পার্বতী জয়রাম

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
পার্বতী জয়রাম
Parvathi actress.jpg
জন্ম
অশ্বতী কুরুপ

(1970-04-04) ৪ এপ্রিল ১৯৭০ (বয়স ৫০)
তিরুবল্ল, কেরালা
জাতীয়তা ভারত
কর্মজীবন১৯৮৬ – ১৯৯৩
দাম্পত্য সঙ্গীজয়রাম (১৯৯২-বর্তমান)
সন্তানকালিদাস জয়রাম (জন্ম ১৯৯৩)[১]
মালবিকা জয়রাম[২]
পিতা-মাতারামচন্দ্র কুরুপ, পদ্মা বাই

পার্বতী জয়রাম, তাঁর মঞ্চ নাম পার্বতী দ্বারা বেশি পরিচিত, হলেন একজন ভারতীয় চলচ্চিত্র অভিনেত্রী এবং শাস্ত্রীয় নৃত্যশিল্পী। তিনি অনেক মালয়ালম চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন।[৩]

পার্বতী ১৯৮০-এর দশকের শেষ দিকে এবং ১৯৯০-এর দশকের গোড়ার দিকে মালয়ালাম চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় অভিনেত্রী ছিলেন। তাঁর প্রথম ছবিটি পরিচালনা করেছিলেন লেনিন রাজেন্দ্রন, কিন্তু সেটি কখনই মুক্তি পায়নি। ১৯৮৬ সালে অভিনেতা-পরিচালক বালচন্দ্র মেনন বিভাইথারে ইথাইল চলচ্চিত্রেরর মাধ্যমে চলচ্চিত্রে জগতের সাথে তাঁর পরিচয় করিয়ে দেন। তাঁর উল্লেখযোগ্য কাজগুলির মধ্যে রয়েছে অমৃতম গময়, ওরু মিন্নামিনুংগিন্তে নুরুঙ্গুভেত্তম , থুভানাথুম্বিকাল (১৯৮৭),পোনমুতায়িদূন্না থারাভু (১৯৮৮), বড়াক্কুনোক্কিয়ানন্ত্রম , পেরুভানাপুরাথে বিশেশাংগল এবং কিরীদাম (১৯৮৯)। পার্বতী চলচ্চিত্র অভিনেতা জয়রাম কে বিবাহ করেছিলেন, যিনি অনেক ছবিতে তাঁর সহশিল্পী ছিলেন। ৭ই সেপ্টেম্বর ১৯৯২ সালে এর্নাকুলামের টাউন হলে তাঁদের বিবাহ হয়। বিবাহের পরে পার্বতী কার্যকরভাবে ছবিতে অভিনয় করা ছেড়ে দেন।[৪] তিনি এখন পরিবারের সাথে চেন্নাইতে থাকেন। তাঁর দুই সন্তান, পুত্রের নাম কালিদাস জয়রাম এবং কন্যার নাম মালবিকা জয়রাম।

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

অশ্বতী কুরুপ রামচন্দ্র কুরুপ এবং পদ্মবাইয়ের তিন সন্তানের মধ্যে দ্বিতীয় সন্তান হিসাবে তিরুবল্লতে জন্মগ্রহণ করেছিলেন। তাঁর বাবা আলেপ্পির চম্পাকুলাম অঞ্চলের মানুষ এবং তাঁর মা তিরুবল্লের কবিয়ূর অঞ্চলের মানুষ। তাঁর বড় বোনের নাম জ্যোতি। তাঁর ছোট বোন দীপ্তি মারা গিয়েছে। তাঁর প্রাথমিক শিক্ষা হয়েছিল তিরুবল্লর দেবস্বম বোর্ড উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে। তিনি যেখানে পড়তেন, তাঁর মা সেই একই বিদ্যালয়ে গণিতের শিক্ষক ছিলেন।[৫] তিনি চাঙ্গানসেসির এনএসএস হিন্দু কলেজ থেকে প্রাক-ডিগ্রি অর্জন করেছিলেন। এখানেই লেনিন রাজেন্দ্রন তাঁকে আবিষ্কার করেছিলেন এবং এরপর তিনি অশ্বতীকে তাঁর চলচ্চিত্রে মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করার সুযোগ করে দেন। কিন্তু এই ছবিটি কোনদিন মুক্তি পায়নি। তারপরে তিনি ১৬ বছর বয়সে বালচন্দ্র মেনন পরিচালিত চলচ্চিত্র বিভাইথারে ইথাইল (১৯৮৬) তে অভিনয় করেছিলেন, মুক্তি পাওয়ার দিক থেকে এটি ছিল তাঁর প্রথম ছবি।

পার্বতীর সঙ্গে তাঁর ভবিষ্যত স্বামী জয়রামের দেখা হয়েছিল অপরণ চলচ্চিত্রের সেটে, ১৯৮৮ সালে, আলেপ্পির উদয় স্টুডিওতে। ১৯৯২ সালের ৭ই সেপ্টেম্বর তাঁর বিয়ের পরে, পার্বতী অভিনয় করা ছেড়ে দেন এবং পরে বলেছিলেন যে, এই নিয়ে তাঁর কোনও অনুশোচনা নেই। "স্বামী স্ত্রীর একজনকে তার পেশাটি ছাড়তেই হয়, অন্যথায়, সঠিকভাবে বাচ্চাদের লালনপালন করা কঠিন। স্বামীর অর্জিত বেতন ভাল হলে স্ত্রী কেন কাজ করবে?",[৬][৭]

এই দম্পতির দুই সন্তান, কালিদাস জয়রামমালবিকা জয়রাম। কালিদাস জয়রাম এন্তে ভিড়ু আপ্পুভিন্তেয়াম (২০০৩) চলচ্চিত্রে অভিনয় করে সেরা শিশু শিল্পীর জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছিল। এই ছবিতে সে তার বাবা জয়রামের সঙ্গে অভিনয় করেছিল।[৬] বর্তমানে পার্বতী জয়রাম পরিবার নিয়ে তামিলনাড়ুর ভালাসারাভাক্কামে থাকেন।

অভিনীত চলচ্চিত্র গুলি[সম্পাদনা]

ক্রম বছর শিরোনাম ভূমিকা নির্দেশক
১৯৮৬ বিভাইথারে ইথাইল মঞ্জু বালচন্দ্র মেনন
১৯৮৭ অমৃতম গময় শ্রীদেবী টি.হরিহরণ
১৯৮৭ এজুথাপুরঙ্গল সীতা সিবি মালয়িল
১৯৮৭ জালকম লতা হরিকুমার
১৯৮৭ ওরু মিন্নামিনুংগিন্তে নুরুঙ্গুভেত্তম উন্নিমায়া ভারতন
১৯৮৭ থুবানাথাম্বিকাল রাধা পি. পদ্মরাজন
১৯৮৭ তানিয়াভারতনম শ্রীধরনের প্রেমিকা সিবি মালয়িল
১৯৮৭ ওরু মায়মাস পুলারিয়িল ভি. আর. গোপীনাথ
১৯৮৮ আবকারি শ্রদ্ধা আই. ভি. শশী
১০ ১৯৮৮ আরণ্যকম শৈলজা টি.হরিহরণ
১১ ১৯৮৮ দিনরাত্রাঙ্গল তৃষা যোশি
১২ ১৯৮৮ বৈশালী শান্তা ভারতন
১৩ ১৯৮৮ উইটনেস ইন্দু.আর.নায়ার ভিজি থাম্পি
১৪ ১৯৮৮ ১৯২১ আশিয়া আই. ভি. শশী
১৫ ১৯৮৮ অপরণ সিন্ধু পি. পদ্মরাজন
১৬ ১৯৮৮ পোনমুতায়িদূন্না থারাভু হাজিয়ারের তৃতীয় স্ত্রী সাথিয়ান আন্তিক্কাদ
১৭ ১৯৮৮ অশোকান্তে অশ্বতিকুত্তিক্কু অশ্বতি বিজয়ন করোট
১৮ ১৯৮৮ মৃত্যুঞ্জয়ম সাবীনা পল বাবু
১৯ ১৯৮৮ কুদুম্বপুরনম রমা সাথিয়ান আন্তিক্কাদ
২০ ১৯৮৮ সংঘম অশ্বতি যোশি

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Kalidasan starts shooting on Jayaram's birthday - Times of India"indiatimes.com। ৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩ মার্চ ২০১৮ 
  2. "Malavika Jayaram, daughter of actors Jayaram and Parvathy, enters the fashion world"। The Hindu। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৩-০২ 
  3. "Infocus - Parathy Jayaram"Mb4Eves। ৩ মার্চ ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১১ ডিসেম্বর ২০১৩ 
  4. "How male superstars have an uninterrupted run, wonders Parvathy Jayaram"india.com। ২০ জানুয়ারি ২০১৩। ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩ মার্চ ২০১৮ 
  5. "Katha Ithuvare with Parvathy"। Mazhavil Manorama। ২৪ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৯ নভেম্বর ২০১৫ 
  6. "He is an instant story-maker: Parvathy"newindianexpress.com। ৪ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩ মার্চ ২০১৮ 
  7. "'പ്രിയപ്പെട്ട പാര്‍വതി; ഞാന്‍ കലാഭവനിലെ മിമിക്രി ആര്‍ട്ടിസ്റ്റാണ്, പേര് ജയറാം' | Parvathy Jayaram love story malayalam celebrity couple actors kalidas jayaram movies films"। Mathrubhumi.com। ২০১৯-০৭-২৫। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৩-০২ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]