হীনা সিধু

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
হীনা সিধু
Heena Sidhu, promo for 2014 CWG.jpg
ব্যক্তিগত তথ্য
জাতীয়তা ভারত
নাগরিকত্বভারতীয়
জন্ম (1989-08-29) ২৯ আগস্ট ১৯৮৯ (বয়স ৩২)
লুধিয়ানা, পাঞ্জাব, ভারত
শিক্ষাব্যাচেলর অফ ডেন্টাল সার্জারি
মাতৃ-শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানযাদবীন্দ্র পাবলিক স্কুল, পাতিয়ালা
জ্ঞানসাগর ডেন্টাল কলেজ
পেশাSportsman (শ্যুটার)
উচ্চতা১৬৩ সেমি (৫ ফু ৪ ইঞ্চি) (এপ্রিল ২০১৩-এর হিসাব অনুযায়ী)
ওজন৫০.৫ কেজি (১১১ পা) (এপ্রিল ২০১৩-এর হিসাব অনুযায়ী)
পদকের তথ্য
 ভারত-এর প্রতিনিধিত্বকারী
Women's শ্যুটিং
বিশ্বকাপ
স্বর্ণ পদক - প্রথম স্থান 2013 Germany ১০মিটার এয়ার পিস্তল
স্বর্ণ পদক - প্রথম স্থান 2017 New Delhi ১০মিটার এয়ার পিস্তল মিশ্র দল
রৌপ্য পদক - দ্বিতীয় স্থান 2009 Beijing ১০মিটার এয়ার পিস্তল
রৌপ্য পদক - দ্বিতীয় স্থান 2014 Fort Benning ১০মিটার এয়ার পিস্তল
কমনওয়েলথ গেমস
স্বর্ণ পদক - প্রথম স্থান ২০১০ দিল্লি ১০মিটার এয়ার পিস্তল জুটি
স্বর্ণ পদক - প্রথম স্থান ২০১৮ গোল্ডকোস্ট ২৫ মিটার পিস্তল
রৌপ্য পদক - দ্বিতীয় স্থান ২০১০ দিল্লি ১০মিটার এয়ার পিস্তল
রৌপ্য পদক - দ্বিতীয় স্থান ২০১৮ গোল্ডকোস্ট ১০মিটার এয়ার পিস্তল
এশিয়ান গেমস
রৌপ্য পদক - দ্বিতীয় স্থান ২০১০ কুয়াংচৌ ১০মিটার এয়ার পিস্তল দল
ব্রোঞ্জ পদক - তৃতীয় স্থান 2014 Incheon ২৫ মিটার পিস্তল দল
ব্রোঞ্জ পদক - তৃতীয় স্থান ২০১৮ জাকার্তা প্যালেমবং ১০মিটার এয়ার পিস্তল
কমনওয়েলথ চাম্পিয়নশিপ
স্বর্ণ পদক - প্রথম স্থান ২০১৭ ব্রিসবেন ১০মিটার এয়ার পিস্তল
এশিয়ান চাম্পিয়নশিপ
স্বর্ণ পদক - প্রথম স্থান ২০১৫ কুয়েত ১০মিটার এয়ার পিস্তল
ব্রোঞ্জ পদক - তৃতীয় স্থান ২০০৭ কুয়েত ১০মিটার এয়ার পিস্তল

হীনা সিধু (জন্ম: ২৯ আগস্ট, ১৯৮৯) একজন  ভারতীয় ক্রীড়া শ্যুটার। ৭ এপ্রিল ২০১৪, সালের সময়ানুসারে, সিধু  প্রথম ভারতীয় পিস্তল শ্যুটার   যিনি আন্তর্জাতিক শুটিং স্পোর্ট ফেডারেশন দ্বারা বিশ্বের  এক নম্বর  স্থানে পৌঁছান। [২] ২০১৩ সালে সিধু প্রথম ভারতীয় পিস্তল শ্যুটার হন যিনি আইএসএসএফ বিশ্বকাপের ফাইনালে  ১০ মিটার এয়ার পিস্তল ইভেন্টে একটি স্বর্ণ পদক জয় করেন। ২০১৪ সালে সিধু ১০ মিটার এয়ার পিস্তল ইভেন্টে ২০৩.৮ পয়েন্ট চূড়ান্ত স্কোর করে, বিশ্ব রেকর্ড ধারক ছিলেন।[৩] সিধু ডান হাতি ও ডান চোখ প্রভাবশালী গোল্ড কোস্ট ২০১৮ বিজয়ী।

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

২০১৩ সালে সিধু,  ব্যাচেলর অব ডেন্টাল সার্জারি পাশ করেন। সিধুর বাবা ছিলেন একজন জাতীয় ক্রীড়া শ্যুটার, তার ভাইও  ১০ মিটার এয়ার পিস্তল ইভেন্টে একজন শ্যুটার। সিধুর কাকা একজন বন্দুকপ্রস্তুতকারক এবং বন্দুক গ্রাহকীকরণ পেশাদার। ৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৩, সিধু  পিস্তল শ্যুটার রোনক পণ্ডিতের সংগে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। সিধু মুম্বাইয়ের গোরেগাওতে বসবাস করেন।[৪]

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

সিধু  ২০০৬ সালে, জাতীয় জুনিয়র ও সিনিয়র দলে অংশগ্রহণ করে শুটিং শুরু করেন। তিনি  পাতিয়ালা ক্লাবের একজন সদস্যা।

২০০৯ সালে সিধু বেইজিং এ অনুুুুষ্ঠিত আইএসএসএফ বিশ্বকাপে একটি রৌপ্য পদক লাভ করেন। [৫] তিনি কেরালায় জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপে নারীদের ১০ মিটার এয়ার পিস্তল ইভেন্টে প্রথম স্থান লাভ করেন।

২০১০ সালে চীনের কুয়াংচৌতে অন্নু রাজ সিং এবং সোনিয়া রাইয়ের সংগে সিধু, এশিয়ান গেমসে মহিলাদের ১০ মিটার এয়ার পিস্তল দলগত ইভেন্টে একটি রৌপ্য পদক জেতেন। ২০১০ সালে কমনওয়েলথ গেমসে  অন্নু রাজ সিং ৩৭৫ পয়েন্ট পেয়ে এবং সিধু ৩৮৪ পয়েন্ট পেয়ে, মহিলা জুটিতে সিধু এবং সিং  ১০ মিটার এয়ার পিস্তলে একটি স্বর্ণ পদক জেতেন।[৬]  ব্যক্তিগত  ইভেন্টে, সিধু একটি রৌপ্য পদক জেতেন।

 সিধু  লন্ডনে অনুষ্ঠিত ২০১২ গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিকে ভারতীয় দলের সদস্য ছিলেন।[৭] তিনি  নারীদের ১০ মিটার এয়ার পিস্তল ইভেন্টে  অংশ নেন এবং যোগ্যতা রাউন্ডে দ্বাদশ স্থানে শেষ করেন। সিধু লন্ডন ২০১২ অলিম্পিক গেমসের কাহিনী ভিত্তিক ''ফার্স্ট'' শিরোনামযুক্ত সরকারি লন্ডন ২০১২ অলিম্পিক গেমস ছায়াছবিটির অংশ ছিলেন। ক্যারোলিন রোনাল্ড দ্বারা লিখিত, উৎপাদিত এবং নির্দেশিত ছায়াছবিটি এক ডজন  অলিম্পিক প্রতিদ্বন্দ্বীদের নিয়ে তৈরি যারা  তাদের প্রথমবার অলিম্পিক প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে লন্ডনে  প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন।[৮][৯]

২০১৩ সালে সিধু জার্মানির  মিউনিখে আইএসএসএফ এর বিশ্বকাপ ফাইনালে স্বর্ণ পদক জেতেন। [১০] সিধু ২০৩.৮ পয়েন্ট পান, যা তাকে ওই ইভেন্টে ৫ পয়েন্ট এগিয়ে দেয় এবং তিনি বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন  সার্বিয়ার জোরানা আরুনোভিচ এবং পূর্ববর্তী বিজয়ী  ইউক্রেনের ওলেনা কোস্তেভিচকে পরাজিত করেন।[১১]

২০১৪ সালে ভারতীয় জাতীয় শ্যুটিং বিচারে রাহি সারনোবাতকে হারিয়ে  মহিলা এয়ার পিস্তল ইভেন্টে ০.১ পয়েন্টে সিধু জেতেন। [১২]

২০১৬ সালে সিধু  রিও দি জেনেরিওতে অনুষ্ঠিত  ২০১৬ গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিকে  নারীদের ১০ মিটার এয়ার পিস্তল এবং মহিলাদের ২৫ মিটার পিস্তল ইভেন্টে যোগ্যতায় উত্তীর্ণ হন। তিনি  মহিলাদের ১০ মিটার এয়ার পিস্তলে চতুর্দশ স্থানে এবং মহিলাদের ২৫ মিটার পিস্তল কোয়ালিফাইং চক্রে বিংশ স্থানে সমাপ্ত করেন।[১৩]

২০১৭ সালে সিধু  ব্রিসবেনে অনুষ্ঠিত কমনওয়েলথ শুটিং চ্যাম্পিয়নশিপে মহিলাদের ১০ মিটার এয়ার পিস্তল ইভেন্টে স্বর্ণ পদক জেতেন।[১৪]

২০১৬ সালে সিধু,  তেহরানে অনুষ্ঠিত এশিয়ান এয়ার গান চ্যাম্পিয়নশিপ থেকে বেরিয়ে আসেন কারণ ইরান কর্তৃক মহিলা অংশগ্রহণকারীদের হিজাব পরিধান বাধ্যতামূলক ছিল।[১৫][১৬]

২০১৮ কমনওয়েলথ গেমসে, সিধু মহিলাদের ১০ মিটার এয়ার পিস্তল ইভেন্টে একটি রৌপ্য পদক জেতেন এবং মহিলাদের ২৫ মিটার এয়ার পিস্তল ইভেন্টে ৩৮জন স্বর্ণ পদক বিজয়ীর কমনওয়েলথ গেমস রেকর্ড  ভেঙে তিনি স্বর্ণ পদক জেতেন।[১৭]

পুরস্কার[সম্পাদনা]

২৮ আগস্ট ২০১৪ সালে, সিধু অর্জুন পুরস্কার পান।[১৮]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Nandakumar Marar (২০১৪-০২-০৫)। "ISSF cover girl Heena Sidhu says performance matters"। The Hindu। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৪-১২ 
  2. "Shooter Heena Sidhu claims numero uno spot in 10 m air pistol Rankings"। Post.jagran.com। ২০১৪-০৪-০৭। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৪-১২ 
  3. Firstpost। "ISSF ratifies Heena Sidhu's world pistol record"। Firstpost। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৪-১২ 
  4. "Gold medal-winning shooter Heena Sidhu on her struggles, husband s support"mid-day (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৭-১০-২৯। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-০৪-১৮ 
  5. "With World Cup silver, Sidhu comes of age"। Indian Express। ২০০৯-০৪-২২। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৪-১২ 
  6. "Heena Sidhu, Anu Raj Singh bag gold in shooting"NDTV। ১২ অক্টোবর ২০১০। ১৫ অক্টোবর ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৩ অক্টোবর ২০১০ 
  7. "Results of 52nd National Shooting Championships in Kerala"। Indianshooting.com। ২০১৪-০৭-০১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৪-১২ 
  8. Rowland, Caroline (২০১৩-০৫-৩০), First, John Orozco, Heena Sidhu, David Rudisha, সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-০৩-১৬ 
  9. "London 2012: Caroline Rowland's 'First' to Chronicle 12 Competitors' Stories at the Olympics"। The Hollywood Reporter। ২০১২-০৭-১৩। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৪-১২ 
  10. "Heena Sidhu beats World Champion to clinch Gold in Shooting World Cup finals | India at Sports"। Indiaatsports.in। ২০১৩-১১-১১। ২০১৩-১১-১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৪-১২ 
  11. "Indian Shooter Heena Sidhu Will Appear On Cover Page of ISSF Journal"। Womenpla.net। ২০১৪-০১-০৩। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৪-১২ 
  12. "Heena Sidhu snatches victory"। The Hindu। ২০১৪-০১-২২। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৪-১২ 
  13. "Rio Olympics 2016: Heena Sidhu's campaign ends after failing to qualify for 25m air pistol final"। First Post। ৯ আগস্ট ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ১০ আগস্ট ২০১৬ 
  14. "Sidhu clinches gold, Deepak gets bronze at Commonwealth shooting"The HinduPress Trust of India (PTI)। ৩১ অক্টোবর ২০১৭। ১১ ডিসেম্বর ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১১ ডিসেম্বর ২০১৭ 
  15. Indian shooter Heena Sidhu refuses to wear ‘hijab’, pulls out of Asian shooting championship in Iran, India TV, 29 October 2016
  16. Joshua Arpit Nath: Indian Shooter Heena Sidhu Refuses To Wear A Hijab, Withdraws From Airgun Competition In Iran, The Times of India, 29 October 2016
  17. Express Web Desk (১০ এপ্রিল ২০১৮)। "CWG 2018: Heena Sidhu breaks Commonwealth Games record, wins 11th gold for India"The Indian Express। IE Online Media Services Pvt Ltd। সংগ্রহের তারিখ ১০ এপ্রিল ২০১৮ 
  18. "Heena Sidhu Profile, Stats, Record: Heena Sidhu breaks CWG record to clinch gold medal in Women's 25m Pistol in Gold Coast"The Indian Express। ১ এপ্রিল ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১৮ এপ্রিল ২০১৮