সাহিত্য

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সরাসরি যাও: পরিভ্রমণ, অনুসন্ধান
কিছু পুরনো বই

সাহিত্য বলতে লিখন-শিল্পকে বোঝায়। মোটকথা ইন্দ্রিয় দ্বারা জাগতিক বা মহাজাগতিক চিন্তা চেতনা, অনুভূতি, সৌন্দর্য্য ও শিল্পের লিখিত বা লেখকের বাস্তব জীবনের অনুভূতি হচ্ছে সাহিত্য। সাহিত্যকে গদ্য, পদ্যনাটক এই তিনভাগে ভাগ করা যায়। গদ্যের মধ্যে প্রবন্ধ, নিবন্ধ, গল্প ইত্যাদি এবং পদ্যের মধ্যে ছড়া, কবিতা ইত্যাদিকে শাখা হিসেবে অন্তর্ভুক্ত করা যায়। আর নাটকনাটিকা অন্য শাখা।

কবিতা

সিঁড়ি হাবিব ফয়েজি

(উৎসর্গঃ সিলেট জেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি (বড়মামা) জনাব আ.ন.ম.শফিকুল হককে)

সিঁড়ি- উপরে ওঠার একটা অবলম্বন মাত্র এই সিঁড়ি দিয়েই মানুষগুলো থরথর করে উপরে ওঠে যায় আর আকাশ ছোঁয়ার স্বপ্ন দেখে

সিঁড়িটা যখন প্রথম প্রথম মসৃণ থাকে ব্যবহারকারীরা খুব খাতির যত্ন করে কৃতজ্ঞতা প্রকাশেও কার্পণ্য করে না কেউকেউ আবার রুটিনমাফিক সালামও টুকে

একসময় যখন অভীষ্ট লক্ষে পৌঁছে যায় অবলীলায় ভুলে বসে সিঁড়ির কথা ভুলতে ভুলতে ভুলে যায় সে কোথায় ছিল কতোটা নিচে ছিল আর এখন কতোটা উপরে সে

ভুলেও সিঁড়ির দিকে ফিরে তাকায় না তখন


সিঁড়ি নীরব দর্শক হয়ে ঠায় দাঁড়িয়ে থাকে অকৃতজ্ঞদের আসল চেহারা দেখে হাসে আর মনেমনে বলে- হায়রে মানুষ! আফসোস্!

                           আফসোস! আফসোস!

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]