রেহানেহ জব্বারি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
রেহানেহ জব্বারি
Reyhaneh Jabari
চিত্র:Reyhaneh Jabbari.jpg
২০০৮ সালে কোর্টে রেহানেহ জব্বারি
জন্ম
রেহানেহ জব্বারি মলয়েরি

(১৯৮৮-০৮-০৮)৮ আগস্ট ১৯৮৮
Iran
মৃত্যু২৫ অক্টোবর ২০১৪(2014-10-25) (বয়স ২৬)
মৃত্যুর কারণফাঁসিতে মৃত্যুদণ্ড
পেশাInterior decorator

রেহানেহ জব্বারি মলয়েরি (ফারসি: ریحانه جباری ملایری;) (জন্ম ১৯৮৮ – ২৫ অক্টোবর, ২০১৪) ছিলেন ইরানের একজন নারী যিনি মোর্তজা আবদোলালি সারবান্দিকে খুনের অভিযোগে অভিযুক্ত।[১] তিনি ২০০৭ সাল থেকে তার ফাঁসি কার্যকর হওয়া পর্যন্ত জেলে ছিলেন।[২] জেলখানায় কী ঘটেছে তার কাহিনী তিনি প্রকাশ করেছেন। তাঁর প্রথম আইনজীবী মোহাম্মদ মোস্তফা তার কাহিনীকে ব্লগে প্রকাশ করেছেন।[৩] ইরানের আইন অনুসারে, তার অপরাধ প্রমাণিত হওয়ায় এবং তার আত্মপক্ষ সমর্থন সত্য প্রমাণিত না হওয়ায়, ক্ষতিগ্রস্ত পরিবার ফাঁসি থামাতে পারত, তারা রাজি না হওয়ায় রেহানেহকে ফাঁসি দেয়া হয়।

অতীত ঘটনা[সম্পাদনা]

২০০৭ সালে, সারবান্দি ও জব্বারির সাক্ষাত ঘটে। একটি ক্যাফেতে সাক্ষাত করে সারবান্দি রেহানেহকে তার অফিসে ব্যবসায়িক প্রয়োজনে যেতে বলে। অফিসে থাকাকালীন সারবান্দি রেহানেহকে ধর্ষণের চেষ্টা করে। জব্বারি পকেট থেকে ছুরি বের করে সারবান্দিকে আঘাত করে।রেহানেহ সেখান থেকে পালিয়ে গেলে সারবান্দি রক্তক্ষরণে মারা যায়।[৪]

গ্রেপ্তার ও বিচার[সম্পাদনা]

গ্রেপ্তারের পর তাকে দুই মাস নির্জনে বন্দি করে রাখা হয়। শুধু উকিলের সাথে দেখা করতে দেয়।[৫] ২০০৯ সালে তেহরানের আদালত তাকে ফাঁসির আদেশ দেয়। অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের মতে, জব্বারি সারবান্দিকে আঘাতের কথা স্বীকার করেছেন, কিন্তু দাবি করেছেন বাসার অন্য কেউ তাকে হত্যা করে।[৫]

অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল,[৬] জাতিসংঘ, ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন, এবং গেটেস্টন ইন্সটিটিউট তার জীবন বাঁচানোর জন্য লবিং করে। সারা বিশ্বে প্রচারণা ও ২০,০০০ স্বাক্ষর সংগ্রহ করে তার ফাঁসি থামানোর জন্যে এপ্রিল ২০১৪ থেকে তার শাস্তি স্থগিত ছিলো[৪] ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৪ ঘোষণা করা হয় যে তার ফাঁসি অনিবার্য।[৭]

মৃত্যু[সম্পাদনা]

রেহানেহ জব্বারিকে ২৫ অক্টোবর, ২০১৪ তে কারাজের উত্তরে গোহারদস্ত জেলে ফাঁসি দিয়ে হত্যা করা হয়।[৫][৮][৯] পরে প্রকাশ পায় যে তিনি তার মৃত্যুর পূর্বে তার অঙ্গপ্রত্যঙ্গ দান করে গেছেন।[১০]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Iran hangs woman despite international uproar"Al Jazeera 
  2. Taher। "Iran news update"Iran news update 
  3. "محمد مصطفایی"। ৩১ অক্টোবর ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ অক্টোবর ২০১৪ 
  4. "Iranian woman hanged for killing 'man who tried to rape her' after a final reunion with her mother in prison"Daily Mail 
  5. "Iran hangs Reyhaneh Jabbari despite campaign"BBC News 
  6. "Stop Reihaneh Jabbari Execution" 
  7. "HRANA News Agency: 2 women are scheduled to be executed tomorrow morning"Hrana - News Agancy 
  8. "ریحانه جباری اعدام شد"BBC News 
  9. Al Jazeera। "Amnesty: Iran set to hang woman at dawn" 
  10. Daniel Politi। "Hanged Iranian Woman Leaves Heartbreaking Last Message"। Slate।