বিকাশ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
বিকাশ লিমিটেড
লিমিটেড কোম্পানি
সদরদপ্তরস্বাধীনতা টাওয়ার, ১, বীর শ্রেষ্ঠ শহীদ জাহাঙ্গীর গেট ৫৪৬, ঢাকা ক্যান্টনমেন্ট, ঢাকা ১২০৬, বাংলাদেশ
প্রধান ব্যক্তি
কামাল কাদির, প্রধান নির্বাহী
ওয়েবসাইটhttp://www.bkash.com

বিকাশ (bKash) বাংলাদেশে মোবাইল ফোন ভিত্তিক অর্থ আদান প্রদানের একটি পরিষেবা। মোবাইল ফোনে বিকাশ একাউন্ট খুলে একজন গ্রাহক বাংলাদেশের যেকোনো স্থান থেকে তার মোবাইলে অর্থ জমা, উত্তোলন এবং নিজের মোবাইল থেকেই বিভিন্ন ক্ষেত্রে অর্থ স্থানান্তর করতে পারেন।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

আর্থিক সেবা দেশের প্রান্তিক জনগণের আওতার মধ্যে নিয়ে আসার লক্ষ্যে বিকাশ নিয়ে গবেষণামূলক প্রাথমিক কাজ শুরু হয় ২০০৭ সালে।

রবি আজিয়াটা লিমিটেড, বাংলাদেশকে মোবাইল নেটওয়ার্ক অপারেটর সহযোগী হিসেবে নিয়ে বিকাশ আনুষ্ঠানিকভাবে মোবাইল ফিনান্সিয়াল সার্ভিস প্রদানের কার্যক্রম শুরু করে ২০১১ এর ২১ এ জুলাই। [১]

'বিকাশ' ব্র্যাক ব্যাংক লিমিটেড, বাংলাদেশ এবং মানি ইন মোশন, ইউএসএ এর একটি যৌথ উদ্যোগ হিসেবে যাত্রা শুরু করে, এবং পরবর্তিতে ২০১৩ এর এপ্রিল মাসে ওয়ার্ল্ড ব্যাংক গ্রুপের ইন্টারন্যাশনাল ফিন্যান্স কর্পোরেশন (আইএফসি) ও 'বিকাশ' এর অন্যতম অংশীদার হয়।[২]

ধারণা[সম্পাদনা]

বাংলাদেশে বিপুল সংখ্যক মোবাইল ফোন ব্যবহারকারী রয়েছে।[৩] ব্যাংকিং সেবা দেশের বেশিরভাগ মানুষের কাছে পৌঁছানোর জন্যে দেশব্যাপী বিস্তৃত মোবাইল নেটওয়ার্ক একটি দ্রুত ও দক্ষ মাধ্যম হিসেবে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারে।[৪] এমন ধারণা থেকেই বাংলাদেশে বিকাশ সার্ভিসের উৎপত্তি।[৫]

অন্যান্য উন্নয়নশীল দেশের মতই বাংলাদেশেও মানুষ গ্রামে পরিবারের ভরণপোষণের লক্ষ্যে কাজের জন্যে শহরমুখী হয়। এ ধরনের কর্মজীবিদের জন্যে সহজ ও সুবিধাজনক উপায়ে বাড়িতে টাকা পাঠানোর একটি ব্যবস্থা তৈরির করার প্রয়োজনীয়তা "বিকাশ" উদ্ভাবনের পেছনে একটি অন্যতম মৌলিক ধারণা হিসেবে কাজ করে।

এর মাধ্যমে বাংলাদেশের মানুষের জন্যে ব্যাপক পরিসরে আর্থিক সেবা প্রদান সম্ভব হবে। বিশেষ করে স্বল্প আয়ের জনগোষ্ঠীকে সুবিধাজনক, সাশ্রয়ী, এবং নির্ভরযোগ্য সেবা প্রদানের মাধ্যমে অর্থনৈতিক কার্যকলাপের সাথে সম্পৃক্ত করা যাবে।[৬]

সেবা[সম্পাদনা]

একজন বিকাশ একাউন্ট হোল্ডার তার বিকাশ একাউন্টে পর্যাপ্ত টাকা থাকলে যেকোন সময় যেকোন জায়গা থেকেই বিকাশ এর বিভিন্ন সেবা উপভোগ করতে পারেন। বিকাশ নির্ধারিত এজেন্ট থেকে বিকাশ একাউন্ট খুলতে হয়।

বিকাশ এর বর্তমান সেবাগুলো হচ্ছেঃ [৭]

  • বিকাশ একাউন্ট খোলা ।
  • একাউন্টে টাকা জমা করা ।
  • একটি বিকাশ একাউন্ট থেকে আরেকটি বিকাশ একাউন্টে টাকা পাঠানো ।
  • একাউন্ট থেকে এজেন্ট অথবা ব্র্যাক ব্যাংক এটিএম থেকে টাকা তোলা ।
  • মোবাইলে এয়ারটাইম কেনা/রিচার্জ করা ।
  • পণ্য কেনাকাটা বা সেবার বিনিময়ে মূল্য পরিশোধ করা ।
  • বিদেশ থেকে রেমিটেন্স গ্রহণ করা ।
  • বিদ্যুৎ বিল প্রদান করা ।
  • বেতন প্রদান ।
  • ঘরে বসে যানবাহনের টিকিট কেনা।
  • ইন্টারনেটে কেনাকাটা ।

নিরাপত্তা ও সুরক্ষা[সম্পাদনা]

বিকাশ লেনদেন সম্পাদিত হয় ফান্ডামো (একটি ভিসা কোম্পানি) প্রদত্ত প্রযুক্তির মাধ্যমে যা কিনা অত্যাধুনিক এবং নিরাপদ।[৮] গ্রাহকের নিজস্ব মোবাইল নম্বরটিই হয় তার বিকাশ একাউন্ট নম্বর এবং প্রতিটি লেনদেনেই গ্রাহককে তার নিজের পিন প্রদানের মাধ্যমে অনুমোদন দিতে হয়।[৯] মোবাইল ফিনান্সিয়াল সার্ভিসে এই ২ টি জিনিস অর্থাৎ গ্রাহকের নামে নিবন্ধিত মোবাইল সিম এবং পিন নম্বরের সমন্বয়ে তার একাউন্টের নিরাপত্তা নিশ্চিত হয়।টেকনিশিয়ান দের মতানুসারে সুরক্ষার কথা মাথায় রেখে প্রথমত ৬ টি এবং পরবর্তীতে ৫ টি সংখ্যার সুরক্ষা কোড চালু করা হয়। সাথে সাথে টেকনিক্যাল এবং সার্ভার এর বিষয়ে অধিকতর সুরক্ষা নিশ্চিত করা হয়।

নিয়ম এবং নীতিমালা[সম্পাদনা]

বিকাশ সেবাটি বাংলাদেশ ব্যাংক জারিকৃত নির্দেশনা “গাইডলাইন্স অন মোবাইল ফিনান্সিয়াল সার্ভিসেস ফর দ্যা ব্যাংকস”[১০] এবং ব্যাংক লেড মডেল অনুসরন করে পরিচালিত।[৬] বিকাশ একাউন্ট খুলতে একজন গ্রাহককে পুর্ণাঙ্গ তথ্য দিয়ে নির্ধারিত গ্রাহক নিবন্ধন ফর্ম (কেওয়াইসি) পূরণ করতে হয়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "BRAC Bank's bKash Launches Mobile Banking Services in Bangladesh" 
  2. "Home - bKash"bkash.com 
  3. ""BTRC Website"" 
  4. "Bangladesh Bank on MFS"
  5. ""MFS Summit Nepal"" (PDF) [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  6. ""MDI Case Study""। ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৪ ডিসেম্বর ২০১৩ 
  7. "Home - bKash"bkash.com 
  8. "Fundamo - Company"www.fundamo.com। ১৭ মে ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৮ ডিসেম্বর ২০১৩ 
  9. "Home - bKash"www.bkash.com 
  10. ""Guidelines on Mobile Financial Services for the Banks"" (PDF)