মার্ক ডেভিস (সাংবাদিক)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
মার্ক ডেভিস
পেশাএসবিএস টিভিতে ডেটলাইনের অনুসন্ধানী সাংবাদিক
ওয়েবসাইটhttp://www.sbs.com.au/dateline/reporter/about/id/9/n/Mark%20Davis

মার্ক ডেভিস একজন অস্ট্রেলীয় অনুসন্ধানী সাংবাদিক , এসবিএস টিভিতে ডেটলাইনে তাঁর কাজের জন্য সর্বাধিক পরিচিত, যেখানে তিনি বর্তমানে অনুষ্ঠানটির সহ-উপস্থাপক এবং ভিডিও সাংবাদিক হিসেবে কাজ করছেন।

ডেভিস ওয়ারান্ডিট প্রাথমিক বিদ্যালয় এবং তারপর মেলবোর্নের সেন্ট কেভিন কলেজে শিক্ষা লাভ করেছেন ।

ক্যারিয়ার[সম্পাদনা]

এবিসি টিভি[সম্পাদনা]

এসবিএসে- ডেভিসের ক্যারিয়ার শুরু করার পূর্বে , এবিসি টিভির বৈদেশিক রিপোর্টার এবং ফোর কর্ণার প্রোগ্রামের একজন অনুসন্ধানী সাংবাদিক হিসেবে তার ভূমিকা ছিল।

উত্তর কোরিয়ার বিদেশী সংবাদদাতা হিসেবে কাজ করে ডেভিস উত্তর কোরিয়ার দুর্ভিক্ষ নিয়ে তার প্রতিবেদনের জন্য ১৯৯৮ সালে ওয়াকলি পুরস্কার লাভ করেন এবং একই বছরে একটি চলমান সংবাদ দ্যা লায়ন অফ দ্যা পানশি-এর কাভারেজের জন্য নিউ ইয়র্ক উৎসব পুরস্কার লাভ করেন।[১] ফোর কর্নারে থাকাকালীন ডেভিস ১৯৯৮ সালে দ্য সারভাইভাল স্টোরি জন্য পিটার ম্যাকইভয়ের সাথে সেরা আন্তর্জাতিক প্রতিবেদনের জন্য ওয়াকলি পুরস্কার এবং ১৯৯৯ সালে শ্রেষ্ঠ টিভি কারেন্ট অ্যাফেয়ার্স রিপোর্টের জন্য ওয়াকলি পুরস্কার লাভ করেন, যার নাম ছিল ব্লাড অন দ্য ক্রস[২]

এসবিএস টিভি[সম্পাদনা]

ডেভিস প্রথম ২০০৩ থেকে ২০০৪ পর্যন্ত ডেটলাইনের উপস্থাপক হন, এসময় তিনি জানা ওয়েন্ডট এবং পূর্ববর্তী জর্জ নেগাসের স্থলাভিষিক্ত হন। ডেভিস কাজের জন্য অনুষ্ঠানটি থেকে দূরে চলে যান এবং ২০১১ সালে ভিডিও সাংবাদিক এবং ইয়ালদা হাকিমের সহ-উপস্থাপক হিসেবে অনুষ্ঠানে ফিরে আসেন। ডেভিস এবং হাকিম উভয়েই প্রায় ছয় সপ্তাহের ব্লকে প্রোগ্রাম উপস্থাপনের জন্য সিদ্ধান্ত নেয়, অন্যদিকে অন্যরা এসময় কাজে ব্যস্ত ছিল।[৩]

২০০৭ সালে ডেভিস বেনজির ভুট্টোর পাকিস্তানে ফিরে আসার শুভেচ্ছা জানিয়ে করা বোমা হামলা থেকে মাত্র কয়েক মিটার দূরে ছিলেন এবং ২০০৯ সালে মাদাগাস্কারের অভ্যুত্থানের সময় তিনি এই কর্মকাণ্ডের ঘনিস্তার মধ্যে ছিলেন। তিনি অস্ট্রেলিয়ার গুয়ানতানামো বে-তে বন্দী ডেভিড হিকসের বিচার নিয়ে রিপোর্ট করার জন্য প্রশংসা অর্জন করেছেন। তার আগের সাক্ষাৎকারে মালয়েশিয়ার সাবেক প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ এবং পাকিস্তানের সাবেক রাষ্ট্রপতি পারভেজ মুশাররফও রয়েছেন।[৪]

ডেভিস ২০১১ সালে ইন্দোনেশিয়ার কেরোবোকান মৃত্যু-সারির কারাগারে বালি নাইনেরর সদস্য অ্যান্ড্রু চ্যান এবং মায়ুরান সুকুমারনের ঘনিষ্ঠ চরিত্রে অভিনয়ের জন্য ২০১১ সালের লজিস পুরস্কারে সবচেয়ে অসাধারণ পাবলিক অ্যাফেয়ার্স বিভাগের জন্য মনোনীত হন।[৫]


ডেভিস একটি লজি এবং পাঁচটি ওয়াকলি পুরস্কার জিতেছেন। যার মধ্যে ২০০০ সালে গোল্ড ওয়াকলি পুরস্কার রয়েছে, পূর্ব তিমুরে ইন্দোনেশিয়াপন্থী মিলিশিয়াদের উপর ব্লাড মানি নামক একটি ডেটলাইন প্রতিবেদনের জন্য তিনি পুরস্কারটি লাভ করেন।[৪][৬]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Awards (1984–2011)"Foreign Correspondent (1998)। Australian Broadcasting Corporation। ২০১১। সংগ্রহের তারিখ ১৭ জুন ২০১১ 
  2. "Awards (1962–2002)"40 Years of Four CornersAustralian Broadcasting Corporation। ২০০২। সংগ্রহের তারিখ ১৭ জুন ২০১১ 
  3. "Davis and Hakim to front Dateline"The Spy Report। Media Spy। ২০ অক্টোবর ২০১০। ২৩ অক্টোবর ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০ অক্টোবর ২০১০ 
  4. "Mark Davis profile"DatelineSpecial Broadcasting Service। ২০১১। ১৩ মে ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ জুন ২০১১ 
  5. "Dateline honoured in Logie nominations"News। SBS TV। ৪ এপ্রিল ২০১১। ৬ এপ্রিল ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ জুন ২০১১ 
  6. "Mark Davis wins gold Walkley"Australian Associated Press। ১৭ জুলাই ২০০০। সংগ্রহের তারিখ ১৭ জুন ২০১১ [অকার্যকর সংযোগ]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]