মিজানুর রহমান সিনহা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
মিজানুর রহমান সিনহা
স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী
কাজের মেয়াদ
২২ মে ২০০৩ – ২৯ অক্টোবর ২০০৬
প্রধানমন্ত্রীখালেদা জিয়া
মুন্সীগঞ্জ-২ আসন আসনের
সংসদ সদস্য
কাজের মেয়াদ
১২ জুন ১৯৯৬ – ২৯ অক্টোবর ২০০৬
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্ম (1943-08-18) ১৮ আগস্ট ১৯৪৩ (বয়স ৭৯)
লৌহজং, মুন্সীগঞ্জ
রাজনৈতিক দলবাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল
(২২ জানুয়ারি ২০২০ পর্যন্ত)
পেশাব্যবসা, রাজনীতি

মিজানুর রহমান সিনহা একজন বাংলাদেশি শিল্পপতি, রাজনীতিবিদ ও সাবেক প্রতিমন্ত্রী। তিনি মুন্সীগঞ্জ-২ আসন থেকে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দলের (বিএনপি) মনোনয়নে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন এবং ২০০৩ সাল থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত খালেদা জিয়ার দ্বিতীয় মন্ত্রিসভায় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেন। বর্তমানে তিনি বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির কোষাধ্যক্ষ হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

মিজানুর রহমান সিনহা ১৯৪৩ সালের ১৮ আগস্ট মুন্সীগঞ্জ জেলার লৌহজং উপজেলার কলমা ইউনিয়ের ডহুরী গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন।[১][২][৩] তার পিতার নাম হামিদুর রহমান সিনহা ও মাতার নাম নূরজাহান সিনহা।[৪] হামিদুর রহমান বাংলাদেশের ঔষধ ব্যবসায়ের অন্যতম পথিকৃৎ ও শিল্পগোষ্ঠী একমি গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা।[২] সিনহা শৈশবে কলকাতায় বেড়ে উঠেন। পরবর্তীতে নারায়ণগঞ্জের সরকারি তোলারাম কলেজে উচ্চ মাধ্যমিক সম্পন্ন করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ব্যবসায় স্নাতক সম্পন্ন করেন।[৫]

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

১৯৬৪ সালে সিনহা হাবিব ব্যাংকে চাকুরীর মাধ্যমে তার কর্মজীবন শুরু করেন।[৫] তার পিতার মৃত্যুর পর ১৯৭৫ সালে তিনি পিতার প্রতিষ্ঠিত একমি গ্রুপে যোগদান করেন। ১৯৮৩ সাল থেকে তিনি গ্রুপটির ব্যবস্থাপনা পরিচালকের দায়িত্ব পালন করছেন।

রাজনৈতিক জীবন[সম্পাদনা]

সিনহা ছাত্রীজীবনে রাজনীতির সাথে যুক্ত হন। সরকারি তোলারাম কলেজে অধ্যয়নকালে তিনি ছাত্র ইউনিয়নের প্রার্থী হিসেবে ছাত্র সংসদ নির্বাচনে সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন।[২] ১৯৯০ সালের মিজানুর রহমান সিনহা বিএনপিতে যোগদান করেন।[২] পরবর্তীতে তিনি দলটির কেন্দ্রীয় কমিটির কোষাধ্যক্ষ হিসেবে ২২ জানুয়ারি ২০২০ পর্যন্ত দায়িত্ব পালন করেন।[৬]

সিনহা মুন্সীগঞ্জ-২ আসন থেকে বিএনপির মনোনয়নে ১৯৯৬ সালে সপ্তম২০০১ সালে অষ্টম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিয়ে যথাক্রমে ৫৮,৪৫৫ ও ৮৩,৬২৩ ভোট লাভ করে আওয়ামী লীগের প্রার্থী নূরুল ইসলাম খান বাদল ও সাগুফতা ইয়াসমিন এমিলিকে পরাজিত করে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।[৭][৮][৯][১০][১১] ২০০৮ সালের নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি একই আসনে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করে এমিলির কাছে পরাজিত হন। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি পুনরায় একই আসনে বিএনপির মনোনয়ন লাভ করেন।[১০][১১]

২০০১ সালের নির্বাচনে বিএনপি সরকার গঠন করলে ২২ মে ২০০৩ সালে তিনি স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব পান এবং ২০০৬ সাল পর্যন্ত এ দায়িত্ব পালন করেন।

তিনি ২২ জানুয়ারি ২০২০ সালে ব্যবসায়িক ব্যস্ততা দেখিয়ে বিএনপির সব পদ ও দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি নেন।[৬]

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

মিজানুর রহমান সিনহা ব্যক্তিগত জীবনে জাহানারা সিনহা তাজের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। এই দম্পতির তাসনিম সিনহা স্নিগ্ধা নামে এক কন্যা ও তানভীর সিনহা সুপ্রিয় নামে এক ছেলে রয়েছে।[২] তার পিতামহ আনসার উদ্দিন সিনহা ছিলেন একজন ধনাঢ্য ব্যবসায়ী ও রাজনীতিবিদ যিনি চিত্তরঞ্জন দাশের সাথে স্বরাজ্য পার্টির রাজনীতি করতেন।[২]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "মিজানুর রহমান সিনহার হলফ নামা" (PDF)নির্বাচন কমিশন। ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  2. "'বিএনপির নির্বাচনে অংশগ্রহণ মূলত খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য'"চ্যানেল আই। সংগ্রহের তারিখ ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  3. "প্রখ্যাত ব্যক্তিত্ব-কলমা ইউনিয়ন"সরকারি তথ্য বাতায়ন (ইংরেজি ভাষায়)। ১১ ডিসেম্বর ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  4. "হলফনামা-মিজানুর রহমান সিনহা"নির্বাচন কমিশন। ২৫ ডিসেম্বর ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  5. "প্রধান ব্যক্তি ও পরিচালকবৃন্দ, একমি গ্রুপ"একমি গ্রুপ। সংগ্রহের তারিখ ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  6. "বিএনপি ছাড়লেন মিজানুর রহমান সিনহা | বাংলাদেশ প্রতিদিন"Bangladesh Pratidin (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০২-০৩ 
  7. "সংসদ নির্বাচন: দেখে নিন প্রার্থী এবং পূর্ববর্তী ফলাফল"বিবিসি বাংলা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  8. "৭ম জাতীয় সংসদে নির্বাচিত মাননীয় সংসদ-সদস্যদের নামের তালিকা" (PDF)জাতীয় সংসদবাংলাদেশ সরকার। ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৫ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। 
  9. "৮ম জাতীয় সংসদে নির্বাচিত মাননীয় সংসদ-সদস্যদের নামের তালিকা" (PDF)জাতীয় সংসদবাংলাদেশ সরকার। ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। 
  10. "মিজানুর রহমান সিনহা"প্রথম আলো। সংগ্রহের তারিখ ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  11. "একাদশ সংসদ নির্বাচন"সমকাল। ১৩ জুলাই ২০১৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮