কেজথেলি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
কেজথেলি
কেজথেলির পতাকা
পতাকা
কোট অব আর্মস অব কেজথেলি
প্রতীক
কেজথেলি হাঙ্গেরি-এ অবস্থিত
কেজথেলি
কেজথেলি
কেজথেলির অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ৪৬°৪৬′১১″ উত্তর ১৭°১৪′৫৩″ পূর্ব / ৪৬.৭৬৯৬৫° উত্তর ১৭.২৪৮১৩° পূর্ব / 46.76965; 17.24813স্থানাঙ্ক: ৪৬°৪৬′১১″ উত্তর ১৭°১৪′৫৩″ পূর্ব / ৪৬.৭৬৯৬৫° উত্তর ১৭.২৪৮১৩° পূর্ব / 46.76965; 17.24813
রাষ্ট্র হাঙ্গেরি
প্রদেশজালা
সরকার
 • মেয়রফেরেন্স রুজিক্স (ফিদেস-কেডিএনপি)
আয়তন
 • মোট৭৫.৯৮ কিমি (২৯.৩৪ বর্গমাইল)
জনসংখ্যা (2012)
 • মোট২০,৮৯৫
 • জনঘনত্ব২৭৫.০১/কিমি (৭১২.৩/বর্গমাইল)
সময় অঞ্চলসিইটি (ইউটিসি+১)
 • গ্রীষ্মকালীন (দিসস)সিইএসটি (ইউটিসি+২)
পোস্ট কোড৮৩৬০
এলাকা কোড৮৩
ওয়েবসাইটkeszthely.hu

কেজথেলি (হাঙ্গেরীয় উচ্চারণ: [ˈkɛst.hɛj]; স্লোভেনীয়: Blatenski Kostel) বালাটন হ্রদের পশ্চিম তীরবর্তী হাঙ্গেরির একটি শহর। ২০,৮৯৫ জন বাসিন্দার এই শহরটি হ্রদের তীরবর্তী বৃহত্তম শহর এবং সাংস্কৃতিক, শিক্ষাগত এবং অর্থনৈতিক দিক থেকে এই অঞ্চলের মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ স্থানে আসীন। এই শহরের অনুকূল অবস্থান এবং সড়কপথ ও রেলপথ উভয়ের মাধ্যমেই প্রবেশযোগ্যতা, কেজথেলি ও এর পার্শ্ববর্তী অঞ্চলসমূহকে সময় কাটানোর এক আদর্শ স্থানে পরিণত করেছে।

রোমান সময়ে (রোমানদের প্যানোনিয়ান ভাষার কেজথেলি সংস্কৃতি) এই শহরের প্রতিষ্ঠা ঘটলেও এই প্রথম ঐতিহাসিক প্রমাণ পাওয়া যায় ১২৪৭ সাল থেকে, যা ছিল ঐ সময়ের একটি নথি। ১৪২১ সাল থেকে কেজথেলি একটি মার্কেট টাউনে পরিণত হয়।

প্যানোনিয়া বিশ্ববিদ্যাল্যের কৃষি অনুষদটি কেজথেলিতে অবস্থিত। হাঙ্গেরিয় সাহিত্যিক ও গ্রন্থাগারিক, জর্জ ফেজের, ১৭৬৬ সালে কেজথেলিতে জন্মগ্রহণ করেছিলেন।

অবস্থান[সম্পাদনা]

কেজথেলি শহরটি কেন্দ্রীয় ইউরোপের বৃহত্তম হ্রদ বালাটন হ্রদের উত্তরপশ্চিম প্রান্তে অবস্থিত। জঙ্গল পুরো শহরটিকে ঘিরে রেখেছে। এছাড়াও এর উত্তরে ঢালু পাহাড়, দক্ষিণপূর্বে সমতলভূমি এবং হ্রদ অবস্থিত। শহরের দক্ষিতে কিস-বালাটন (ক্ষুদে বালাটন) নামক একটি জলাভূমি অবস্থিত। জলাভূমিটি জালা নদীর অংশ, যা বালাটন হ্রদের পানির বিশুদ্ধতা বজায় রাখে। জলাভূমিটি ডাহুক পাখির বাসস্থান হিসেবে খ্যাত এবং আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি লাভ করেছে। অঞ্চলটিকে প্রাকৃতিকভাবে সংরক্ষণ করার আহ্বান করা হয়েছে।

কেজথেলি

এই শহরের কাছেই স্পা ও স্বাস্থ্যসেবার জন্য বিখ্যাত হেভিজ শহর অবস্থিত। এছাড়াও কেজথেলির কাছেই উত্তরাঞ্চলীয় বালাটন ওয়াইন প্রস্তুতকারক অঞ্চল অবস্থিত, যা স্থানীয়ভাবে চাষকৃত প্রজাতি দিয়ে তৈরি উৎকৃষ্টমানের হোয়াইট-ওয়াইন প্রস্তুত করার জন্য বিখ্যাত।

সড়কপথে হাঙ্গেরির রাজধানী বুদাপেস্ট থেকে এবং অস্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনা থেকেই সহজে কেজথেলি যাওয়া যায়। কেজথেলি এবং বুদাপেস্টের মধ্যকার বাস দিনে কয়েকবার করে ছাড়ে।

জলবায়ু[সম্পাদনা]

কেজথেলি-এর আবহাওয়া সংক্রান্ত তথ্য
মাস জানু ফেব্রু মার্চ এপ্রিল মে জুন জুলাই আগস্ট সেপ্টে অক্টো নভে ডিসে বছর
সর্বোচ্চ °সে (°ফা) গড় −১
(৩১)

(৩৬)

(৪৯)
১৬
(৬০)
২০
(৬৮)
২৫
(৭৭)
২৮
(৮৩)
২৭
(৮১)
২৩
(৭৩)
১৭
(৬৩)

(৪৬)

(৩৬)
১৪٫৭
(৫৮٫৬)
সর্বনিম্ন °সে (°ফা) গড় −৫
(২৩)
−৬
(২২)

(৩৫)

(৪৫)
১০
(৫০)
১৫
(৫৯)
১৬
(৬১)
১৬
(৬০)
১২
(৫৪)

(৪৮)

(৩৪)
−২
(২৯)
৬٫৩
(৪৩٫৩)
গড় অধঃক্ষেপণ মিমি (ইঞ্চি) ৬০
(২٫২)
১০
(০٫৫)
২০
(০٫৯)
৫০
(১٫৯)
৮০
(৩٫১)
৮০
(৩٫৩)
৪০
(১٫৭)
৩০
(১٫২)
৬০
(২٫৩)
২০
(০٫৯)
২০
(০٫৬)
২০
(০٫৯)
৪৯০
(১৯٫৫)
উৎস: ওয়েদারবেইজ[১]

যমজ শহর — সিস্টার সিটি[সম্পাদনা]

নিম্নোক্ত শহরগুলোকে কেজথেলি শহরের যমজ বলা হয়ঃ

গ্যালারি[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Weatherbase: Historical Weather for Keszthely, Hungary"। ওয়েদারবেইজ। ২০১১।  Retrieved on November 24, 2011.
  2. "Łańcut Official Website - Foreign contacts"Flag of the United Kingdom.svg ইংরেজি ভাষায়) © 2008 Urząd Miejski w Łańcucie, Plac Sobieskiego 18, 37-100 Łańcut। সংগ্রহের তারিখ ২০০৮-১১-২০ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

টেমপ্লেট:জালা প্রদেশ