ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শান

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
চতুর্থ পাঞ্চেন লামা ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শান

ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শান (তিব্বতি: བློ་བཟང་ཆོས་ཀྱི་རྒྱལ་མཚནওয়াইলি: Blo-bzang Chos-kyi Rgyal-mtshan) (১৫৭০-১৬৬২) তিব্বতী বৌদ্ধধর্মের দ্গে-লুগ্স ধর্মসম্প্রদায়ের চতুর্থ পাঞ্চেন লামা ছিলেন। পাঞ্চেন লামাদের মধ্যে তিনিই ছিলেন প্রথম যিনি তাঁর জীবদ্দশায় পাঞ্চেন লামা উপাধি লাভ করেন।

জন্ম[সম্পাদনা]

ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শান ১৫৭০ খ্রিষ্টাব্দে মধ্য তিব্বতের ল্হান উপত্যকায় অবস্থিত ব্রুগ-ব্র্গ্যা (ওয়াইলি: brug brgya) নামক গ্রামে স্বা পরিবারগোষ্ঠীতে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পিতার নাম ছিল কুন-দ্গা'-'ওদ-জের (ওয়াইলি: kun dga' 'od zer)। জন্মের পর তাঁর নাম রাখা হয় ছোস-র্গ্যাল-দ্পাল-ল্দান-ব্জাং-পো (ওয়াইলি: chos rgyal dpal ldan bzang po)। গ্লাং-মিগ-পা-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শান (ওয়াইলি: chos rgyal dpal ldan bzang po) নামক এক বৌদ্ধ ভিক্ষু তাঁকে দ্বেন-সা-পা-ব্লো-ব্জাং-দোন-গ্রুবের পুনর্জন্ম চলে চিহ্নিত করেন।[১]

শিক্ষা[সম্পাদনা]

ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শান কৈশোরকালে রি-বো-দ্গে-'ফেল (ওয়াইলি: ri bo dge 'phel) বৌদ্ধবিহারের প্রধান লামা সাংস-র্গ্যাস-য়ে-শেসের নিকট দ্বেন-সা নামক স্থানে পাঁচ বছর শিক্ষালাভ করেন। আঠারো বছর বয়সে তিনি থোস-ব্সাম-গ্লিং (ওয়াইলি: thos bsam gling) মহাবিদ্যালয়ে দ্পাল-'ব্যোর-র্গ্যা-ম্ত্শো (ওয়াইলি: dpal 'byor rgya mtsho) নামক বৌদ্ধভিক্ষুর নিকট শিক্ষালাভ করেন। পরবর্তী তিন বছর তিনি সাংস-র্গ্যাস-য়ে-শেসের নিকট দ্বেন-সায় গানদেন মহামুদ্রা সম্বন্ধে শিক্ষালাভ করেন। ১৫৯১ খ্রিষ্টাব্দে পান-ছেন-দাম-ছোস-য়ার-'ফেল (ওয়াইলি: paN chen dam chos yar 'phel), দ্পাল-'ব্যোর-র্গ্যা-ম্ত্শো (ওয়াইলি: dpal 'byor rgya mtsho) এবং পান-ছেন-ল্হা-দ্বাং-ব্লো-গ্রোস (ওয়াইলি: paN chen lha dbang blo gros) নামক তিনজন বৌদ্ধ ভিক্ষু তাঁকে দীক্ষাদান করেন। দ্গা'-ল্দান বৌদ্ধবিহারে নাম-ম্খা'ই-ম্ত্শান-চান (ওয়াইলি: nam mkha'i mtshan can) নামক বৌদ্ধ পন্ডিতের নিকট কালচক্র, দাম-ছোস-দ্পাল-'বার নামক ছাব্বিশতম দ্গা'-ল্দান-খ্রি-পার নিকট ছেদ সাধনা এবং দ্গে-'দুন-র্গ্যাল-ম্ত্শান নামক আঠাশতম দ্গা'-ল্দান-খ্রি-পার নিকট দ্গে-'দুন-র্গ্যা-ম্ত্শোর রচনাগুলি সম্বন্ধে শিক্ষালাভ করেন।[১]

শিক্ষকতা[সম্পাদনা]

চতুর্থ পাঞ্চেন লামা ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শান

শিক্ষালাভের পর তিনি দ্বেন-সায় ফিরে এসে বহু মন্দির ও মূর্তি নির্মাণ করান, লাম-রিম সম্বন্ধে শিক্ষাদান করেন এবং দ্বেন-সা বৌদ্ধবিহারের প্রধান রূপে নির্বাচিত হন। ১৫৯৮ খ্রিষ্টাব্দে তিনি গাংস-চান-ছোস-'ফেল (ওয়াইলি: gangs can chos 'phel) বৌদ্ধবিহার এবং ১৬০১ খ্রিষ্টাব্দে ব্ক্রা-শিস-ল্হুন-পো বৌদ্ধবিহারের প্রধান হিসেবে নির্বাচিত হন। এই সময় তিনি ব্ক্রা-শিস-ল্হুন-পো বৌদ্ধবিহারে স্মোন-লাম-ছেন-মো উৎসবের সূচনা করেন। ১৬০৯ খ্রিষ্টাব্দে তিনি এই বৌদ্ধবিহারে ব্ক্রা-শিস-ল্হুন-পো-র্গ্যুদ-পা-গ্র্বা-ত্শাং (ওয়াইলি: bkra shis lhun po rgyud pa grwa tshang) নামক তন্ত্র মহাবিদ্যালয় স্থাপন করেন।[১] তিনি এই সময় দ্রেপুং বৌদ্ধবিহারে চতুর্থ দলাই লামাকে দীক্ষাদান করেন।[২]:১৮১ চতুর্থ দলাই লামার মৃত্যুর পর ১৬১৭ খ্রিষ্টাব্দে তিনি দ্রেপুংসেরা বৌদ্ধবিহারের প্রধান লামা নির্বাচিত হন। ১৬২৬ খ্রিষ্টাব্দে দ্গা'-ল্দান বৌদ্ধবিহার বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যাং-র্ত্সে মহাবিদ্যালয়ের প্রধান নির্বাচিত হন।[১]

ভূটানের সঙ্গে সম্পর্ক[সম্পাদনা]

ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শান ১৬১২ খ্রিষ্টাব্দে ল্হাপা পরিবারগোষ্ঠীর আমন্ত্রণে ভূটান যাত্রা করেন। এই পরিবারগোষ্ঠী ঙ্গাগ-দ্বাং-র্নাম-র্গ্যালের বিরোধী ছিলেন। ভূটানে ঙ্গাগ-দ্বাং-র্নাম-র্গ্যালের প্রভাব বৃদ্ধি পেলে এই পরিবারগোষ্ঠীর প্রভাব কমে যায়। ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শানের সঙ্গে ঘনিষ্ঠতা থাকায় তারা দ্গে-লুগ্স ধর্মসম্প্রদায়ের অন্তর্গত হন। ১৬৫০ খ্রিষ্টাব্দে তিনি ভূটানতিব্বতের মধ্যে বিবাদের মধ্যস্থতা করেন। এই বিবাদের ফলে সময় গ্নাস-র্ন্যিং (ওয়াইলি: gnas rnying) পরিবারগোষ্ঠীও দ্গে-লুগ্স ধর্মসম্প্রদায়ের অন্তর্গত হয়।[১]

গ্ত্সাং-পা রাজবংশের সঙ্গে সম্পর্ক[সম্পাদনা]

গ্ত্সাং-পা রাজবংশের তৎকালীন রাজা ফুন-ত্শোগ্স-র্নাম-র্গ্যাল দ্গে-লুগ্স ধর্মসম্প্রদায়বিরোধী হলেও তিনি ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শানের সঙ্গে সুসম্পর্ক বজায় রাখেন। ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শান রাজার কোন একটি রোগ নিরাময় করে নিলে ফুন-ত্শোগ্স-র্নাম-র্গ্যাল দলাই লামার পরবর্তী অবতার খোঁজার ওপর নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করেন এবং ১৬১৯ খ্রিষ্টাব্দে পঞ্চম দলাই লামা হিসেবে ঙ্গাগ-দ্বাং-ব্লো-ব্জাং-র্গ্যা-ম্ত্শোকে চিহ্নিত করা হয়।[৩]:৩৩ পরবর্তী দশকে গ্ত্সাং-পা রাজবংশের সঙ্গে দ্গে-লুগ্স ধর্মসম্প্রদায়ের সঙ্গে সম্পর্কের অবনতি ঘটলে তিনি বহুবার মধ্যস্থতা করেন। ১৬২১ খ্রিষ্টাব্দে ল্হাত্সুন এবং হুংতাইজির নেতৃত্বে মঙ্গোলরা দ্গে-লুগ্স ধর্মসম্প্রদায়ের সমর্থনে দ্বুস অঞ্চল আক্রমণ করলে গ্ত্সাং-পা রাজবংশের তৎকালীন রাজা ব্স্তান-স্ক্যোং-দ্বাং-পো গ্যাথাংগাং নামক স্থানে তাঁদের সম্মুখীন হন কিন্তু তিনি ও তাঁর সৈন্যদল মুঙ্গোলদের কাছে পরাজিত ও বন্দী হন।[৪]:৬৯৭ এই সময় ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শান সহ দ্গে-লুগ্স ধর্মসম্প্রদায়ের প্রধান লামারা তাঁদের মুক্তির জন্য মঙ্গোলদের অনুরোধ করলে তাঁরা মুক্তি পান। কিন্তু এর পরিবর্তে দ্গে-লুগ্স ধর্মসম্প্রদায় তাঁদের পূর্বেকার সমস্ত বৌদ্ধবিহার পুনরায় অধিকার করে এবং দ্বুস অঞ্চলে গ্ত্সাং-পা রাজবংশের সমস্ত সামরিক ছাউনিগুলিকে ধ্বংস করে দেওয়া হয়। ১৬২২ খ্রিষ্টাব্দে ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শান পঞ্চম দলাই লামাকে অধিষ্ঠিত করতে সক্ষম হন। ১৬৪২ খ্রিষ্টাব্দে গ্ত্সাং-পা রাজবংশের পতন হলে পঞ্চম দলাই লামা ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শানকে পাঞ্চেন লামা উপাধি প্রদান করেন।[১]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Gardner, Alexander (2009-10)। "The Fourth Paṇchen Lama, Lobzang Chokyi Gyeltsen"The Treasury of Lives: Biographies of Himalayan Religious Masters। সংগ্রহের তারিখ 2014-09-04  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |তারিখ= (সাহায্য)
  2. Mullin, Glenn H. (2001). The Fourteen Dalai Lamas: A Sacred Legacy of Reincarnation, Clear Light Publishers. Santa Fe, New Mexico. আইএসবিএন ১-৫৭৪১৬-০৯২-৩.
  3. Ya Hanzhang, Biographies of the Tibetan Spiritual Leaders Panchen Erdenis, Beijing 1994
  4. Giuseppe Tucci, Tibetan Painted Scrolls, Rome 1949

আরো পড়ুন[সম্পাদনা]

  • Willis, Janice D. 1985. “Preliminary Remarks on the Nature of rNam-thar: Early dGe-lugs-pa Siddha Biographies.” In Soundings in Tibetan Civilizations. Barbara Aziz and Matthew Kapstein, eds. Delhi: Manohar, pp. 304–319.
  • Willis, Janice D. 1995. Enlightened Beings: Life Stories from the Ganden Oral Tradition. Boston: Wisdom Publications, pp. 85–96.
পূর্বসূরী
দ্বেন-সা-পা-ব্লো-ব্জাং-দোন-গ্রুব
ব্লো-ব্জাং-ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-ম্ত্শান
চতুর্থ পাঞ্চেন লামা
উত্তরসূরী
ব্লো-ব্জাং-য়ে-শেস