ব্যবহারকারী:Antor Habib/খেলাঘর

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ক্রিস্টাল প্যালেস এফ.সি.
ক্রিস্টাল প্যালেস ফুটবল ক্লাবের লোগো.svg
পূর্ণ নামক্রিস্টাল প্যালেস ফুটবল ক্লাব
ডাকনামইগল'স
সংক্ষিপ্ত নামসি.পি.এফ.সি.
প্রতিষ্ঠিত১০ সেপ্টেম্বর ১৯০৫; ১১৪ বছর আগে (1905-09-10)
মাঠসেলহার্স্ট পার্ক
ধারণক্ষমতা২৬,২৫৫ [১]
মালিকজেরমি হসকিং (25%)
মারটিন লং (25%)
স্টিভ প্যারিস (25%)
স্টিফেন ব্রওয়েট (25%)
ম্যানেজারঅ্যালান পারডিও
লীগপ্রিমিয়ার লীগ
২০১৪–১৫প্রিমিয়ার লীগ, ১০ম
ওয়েবসাইটক্লাব ওয়েবসাইট

ক্রিস্টাল প্যালেস ফুটবল ক্লাব একটি প্রফেশনাল ইংলিশ ফুটবল ক্লাব। এটি দক্ষিণ নরউড,লন্ডন ভিত্তিক ক্লাব। অনেক বছর থেকে এরা ইংল্যান্ড এর প্রথম সারির লীগে খেলে আসছে। ২০১৩-১৪ মৌসুম থেকে নিয়মিত প্রিমিয়ার লীগ খেলে। ১৯৭৬ এর পূর্ব পর্যন্ত এরা "দ্য গ্লেজিয়ার্স" নামে পরিচিত ছিল। বর্তমানে এদের "ইগল'স" নামে ডাকা হয়। ১৯০৫ সালের ১০ সেপ্টেম্বর ক্লাবটি প্রতিষ্ঠা পায়। ২০০৫ সালে তারা জন্মশত বার্ষিকী পালন করে। ক্রিস্টাল প্যালেস এর হোম গ্রাউন্ড সেলহার্স্ট পার্ক। বর্তমান সময়ে ক্রিস্টাল প্যালেস গ্ল্যাড অল ওভার গানটিকে তাদের জাতীয় সঙ্গীত হিসেবে ব্যবহার করছে।

প্রতিষ্ঠা ও ইতিহাস[সম্পাদনা]

১৮৬১ সালে ক্রিস্টাল প্যালেস নামে একটি নবীন ফুটবল দল প্রতিষ্ঠিত হয়। কিন্তু বর্তমান ক্রিস্টাল প্যালেস ফুটবল ক্লাব এর যাত্রা ১৯০৫ সালের ১০ সেপ্টেম্বর "দ্যা গ্লেজিয়ার্স" নামে। এর তত্ত্বাবধানে ছিলেন অ্যাস্টন ভিলা এর সহকারি সেক্রেটারি এডমুন্ড গুডম্যান। .[২] প্রতিষ্ঠার পর তারা ফুটবল লীগে অংশগ্রহণের আবেদন করে। ঠিক একই সময়ে চেলসিসাউথ হ্যাম্পটন ও আবেদন করে। অন্য দুটি দলের আবেদন মঞ্জুর হলেও তাদের আবেদন নাকচ করা হয়। তাই তারা দ্বিতীয় বিভাগের লীগ দক্ষিণ লীগে অংশ নেয়। ১ম বারেই তারা চ্যাম্পিয়ন হয়। ফলস্বরূপ তারা দক্ষিণের প্রথম বিভাগে খেলার সুজগ পায়। [২] ১৫ বছর তারা দাপটের সাথে খেলে যায়। এর মধ্যে তিনবার ১৯১৩,১৯১৪,১৯২১ সালে "লন্ডন চ্যালেঞ্জ কাপ" অর্জন করে।[২][৩] এর পর ইংল্যান্ড এর ফুটবল এর গঠন পরিবর্তনের কারনে দক্ষিণের প্রথম বিভাগ ইংল্যান্ড এর ৩য় বিভাগের লীগ হয়। ক্রিস্টাল প্যালেস সেই ১৯২০-১৯২১ মৌসুমে চ্যাম্পিয়ন হয় ও ২য় বিভাগে খেলার সুযোগ পায়। চার মৌসুম খেলার পর ৩য় বিভাগে অবনমিত হয়। ক্লাব এর প্রশাসনে পরিবরতন হয়। ১৯৬২ সালে তারা রিয়াল মাদ্রিদ এর সাথে নিজ মাঠে একটি ফ্রেন্ডলি ম্যাচ খেলে। অবশেষে ১১ বছর পর ১৯৬৫ সালে ১ম বিভাগে খেলার সুযোগ পায়।

১৯৭৩ সালে পূর্বের "দ্য গ্লেজিয়ার্স" নাম বাদ দিয়ে "দ্যা ঈগল'স" নাম ধারন করে, পূর্বের জার্সি বাদ দিয়ে লাল নীল ডোরা কাটা জার্সি পরিধান করা শুরু করে। এটাই ক্রিস্টাল প্যালেসের বর্তমান জার্সি।

১৯৭৭ ও ১৯৭৯ এ দু বার ২য় বিভাগে চ্যাম্পিয়ন হয়। ১৯৯০ এ এফ এ কাপ ফাইনাল খেলে।[৪] ১৯৯২ এ প্রিমিয়ার লীগ খেলার সুযোগ পায়। কিন্তু সেই ১৯৯১-৯২ মৌসুমেই তারা অবনমিত হয়। যদিও ক্রিস্টাল প্যালেসের পয়েন্ট ছিল ৪৯। যা এখনও প্রিমিয়ার লীগ থেকে অবনমিত কোন দলের অর্জিত সর্বচ্চ পয়েন্ট। এঁর পর ১৯৯৪,১৯৯৭,২০০৪ সালে তারা প্রিমিয়ার লীগ খেলার সুযোগ পায়। কিন্তু প্রত্যেক বারই তারা অবনমিত হয়। ২০১০ এ চার জন ধনী সমর্থক ক্লাব এঁর মালিকানা কিনে নেয়। ২০১৩ সালে ফুটবল লীগ প্লে অফ এ ওয়ালফোড এর বিপক্ষে ১-০ তে জিতে প্রিমিয়ার লীগ খেলার সুযোগ পায়। এখনও যা বর্তমান আছে। ২০১৪-১৫ মৌসুমে প্রিমিয়ার লীগ এ তারা ১০ম স্থান লাভ করে।

স্টেডিয়াম[সম্পাদনা]

১৯০৫ সালে ক্রিস্টাল প্যালেস কোম্পানি এফ.এ.কাপ ফাইনাল এর ভেনু হিসেবে একটা স্টেডিয়াম তৈরি করে। কোম্পানি চাচ্ছিল তাদের নিজস্ব একটা দল থাকুক যারা স্টেডিয়াম টা ব্যবহার করবে। এই প্রয়োজনের তাগিদেই ক্রিস্টাল প্যালেস এফ.সি. নামের নতুন দলটির প্রতিষ্ঠা।[৫] প্রথম বিশ্ব-যুদ্ধের সময় মিলিটারি দের ব্যবহার করার জন্য স্টেডিয়াম দখল করে নেয়। ১৯১৫ সালে সামরিক আইন দ্বারা ক্রিস্টাল প্যালেসকে বাধ্য করা হয় স্টেডিয়াম ছেড়ে যেতে। ক্রিস্টাল প্যালেস হারনি হিল ভেল্ড্রম এ তাদের অস্থায়ী আস্তানা নেয়। ১৯১৭ সালে "দ্যা নেস্ট" স্টেডিয়াম এ আস্তানা নেয়।[৬] ১৯১৯ সালে তারা তাদের বর্তমান স্টেডিয়াম [[[সেলহার্স্ট পার্ক]] এর জন্য জমি কেনা শুরু করে।[৭]

নতুন স্টেডিয়াম এর ডিজাইন ও পরিকল্পনা করার জন্য আর্কিটেক্ট আর্চিবাল্ড লেইচ কে নিয়োগ দেয়া হয়। ১৯২৪-১৯২৫ মৌসুমে স্টেডিয়াম তৈরির কাজ শেষ হয়[৭]। ১৯৬৯ সালে স্টেডিয়ামের কিছু সংস্কার করা হয়। তার মধ্যে আরথার স্ট্যান্ড নির্মাণ অন্যতম। ১৯৮০ এ হোয়াইট হর্স লেন সংস্কার করে ক্লাব অফিস, সেইন্স বুরি সুপার মার্কেট, ক্লাব শপ নির্মাণ করা হয়। ১৯৭৯ সালে ৫১,৪৮২ জন দর্শকের উপস্থিতি রেকর্ড সর্বচ্চ[৮]। টেইলর এর নিরাপত্তা সংক্রান্ত রিপোর্ট ও সকল সংস্কার এর পর বর্তমান ধারন ক্ষমতা ২৬,৩০৯ জন[৯]। ২০১০ সালে প্রস্তাব করা হয় ক্রিস্টাল প্যালেস ন্যাশনাল স্টেডিয়াম এ ফিরে যাওয়ার কিন্তু তারা থেকে যায়[১০]প্রিমিয়ার লীগ এ উন্নীত হওয়ার পর তারা দর্শক ক্ষমতা বাড়িয়ে ৪০,০০০ করার জন্য পদক্ষেপ নিয়েছে।[৯][১১]

See caption
সেলহার্স্ট পার্ক স্টেডিয়াম

অর্জন[সম্পাদনা]

লীগ[সম্পাদনা]

কাপ[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Premier League Handbook Season 2013/14" (PDF)Premier League। সংগ্রহের তারিখ ১৭ আগস্ট ২০১৩ 
  2. History, CPFC, সংগ্রহের তারিখ ১৪ অক্টোবর ২০১৩ 
  3. King, pp. 15–19
  4. King, pp. 19–20, 32–7
  5. King, p. 62
  6. King, p. 64
  7. Matthews pp. 30, 33–5
  8. King p. 67–71
  9. Johnson, Simon (২৯ মে ২০১৩)। "Crystal Palace: Selhurst Park set for a 40,000 makeover"Evening Standard। ২৭ জুন ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ জুন ২০১৩ 
  10. "Crystal Palace unveil plans for National Sports Centre"BBC News। ২০ জানুয়ারি ২০১১। ২৭ জুন ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ জুন ২০১৩ 
  11. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; BBCLUX নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি


উদ্ধৃতি ত্রুটি: "upper-alpha" নামক গ্রুপের জন্য <ref> ট্যাগ রয়েছে, কিন্তু এর জন্য কোন সঙ্গতিপূর্ণ <references group="upper-alpha"/> ট্যাগ পাওয়া যায়নি, বা বন্ধকরণ </ref> দেয়া হয়নি