স্যান আন্দ্রেস, এল সালভাদোর

স্থানাঙ্ক: ১৩°৪৮′০২″ উত্তর ৮৯°২৩′২২″ পশ্চিম / ১৩.৮০০৫৬° উত্তর ৮৯.৩৮৯৪৪° পশ্চিম / 13.80056; -89.38944
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
স্যান আন্দ্রেস
San Andrés El Salvador 1.jpg
অবস্থানজাপোতিতান উপত্যকা, লা লিবার্তাদ ডিপার্টমেন্ট, এল সালভাদোর
স্থানাঙ্ক
স্থাপিতখ্রিস্ট-পূর্ব ৯০০-১৬৫৮
স্যান আন্দ্রেসের অ্যাক্রোপলিস স্থাপনায় প্রধান পিরামিড
স্যান আন্দ্রেসের লা ক্যাম্পানা পিরামিড (অবকাঠামো ৫)

স্যান আন্দ্রেস (স্পেনীয়: San Andrés) এল সালভাদরে অবস্থিত প্রাক-কলম্বীয় যুগের ঐতিহাসিক স্থানবিশেষ।[১] পূর্বে এ স্থানটি কাম্পানা স্যান আন্দ্রেস নামে পরিচিত ছিল। লা লিবার্তাদ ডিপার্টমেন্টের অধীন জাপোতিতান উপত্যকায় অবস্থিত কৃষিভিত্তিক শহর হিসেবে খ্রিস্ট-পূর্ব প্রায় ৯০০ সালে স্থাপনাটর নির্মাণকার্য শুরু হয়েছিল। তবে শুরুর দিকে প্রতিষ্ঠিত হওয়া স্থাপনাটি ২৫০ সালে পরিত্যক্ত ঘোষিত হয়। এর কারণ ছিল লাগো ইলোপাঙ্গোর আকস্মিকভাবে বিশাল গর্ত সৃষ্টি হওয়া। ৫ম শতাব্দীতে আবারও জাপোতিতান উপত্যকার অন্যান্য স্থানের সাথে এখানেও বসতি স্থাপন করা হয়েছিল। ৬০০ থেকে ৯০০ খ্রিস্টাব্দের মধ্যে মায়া সভ্যতায় স্যান আন্দ্রেসকে রাজধানী করা হয়। ভালে ডে জাপোতিতানের অন্যান্য স্থাপনাকে এখান থেকে মায়া সভ্যতার কর্তৃত্ব প্রকাশ করা হতো।

আবাসিক এলাকাকে সঠিকভাবে চিত্রিত করা হয়নি। স্যান আন্দ্রেসের অনুসন্ধানকারী ও খননকারীদের অভিমত, মূলতঃ রাজনৈতিক আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্নের জন্য এ জায়গাটিকে ব্যবহার করা হতো। এটিকে দক্ষিণ আসন ও উত্তর আসন এ দুইভাগে বিভক্ত করা হয়েছিল। তন্মধ্যে, দক্ষিণ থেকে রাজ্য পরিচালনা করা হতো। ৬০০ সালে দক্ষিণ আসনে পোড়া ইট দিয়ে অ্যাক্রোপোলিস অবকাঠামো নির্মাণ করা হয়। এখানেই আনুষ্ঠানিক কার্যাবলী ও রাজনৈতিক ব্যবস্থা পরিচালনা করা হতো। দক্ষিণের শেষদিকে ও পূর্বদিকের অ্যাক্রোপোলিসগুলো পিরামিড বা অবকাঠামো ১ (প্রধান পিরামিড), ২, ৩ ও ৪ নামে পরিচিত। উত্তরের শেষদিকে ও পশ্চিমে সারিবদ্ধভাবে কক্ষ রয়েছে যাতে শাসকেরা বসবাস করতেন। এগুলো স্যান আন্দ্রেসের সর্বশেষ প্রাসাদ ছিল। উত্তরদিকের আসন বা প্রধান আসন পিরামিড আকৃতির বা ‘লা কাম্পানা’ অবকাঠামো ৫ নামে পরিচিত। এটি ‘এল’ আকৃতির অবকাঠামো ৬-এর পিছনে একত্রিত অবস্থায় ছিল।

প্রত্নতাত্ত্বিক অনুসন্ধানে দেখা গেছে, কোপানগুয়াতেমালা উচ্চভূমির সাথে স্যান আন্দ্রেসের জোড়ালো সম্পর্ক বিরাজমান ছিল।[১] বর্তমান পেটেনবেলিজের ন্যায় দূরবর্তী অঞ্চল থেকেও মালামাল আদান-প্রদান করা হতো। ৯ম শতাব্দীতে স্যান আন্দ্রেজের রাজনৈতিক গুরুত্বতা কমে যায়। প্রাক-হিস্পানিক যুগের সর্বশেষ প্রামাণ্য দলিল হিসেবে ৯০০ থেকে ১২০০ সালের মধ্যে কর্মকাণ্ড পরিচালিত হয়েছে। আগুনে পোড়া ভাঙ্গা মাটির ফলক ও চিত্রিত সিরামিকের থালা-বাসনে মিক্সটেকা-পুবেলা ঘরানায় উৎসর্গের চিত্র রয়েছে। এগুলো ‘গুয়াজাপা’ নামীয় নতুন সাংস্কৃতিক যুগের কথা তুলে ধরে যা প্রাক-হিস্পানিক শহর চিহুয়াতানের সাথে সম্পর্কযুক্ত।

স্পেনের অধিগ্রহণের পর স্যান আন্দ্রেসের ধ্বংসাবশেষ ঔপনিবেশিক রাজ্য হিসেবে গবাদিপশু ও নীল উৎপাদনের সাথে জড়িয়ে পড়ে। ১৬৫৮ সালে এ স্থাটি প্লেয়ন আগ্নেয়গিরির অগ্নুৎপাতে ছাইয়ে পরিণত হয়। ১৯৯৬ সালে এল সালভাদর সরকার স্যান আন্দ্রেসের প্রত্নতাত্ত্বিক উদ্যানের উদ্বোধন করে। সেখানে আগত দর্শকেরা পিরামিড চড়তে পারেন, নীল উৎপাদন এলাকা ও জাদুঘর পরিদর্শন করতে পারেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Kelly 1996, p.300.

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

গ্রন্থপঞ্জী[সম্পাদনা]

{{#coordinates:}}: প্রতি পাতায় একাধিক প্রাথমিক ট্যাগ থাকতে পারবে না