তুমি শুধু আমার

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
তুমি শুধু আমার
পরিচালকআবুল কালাম আজাদ
রচয়িতাযোশেফ শতাব্দী (সংলাপ)
চিত্রনাট্যকারআবুল কালাম আজাদ
কাহিনিকারমাহফুজুর রহমান
শ্রেষ্ঠাংশে
সুরকারমান্নান মোহাম্মদ
চিত্রগ্রাহককাজী কাদের
সম্পাদকআমজাদ হোসেন
প্রযোজনা
কোম্পানি
মাল্টিমিডিয়া প্রোডাকশন কোম্পানি
মুক্তি
  • ১৭ জানুয়ারি ২০০৩ (2003-01-17)[১]
দেশবাংলাদেশ
ভাষাবাংলা

তুমি শুধু আমার আবুল কালাম আজাদ পরিচালিত ২০০৩ সালের বাংলাদেশী প্রণয়ধর্মী চলচ্চিত্র। এর কাহিনী লিখেছেন মাহফুজুর রহমান, সংলাপ লিখেছেন যোশেফ শতাব্দী এবং চিত্রনাট্য লিখেছেন আবুল কালাম আজাদ। এতে শ্রেষ্ঠাংশে অভিনয় করেছেন ফেরদৌস আহমেদ, রত্না, কেয়া, বুলবুল আহমেদদিলদার

চলচ্চিত্রটি ২০০৩ সালের ১৭ই জানুয়ারি মুক্তি পায়। দিলদার এই চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য ২৮তম জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারে শ্রেষ্ঠ কৌতুক অভিনেতা বিভাগে পুরস্কার অর্জন করেন।[২]

কাহিনি সংক্ষেপ[সম্পাদনা]

রাজু (ফেরদৌস আহমেদ) স্নাতক শেষ করে ঢাকায় চাকরির জন্য আসেন। কিন্তু ঘটনাক্রমে সে তার বন্ধুর ঠিকানা হারিয়ে ফেলে। উপার্জনের কোন ব্যবস্থা না পেয়ে সে তার রক্ত বিক্রি করে। এভাবে সে চৌধুরী সাহেবের (বুলবুল আহমেদ) সাথে পরিচিত হয়, যিনি তাকে তার অফিসে কাজের প্রস্তাব দেন। রাজুর দেওয়া রক্তে জীবন বেঁচে যাওয়া প্রীতি (কেয়া) তার প্রেমে পড়ে। কিন্তু রাজু তার স্মৃতিকে (রত্না) ভালোবাসে। প্রীতি তাদের সম্পর্কের ব্যাপারে জানতে পারলে স্মৃতিকে ডেকে এনে অপমান করে। এই ঘটনায় রাজুর প্রতিক্রিয়ায় প্রীতি আশাহত হয় এবং সে আত্মহত্যার চেষ্টা করে। রাজু আবারও তাকে রক্ত দিয়ে জীবন বাঁচায়, কিন্তু অপর একটি ঘটনার ফলে পুরো দৃশ্যপট পাল্টে যায়।

অভিনয়শিল্পীদল[সম্পাদনা]

  • ফেরদৌস আহমেদ - রাজু
  • রত্না - স্মৃতি
  • কেয়া - প্রীতি
  • বুলবুল আহমেদ - চৌধুরী
  • রেহানা জলি - স্মৃতির মা
  • আলী আমজাদ - স্মৃতির বাবা
  • দিলদার - গিট্টু
  • জাহানারা
  • সুরাইয়া
  • রুকসানা
  • রূপা
  • রুমা
  • ড্যানিরাজ - জাহিদ
  • কাকন শাহ
  • জামিলুর রহমান শাখা - রাজুর বাবা
  • শামসুদ্দিন টগর
  • আহমেদ শাহ বুলবুল
  • অরুণ রবি
  • ডাবলু
  • গুলজার
  • মিজান
  • মঞ্জুর আলম
  • নীরব

সঙ্গীত[সম্পাদনা]

চলচ্চিত্রটির সুর ও সঙ্গীত পরিচালনা করেছেন মান্নান মোহাম্মদ। গীত রচনা করেছেন রুকসানা কবীর কাকলী ও দেলোয়ার আরজুদা শরফ। গানে কণ্ঠ দিয়েছেন এন্ড্রু কিশোর, মনির খান ও মিতালি।

গানের তালিকা[সম্পাদনা]

নং.শিরোনামকণ্ঠশিল্পী(গণ)দৈর্ঘ্য
১."গাইয়া এক ছেলে"মিতালি 
২."জানিনা কখন যে ফাগুন এসেছে"মিতালি 
৩."তুমি হাসলে"এন্ড্রু কিশোর ও মিতালি 
৪."দিন যায় যায়"এন্ড্রু কিশোর ও মিতালি 
৫."তুমি শুধু আমার"মিতালি 
৬."বুকের মাঝে হৃদয় যেখানে"এন্ড্রু কিশোর ও মিতালি 
৭."আমি তোমাকে ভালবাসি"মনির খান ও মিতালি 
৮."তুমি শুধু আমার (দুঃখ)"মিতালি 

পুরস্কার ও মনোনয়ন[সম্পাদনা]

পুরস্কার বিভাগ মনোনীত ফলাফল সূত্র
২৮তম জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার শ্রেষ্ঠ কৌতুক অভিনেতা দিলদার বিজয়ী [৩]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. জোয়াদ, আবদুল্লাহ (২০১০)। বাংলাদেশের চলচ্চিত্র: পাঁচ দশকের ইতিহাস। ঢাকা: জ্যোতিপ্রকাশ। পৃষ্ঠা ৬৩২। আইএসবিএন 984-70194-0045-9 
  2. শাওন, রাশেদ। "চার দশকে আমাদের সেরা চলচ্চিত্রগুলো"বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম। ২৮ ডিসেম্বর ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৪ নভেম্বর ২০১২ 
  3. "জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রাপ্তদের নামের তালিকা (১৯৭৫-২০১২)" (PDF)এফডিসিবাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন কর্পোরেশন 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]