪-২৭। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-২৯ 
  26. "Chengiz works as a Jeet-starrer but doesn't have what a film needs to be Bengal's answer to the south"www.telegraphindia.com (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২৩-০৬-০৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৮-১৪ 
  27. Shantanu Ray Chaudhuri (২৯ এপ্রিল ২০২৩)। "Chengiz works as a Jeet-starrer but doesn't have what a film needs to be Bengal's answer to the south"www.telegraphindia.com (ইংরেজি ভাষায়)। Kolkata: Telegraph India। ১ মে ২০২৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ মে ২০২৩ 
  28. "Chengiz Movie Review : Jeet's big, bad mafia movie is not too shabby, just too long"টাইমস অব ইন্ডিয়া ৩/৫ তারকা (ইংরেজি ভাষায়)। আইএসএসএন 0971-8257। ২০২৩-০৪-২৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৪-২৪ 
  29. চক্রবর্তী, শময়িতা (২০২৩-০৪-২৩)। "Chengiz review: Jeet has the right intent but what about storytelling & making?"ওটিটি প্লে ৩/৫ তারকা (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২৩-০৬-০৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৮-১৪ 
  30. "'...চেঙ্গিজ বক্স অফিসে ১৪ লাখ কালেকশন করেছে', রাণার পোস্ট দেখে রাগল জিৎ ভক্তরা,ট্রোলের বন্যা"bangla.hindustantimes.com। ২২ এপ্রিল ২০২৩। ২২ এপ্রিল ২০২৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২২ এপ্রিল ২০২৩ 
  31. "Chengiz Box Office Collection Day 1 - Indian Paper Ink Hindi" (English ভাষায়)। ২০২৩-০৪-২১। ২০২৩-০৪-২২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-৩০ 
  32. Hungama, Bollywood (২০২৩-০৪-২১)। "Chengiz Box Office Collection | India | Day Wise | Box Office - Bollywood Hungama" (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২৩-০৬-২১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৩-০৬-১৩ 
  33. "Jeet on Chengiz: 'আমাকে ভালোবাসো বা ঘৃণা করো…. চেঙ্গিজ সুপারহিট', মুখ খুললেন জিৎ"হিন্দুস্তান টাইমস। ২০২৩-০৫-০২। ২০২৩-০৫-১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২৪-০৬-২৯ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]