যেতে পারি কিন্তু কেন যাবো

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
যেতে পারি কিন্তু কেন যাবো
যেতে পারি কিন্তু কেন যাবো (১৯৮২, প্রথম সংস্করণ).gif
সুনীল শীল কর্তৃক প্রথম সংস্করণের প্রচ্ছদ
লেখকশক্তি চট্টোপাধ্যায়
মূল শিরোনামযেতে পারি কিন্তু কেন যাবো
অনুবাদকজয়ন্ত মহাপাত্র (ইংরেজি)
রাম চরণ ঠাকুর (মৈথিলী)
প্রচ্ছদ শিল্পীসুনীল শীল
দেশভারত
ভাষাবাংলা
ধরনকবিতা
প্রকাশিত১৯৮২, মার্চ (প্রথম সংস্করণ)
২০১৫, অক্টোবর (ত্রয়োদশ সংস্করণ)
প্রকাশকআনন্দ পাবলিশার্স প্রাইভেট লিমিটেড
মিডিয়া ধরনছাপা (শক্তমলাট)
পৃষ্ঠাসংখ্যা৬৪
পুরস্কারসমূহসাহিত্য অকাদেমি পুরস্কার (১৯৮৩)
আইএসবিএন9788170666905
ওসিএলসি31012802
পূর্ববর্তী বইপ্রচ্ছন্ন স্বদেশ (১৯৮২) 
পরবর্তী বইকোথাকার তরবারি কোথায় রেখেছে (১৯৮৩) 

যেতে পারি কিন্তু কেন যাবো ১৯৮২ সালে প্রকাশিত ভারতীয় বাঙালি কবি শক্তি চট্টোপাধ্যায়ের ৩২তম কাব্যগ্রন্থ। এটি ভারতের কলকাতার বেনিয়াটোলায় অবস্থিত আনন্দ পাবলিশার্স প্রাইভেট লিমিটেড কর্তৃক ১৯৮২ সালের মার্চে গ্রন্থাকারে প্রকাশিত হয়।[১] সুনীল শীলের প্রচ্ছদকৃত শক্তি চট্টোপাধ্যায় এই কাব্যগ্রন্থটি উৎসর্গ করা হয়েছিল: 'ম্যাডাম আর সুবোধকে' (শিপ্রা ও সুবোধ দাস)। অক্টোবর ২০১৫ সালে একই প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান থেকে এটির ত্রয়োদশ সংস্করণ প্রকাশিত হয়। একই শিরোনাম কাব্যগ্রন্থে একটি কবিতা রয়েছে।[২]

১৯৮৩ সালে, শক্তি চট্টোপাধ্যায় এই কাব্যগ্রন্থের জন্য সাহিত্য অকাদেমি পুরস্কার লাভ করেন।[৩][৪] ১৯৯৪ সালে আই ক্যান, বাট হোয়াই শুড আই গো শিরোনামে জয়ন্ত মহাপাত্র কর্তৃক ইংরেজি ভাষায় এটির অনুবাদ প্রকাশিত হয়।[৫] ১৯৯৯ সালে যা সাকি ছি কিন্তু কিয়ে যাও শিরোনামে রাম চরণ ঠাকুর কর্তৃক মৈথিলী ভাষায় এটির অনুবাদ প্রকাশিত হয়।[৩]

কবিতাসূচী[সম্পাদনা]

এই কাব্যগ্রন্থে মোট ?টি কবিতা অন্তর্ভুক্ত হয়েছে।

  1. "যেতে পারি, কিন্তু কেন যাবো?"
  2. "শুয়ে আছি, ভাঙা ঘুম, ছেঁড়া স্বপ্নে"
  3. "পথে যেতে কষ্ট হয়"
  4. "মুত্যু"
  5. "এই কি সময়?"
  6. "বিড়াল"
  7. "অসহ্য আমার"
  8. "হাত পেতে দাঁড়িয়ে"
  9. "নিচে থেকে আমি ঐ রূপবান"
  10. "তুমি একা থেকো"
  11. "শুধু বাঁচতে চাই"
  12. "শেষদিনে"
  13. "বলো, ভালবাসো"
  14. "গাছের শিকড়গুলি দাঁড়িয়ে আছে"
  15. "পুরনো-নতুন দুঃখ"
  16. "ফিরে আসে"
  17. "মন্দিরের থেকে বহু শতাব্দীর অন্ধকারে"
  18. "দু'জনের জন্যে"
  19. "উত্তরবঙ্গের রঙ্গভূমে"
  20. "এখন আমার কোনো অভিমান নেই"

অনুবাদ[সম্পাদনা]

  • ১৯৯৪ - I can, but why should I go, অনুবাদক: জয়ন্ত মহাপাত্র, ইংরেজি
  • ১৯৯৯ - যা সাকি ছি কিন্তু কিয়ে যাও, অনুবাদক: রাম চরণ ঠাকুর, মৈথিলী

পুরস্কার[সম্পাদনা]

আরো দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "যেতে পারি কিন্তু কেন যাবো"গুগল বুক্‌সগুগল বুক্‌স। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জানুয়ারি ২০১৯ 
  2. ঘোষাল, সোমক (১৪ ডিসেম্বর ২০০৮)। "'Why would I go?' - Remembering poet Shakti Chattopadhyay on his 75th anniversary"দ্য টেলিগ্রাফ (কলকাতা)। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জানুয়ারি ২০১৯ 
  3. রায়, ডি. এস. (২০০৪)। Five Decades: The National Academy of Letters, India : a Short History of Sahitya Akademi। ভারত: সাহিত্য অকাদেমি। পৃষ্ঠা ৯৬। আইএসবিএন 9788126020607। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জানুয়ারি ২০১৯ 
  4. Sengupta, Samir (2005). Shakti Chattopadhyay. p. 94
  5. মহাপাত্র, জয়ন্ত (১৯৯৪)। I can, but why should I go। নতুন দিল্লি: সাহিত্য অকাদেমিআইএসবিএন 9788172015770। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জানুয়ারি ২০১৯ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]