হঙ্গপন দাদা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

হঙ্গপন দাদা

Hangpan Dada.jpg
জন্ম(১৯৭৯-১০-০২)২ অক্টোবর ১৯৭৯
বোরদুরাই গ্রাম, তিরপ জেলা, অরুণাচল প্রদেশ, ভারত
মৃত্যু২৬ মে ২০১৬(2016-05-26) (বয়স ৩৬)
নওগাম, জম্মু ও কাশ্মীর, ভারত
আনুগত্য ভারত
সার্ভিস/শাখা ভারতীয় সেনাবাহিনী
কার্যকাল১৯৯৭–২০১৬
পদমর্যাদাIndian Army Havildar.gif হাবিলদার
সার্ভিস নম্বর13622536N
ইউনিটআসাম রেজিমেন্ট
পুরস্কারAshoka Chakra ribbon.svg অশোক চক্র

হাবিলদার হঙ্গপন দাদা, এসি (২ অক্টোবর ১৯৭৯ - ২৬ মে ২০১৬) ভারতীয় সেনাবাহিনীর আসাম রেজিমেন্টের একজন সৈনিক ছিলেন। তিনি মরণোত্তরভাবে ভারতের সর্বোচ্চ শান্তিকালীন বীরত্বের পুরস্কারঅশোক চক্র দ্বারা ভূষিত হয়েছিলেন। [১]

জীবনের প্রথমার্ধ[সম্পাদনা]

দাদা ২ অক্টোবর ১৯৭৯ সালে অরুণাচল প্রদেশের তিরপ জেলার বোরদুরাই গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। দাদা তাঁর শৈশবের বন্ধু সোমহাঙ্গ লাম্রাকে একটি নদীতে ডুবে যাওয়া থেকে বাঁচিয়েছিলেন। [২]

সামরিক সেবা[সম্পাদনা]

দাদা প্যারাশুট রেজিমেন্টের তৃতীয় ব্যাটালিয়নে যোগদান করেছিলেন ২৮ অক্টোবর ১৯৯৭ সালে। ২০০৫ সালে তাঁকে আসাম রেজিমেন্টাল সেন্টারে স্থানান্তর করা হয় এবং ২৪ শে জানুয়ারী ২০০৮ এ তিনি চতুর্থ ব্যাটালিয়ন আসাম রেজিমেন্টে যোগ দেন। [৩] এরপরে তিনি জম্মু ও কাশ্মীরের কুপওয়াড়া জেলা অভিযানের বিষয়ে রাষ্ট্রীয় রাইফেলস ব্যাটালিয়নে স্থানান্তর করার অনুরোধ করেছিলেন। তিনি ২০১৬ সালের মে মাসে ৩৫ রাষ্ট্রীয় রাইফেলস-এ পোস্টেড ছিলেন, যে ইউনিটে অভিযান চলাকালীন তিনি শহীদ হয়েছিলেন।

অশোক চক্র[সম্পাদনা]

হঙ্গপন দাদার স্ত্রী ২৬ জানুয়ারী ২০১৭ সালে রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়ের কাছ থেকে অশোক চক্র গ্রহণ করেছেন।

২৬ মে, ২০১৬ এর রাতে, দাদা, ৩৫ জাতীয় রাইফেলসের সাবু পোস্ট কমান্ডার হিসাবে, তাঁর বিভাগের সাথে ১২,৫০০ ফুট স্থানে একটি স্টপ স্থাপন করার সময়, জম্মু ও কাশ্মীরের নওগামের শামশাবরী রেঞ্জগুলিতে লুকিয়ে থাকা সন্ত্রাসীদের আড়াল থেকে বাহির করে আনতে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন, ফলস্বরূপ চারটি ভারী সশস্ত্র সন্ত্রাসীর নিরপেক্ষকরণ করা হয়েছিল। [৩] তিনি তাঁর দল সহ এই অঞ্চলে সন্ত্রাসীদের চলাচল লক্ষ্য করেছিলেন এবং ২৪ ঘণ্টারও বেশি সময় ধরে চলা এক ভয়াবহ লড়াইয়ে তাদের জড়িয়ে রেখেছিলেন। যে স্থানে সন্ত্রাসবাদী ছিল, সেখানে তিনি ঘটনাস্থলে দু'জন সন্ত্রাসীকে হত্যা করেছিলেন। পরে তৃতীয় একজন সন্ত্রাসীর সাথে হাতাহাতির সময়, তারা পাহাড়ের দিকে লাইন অফ কন্ট্রোলের সামনে নেমে যাওয়ার পরে, তিনি লুকিয়ে থাকা চতুর্থ সন্ত্রাসীর বন্দুকের গুলিতে দাদা আহত হলেন। তিনি চতুর্থ সন্ত্রাসীকে ধরে থাকলেন এবং পরে সন্ত্রাসীকে আহত করার পূর্বে প্রাপ্ত ক্ষতের জন্য তিনি শহীদ হন।

দাদা তাঁর ব্যক্তিগত সুরক্ষার প্রতি অবজ্ঞা করে, সন্ত্রাসী অপ্রবেশে ব্যর্থ করে তাঁর লোকদের সুরক্ষা নিশ্চিত করেছিল এবং দাদা কাছাকাছি লড়াইয়ে তিনটি সন্ত্রাসীকে নির্মূল এবং চতুর্থ একজনকে আহত করেছিলেন। তিনি সরকার দ্বারা ২০১৭ সালে প্রজাতন্ত্র দিবসে সর্বোচ্চ শান্তিকালীন বীরত্বের পুরষ্কাকার অশোক চক্র মরণোত্তর ভাবে সম্মানিত হয়েছিলেন।[১]

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

৩ ভাইয়ের মধ্যে দাদা সবচেয়ে ছোট ছিলেন। তাঁর বড় ভাইয়ের নাম লফঙ্গ দাদা এবং মেঝো ভাইয়ের নাম নোকরন দাদা। তিনি ২৮ অক্টোবর ২০০৫ এ চেসেন লোয়াঙ্গ দাদার সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। তাদের দুটি সন্তান আছে। ২০০৭ সালে রোয়ানখিন দাদা নামে একটি মেয়ে এবং ২০১০ সালে সেনওয়াঙ্গ দাদা নামে একটি পুত্রের জন্ম হয়। দাদা একজন সরল গির্জা ভ্রমণকারী ব্যক্তি হিসাবে পরিচিত ছিলেন। তিনি যখনই ছুটিতে বাড়িতে থাকতেন তখন তাঁর পরিবারের সাথে গির্জায় সময় কাটাতে পছন্দ করতেন। [৪]

স্মারক[সম্পাদনা]

তাঁর সেবার কথা মনে রাখার জন্য আসাম রেজিমেন্টাল সেন্টার (এআরসি) এর প্রধান কার্যালয়ের ব্লকের নামটি সদর দফতরে হাঙ্গপন দাদার নামে রেখেছিল, ফলকের উদ্বোধন করেছিলেন দাদার স্ত্রী। [৫] তৎকালীন অরুণাচল প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী পেমা খান্ডু মুখ্যমন্ত্রী ট্রফির বার্ষিক ফুটবল এবং ভলিবল (পুরুষ ও মহিলা) টুর্নামেন্টের নামকরণ করেছিলেন হাঙ্গপন দাদা মেমোরিয়াল ট্রফি। [৬]

উচ্চ সুবানসিরি জেলার দাপোরিজোর মধ্যে সুবানসিরি নদীর উপর কৌশলগত সেতুটি শহীদ হাঙ্গপন দাদার নামানুসারে নামকরণ করা হয়েছে। ২০২০ সালের ২০ এপ্রিল, অরুনাচল প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী, পেমা খান্ডু ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এই সেতুর উদ্বোধন করেন। [৭]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Havildar Hangpan Dada honoured with Ashok Chakra posthumously"The Indian Express। Press Trust of India। ১৪ আগস্ট ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ৩ সেপ্টেম্বর ২০১৬  উদ্ধৃতি ত্রুটি: <ref> ট্যাগ বৈধ নয়; আলাদা বিষয়বস্তুর সঙ্গে "Express PTI 2016" নামটি একাধিক বার সংজ্ঞায়িত করা হয়েছে
  2. "Tribute: Havildar Hangpan Dada receives Ashok Chakra posthumously, Indian Army's video tells a greater story"। india.com। ২৭ জানুয়ারি ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জানুয়ারি ২০১৭ 
  3. Arun Sharma (১৪ আগস্ট ২০১৬)। "Havildar Hangpan Dada awarded Ashok Chakra posthumously"The Indian Express। সংগ্রহের তারিখ ৪ সেপ্টেম্বর ২০১৬  উদ্ধৃতি ত্রুটি: <ref> ট্যাগ বৈধ নয়; আলাদা বিষয়বস্তুর সঙ্গে "Express Sharma 2016" নামটি একাধিক বার সংজ্ঞায়িত করা হয়েছে
  4. Manjeet Singh Negi। "Ashok Chakra 2016: How Havildar Hangpan Dada single-handedly took out 3 terrorists, made supreme sacrifice"India Today। সংগ্রহের তারিখ ৩ সেপ্টেম্বর ২০১৬ 
  5. "Office named after Hangpan Dada"। nagalandpost.com। ১৯ নভেম্বর ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জানুয়ারি ২০১৭ 
  6. "CM's Trophy renamed as Hangpan Dada Memorial Trophy"। arunachaltimes.in। ৩০ নভেম্বর ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জানুয়ারি ২০১৭ 
  7. Singh, Bikash (২০ এপ্রিল ২০২০)। "Arunachal CM inaugurates Hangpan Dada Bridge over River Subansiri through video conferencing"The Economic Times। সংগ্রহের তারিখ ২৪ এপ্রিল ২০২০