রাজবাড়ি মসজিদ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
রাজবাড়ি মসজিদ
অবস্থান চারান, কালিহাতি
শাখা/ঐতিহ্য সুন্নি
স্থাপত্য তথ্য
ধরণ মুঘল স্থাপত্য
গম্বুজ

ঢাকার অদূরে টাঙ্গাইল জেলার কালিহাতি উপজেলায় রয়েছে ঐতিহ্যবাহী প্রায় ৪শ' বছরের পুরনো দৃষ্টিনন্দন মসজিদ।[১] প্রাচীনতম ও ঐতিহ্য হিসেবে এটি টাঙ্গাইলের যে গর্ব তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

এ মসজিদটি কত সালে নির্মাণ করা হয়েছিল তার সঠিক কোনো তথ্য মেলেনি। এলাকার প্রবীণরাও তাদের পূর্বপুরুষের কাছে এটি নির্মাণের সঠিক তথ্য জানতে পারেননি। চারান গ্রামে আঠারো শতকের শেষের দিকে ইসলাম ধর্ম রক্ষার্থে শত্রুদের মোকাবিলা করতে প্রচুর মুসল্লিদের সমাগম হয়। সে সময় 'রাহাতুন্নিসা চোধুরাণী' ছিলেন ওই এলাকার জমিদার।

অবস্থান[সম্পাদনা]

কালিহাতী - বল্লা সড়কের দক্ষিণে ঐতিহাসিক চারান বিলের উত্তরে এ মসজিদ অবস্থিত।

স্থাপত্যশৈলী[সম্পাদনা]

এক গম্বুজ বিশিষ্ট মসজিদটির কারুকার্য খুবই নিপুণ। মূল স্থাপনাটি তৈরি করা হয়েছে চারটি খুঁটির ওপর এবং এতে লাগানো হয়েছে চুন-সুরকি। প্রতিটি দেয়ালের পুরুত্ব প্রায় তিন হাত। মসজিদটির দৈর্ঘ্য প্রায় ১২ হাত এবং প্রস্থ প্রায় সাড়ে ১০ হাত। এর মেঝে মার্বেল পাথর দ্বারা আবৃত। অনেক লতাপাতা খচিত কারুকার্য রয়েছে খিলানের ওপরের দেয়ালে।

সংস্কার কাজ[সম্পাদনা]

১৯৯০ সালে মসজিদটি সংস্কার করে্ন 'স্যার আবদুল করীম গজনবী'। তখন তিনি মসজিদটির মেঝে আবৃত করে দেন পাথর দিয়ে এবং উত্তরের দরজা বন্ধ করে দেয়া হয় এর পাশাপাশি ইমাম সাহেবের জন্য একটি কক্ষও বানানো হয়। ২০০৫সালে এর সর্বশেষ সংস্কার কাজ করা হয়।

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "৪শ' বছরের পুরনো মসজিদ"বাংলাদেশ জাতীয় তথ্য বাতায়ন [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]