জোজি-লা সুড়ঙ্গ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
জোজি লা সুড়ঙ্গ
সংক্ষিপ্ত বিবরণ
স্থানলাদাখ, ভারত
পথশ্রীনগর-কারগিল-লেহ মহাসড়ক
ক্রিয়াকলাপ
পরিচালকসীমান্ত সড়ক সংস্থা
যানবাহনমোটরযান
কারিগরী
দৈর্ঘ্য১৪.২ কিলোমিটার (৮.৮ মা)
লেন সংখ্যাদুই (প্রতিটি দিক এক)

জোজি লা সুড়ঙ্গ হল হিমালয়ের জোজি লা গিরিপথের নীচে ভারতের কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল লাদাখের কার্গিল জেলার সোনমার্গদ্রাস শহরের মধ্যবর্তী একটি সড়ক সুড়ঙ্গ, যা বর্তমানে নির্মাণাধীন রয়েছে।[১] ৬.৫ কিলোমিটার দীর্ঘ জেড-মোর সুড়ঙ্গের পাশাপাশি এই সুড়ঙ্গটি (যা শ্রীনগরের দিকে জোজি লা সুড়ঙ্গের ২২ কিলোমিটার আগে)[২] শ্রীনগর ও কার্গিলের মধ্যে বছরব্যাপী সড়ক যোগাযোগ নিশ্চিত করবে, যা বর্তমানে প্রায় সাত মাস ধরে জোজি লা গিরিপথের ভারী তুষারপাতের কারণে বন্ধ রয়েছে। এটি শ্রীনগর-কারগিল-লেহ মহাসড়কে ৩,৫২৮ মিটার (১১,৫৭৮ ফুট) উচ্চতায় অবস্থিত। জোজি লা সোনমার্গ থেকে ১৫ কিলোমিটার দূরে এবং লাদাখের দ্রাস এবং কার্গিলের সাথে একটি গুরুত্বপূর্ণ সংযোগ সরবরাহ করে, তবে শীতের সময় ভারী তুষারপাত ও তুষারপাতের কারণে শীতকালে ৬-৭ মাস (নভেম্বর থেকে মে) বন্ধ থাকে।

গিরিপথটি পার হতে ৩ ঘণ্টারও বেশি সময় লাগে, তবে সুড়ঙ্গটি সময় কমিয়ে দেবে। গিরিপথটি এলওসি-র নিকটতম এবং সন্ত্রাসীদের দ্বারা ঝুঁকিপূর্ণ হওয়ায় এই সুড়ঙ্গটি সেনাবাহিনী ও লাদাখের জনগণের জন্য কৌশলগত ভাবে প্রয়োজনীয়। অপারেশন বাইসনের দ্বারা জোজি লা পাকিস্তানি আক্রমণকারীদের কাছ থেকে পুনরায় উদ্ধার হয়েছিল।[৩]

শ্রীনগর থেকে জোজি লা গিরিপথের রাস্তা

জোজি লা সুড়ঙ্গ প্রকল্পটি ভারত সরকার দ্বারা জানুয়ারি ২০১৮ সালে অনুমোদিত হয় এবং এর নির্মাণকাজের সূচনা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ২০১৮ সালের মে মাসে উদ্বোধন করেন।[৪] সুড়ঙ্গটি ইপিসি ব্যবস্থার (ইঞ্জিনিয়ারিং, সংগ্রহ, নির্মাণ) অধীনে নির্মিত হবে, যেখানে ভারত সরকার অর্থ সরবরাহ করবে এবং নির্বাহী সংস্থা নির্মাণ করবে এবং পরে প্রকল্পটি ভারত সরকারের কাছে হস্তান্তর করবে।

এর আগে এটি পিপিপি ব্যবস্থার অধীনে নির্মিত হওয়ার কথা ছিল, যেখানে বেসরকারি সংস্থাটি বিনিয়োগের করবে এবং পরে টোলের মাধ্যমে বিনিয়োগ পুনরুদ্ধার করার কথা ছিল, তবে ২০১৩ সাল থেকে পাঁচবার বিডের আহ্বান সত্ত্বেও একবারও বিড আসেনি এবং কেবল একটি ব্যক্তিগত সংস্থা আগ্রহী হলেও প্রতি ক্ষেত্রে বিড বাতিল হয়।[৫]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Zojila tunnel will be a boon for the armed forces and for tourists too"Theprint.in 
  2. Muddasir Ali (২০১৪-০৩-২৭)। "Work on 6.5 km Z-Morh tunnel to begin this year"Greaterkashmir.com। ২০১৮-০৬-১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-০৬-০৬ 
  3. "সংরক্ষণাগারভুক্ত অনুলিপি"। ১২ জুন ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৫ অক্টোবর ২০২০ 
  4. "PM Modi inaugurates Zojila project in Leh: All you need to know about India's longest tunnel"Indianexpress.com। ১৯ মে ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ২৩ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  5. "Work On Zojila Pass Tunnel In J&K To Commence On August 15, NHIDCL Says"Bloombergquint.com। সংগ্রহের তারিখ ৬ জুন ২০১৭ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]