ঘুষি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সরাসরি যাও: পরিভ্রমণ, অনুসন্ধান
ঘুষি
200px|ঘুষি
মার্কিন সেনা খোঁচা ঘুষি মারছে।
বর্ণনা ঘুষির বিভিন্ন নাম
ইংরেজি USA পাঞ্চ
জাপানি Japon জুকি
চাইনিজ Chine চয়
কোরিয়ান Corée কোয়ান
থাইল্যান্ড Thailand চক
বার্মিজ Burma লাত্ত-দি
ভিয়েতনামিজ Vietnam থই-সন
পাকিস্তানি Pakistan মুক্কা
বাংলাদেশি Bangladesh ঘুষি

মুষ্টিবদ্ধ হাতের আঘাতই হচ্ছে ঘুষি[১] হাতে হাতে যুদ্ধে ঘুষি সবচে বেশি ব্যবহৃত হয়। বিভিন্ন ধরনের মার্শাল আর্টে ঘুষি ব্যবহৃত হয়, লক্ষ্যণীয় মুষ্টি যুদ্ধে ঘুষিই একমাত্র কৌশল। খেলোয়াড়দের রক্ষা করার জন্য অনেক সময় খেলায় দস্তানা ব্যবহৃত হয়।[২][৩]

বিভিন্ন মার্শাল আর্টে ঘুষি বিভিন্ন রকম। মুষ্টিযুদ্ধ এবং রাশিয়ান মুষ্টিযুদ্ধে শুধু মাত্র ঘুষি ব্যবহৃত হয় কিন্তু কিকবক্সিং বা কারাতেতে ঘুষি অপ্রধান অস্ত্র হিসেবে বেবহেত হয়। অন্যান্য মার্শাল আর্ট যেমন মল্লযুদ্ধ বা জুডোতে ঘুষি কখনই ব্যবহৃত হয় না। বিভিন্ন ধরনের ঘুষি আছে ফলে ঘুষির বিভিন্ন কৌশল গড়ে উঠেছে।

মৌলিক নিদর্শন[সম্পাদনা]

ইহা ঘুষির সর্বব্যাপী তালিকা নয় কারণ বিভিন্ন ধরনের মার্শাল আর্টে ঘুষির বিভিন্ন কৌশল ব্যবহৃত হয়।

নাম ১ নাম ২ বর্ণনা
বাহু ঘুষি প্রতিযোগিতা মূলক খেলায় যে ঘুষিটা বাহু দ্বারা ব্যবহৃত হয়। বাহু ঘুষি সাধারণ ঘুষি থেকে দুর্বল হয়।
পশ্চাৎ মুস্তি ঘুষিটা মুষ্টির পশ্চাৎ দিয়ে মারা হয়।
প্রকোষ্ঠ ঘুষি সাধারণত কারাতে,কুংফু এবং তায়কোয়ান্দোতে ব্যবহৃত হয়।
খোঁচা ঘুষি দ্রুততার সাথে আত্মরক্ষামূলক হাত দিয়ে ঘুষিটাই খোঁচা ঘুষি।
হাতুড়ি মুষ্টি লক্ষ্যবস্তুতে হাতের পার্শ্বদেশ বা কব্জি দিয়ে হাতুড়ির মত মারাকে হাতুড়ি ঘুষি বলে।
আংটা ঘুষি উলটো মুষ্টির ঘুষিকে আংটা ঘুষি বলে।
উত্থান ঘুষি ঘুষিটা উপরের দিকে উঠে। মুলত, থুতনির নিচে।
অতিমানব ঘুষি এই কৌশলটি সাধারণত মুই থাই,কারাতে এবং মিক্স মার্শাল আর্টে ব্যবহৃত হয়। খেলোয়াড়েরা পায়ে ভর দিয়ে উড়ে এসে ঘুষি দেয়। যে কারনে এর নাম হয়েছে সুপারম্যান বা অতিমানব ঘুষি।

পদ্ধতি[সম্পাদনা]

তলপেটে ঘুষির চিত্র

মুষ্টিযুদ্ধ[সম্পাদনা]

মুষ্টিযুদ্ধে ঘুষি ব্যবহৃত হয় সাধারণত আক্রমণের গতি এবং নির্দেশনার সাথে। প্রধান ৪ টি ঘুষি হচ্ছে খোঁচা ঘুষি, ক্রস ঘুষি, আংটা ঘুষি, উত্থান ঘুষি

একজন কারাতেকা বিপরীত ঘুষি বা গ্যাকু-জুকি মারছে।

কারাতে[সম্পাদনা]

সেইকেন

কারাতেতে ঘুষিকে জুকি বলে। আঙ্গুলের সামনের ২ টি গাঁট দিয়ে মারাকে বলা হয় সেইকেন[৪] হাতের পৃষ্টদেশ দিয়ে মারাকে বলা হয় উরাকেন এবং হাতের নিম্মদেশ দিয়ে মারাকে বলা হয় তেতসুই। সামনের হাতের খোঁচা ঘুষিকে অই-জুকি, সোজা ঘুষিকে ছকু-জুকি, বিপরীত হাতের সোজা ঘুষিকে গ্যাকু-জুকি বলা হয়।[৫]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Punch | Define Punch at Dictionary.com"। Dictionary.reference.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-১১-০৯ 
  2. "The Proper Way to Wrap Your Hands"। Ringside.com। ২০০৭-০৪-২৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৭-০৭-২৯ 
  3. Ballard, Willie L. "Portable Hand Wrap" Mar 22. 1994. Retrieved on June 29, 2007.
  4. Oyama, Masutatsu (২০০৪)। Mas Oyama's Classic Karate। New York: London: Sterling; Chrysalis (distributor)। পৃষ্ঠা 13। আইএসবিএন 1-4027-1287-1  অজানা প্যারামিটার |coauthors= উপেক্ষা করা হয়েছে (|author= ব্যবহারের পরামর্শ দেয়া হচ্ছে) (সাহায্য)
  5. Funakoshi, Gichin (১৯৯৪)। Karate-dō Nyūmon: The Master Introductory Text। Tokyo: Kodansha International। পৃষ্ঠা 51–52, 64–65। আইএসবিএন 4-7700-1891-6  অজানা প্যারামিটার |coauthors= উপেক্ষা করা হয়েছে (|author= ব্যবহারের পরামর্শ দেয়া হচ্ছে) (সাহায্য)

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]