নিত্যানন্দ সাহা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
নিত্যানন্দ সাহা
জন্ম১৯৪০
মৃত্যু২০০৫
কল্যাণী, পশ্চিমবঙ্গ, ভারত
বাসস্থানভারত
জাতীয়তাভারতীয়
প্রাক্তন ছাত্র
পিএইচডি উপদেষ্টাঅধ্যাপক এস. এন. পোদ্দার

নিত্যানন্দ সাহা (১৯৪০—২০০৫) ছিলেন একজন ভারতীয় বাঙালি শিক্ষায়তনিক (একাডেমিক) প্রশাসক এবং অজৈব রসায়নের অধ্যাপক। ২০০০ সালের ফেব্রুয়ারি হতে ২০০৫ সাল পর্যন্ত তিনি কল্যাণী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন।[১][২]

প্রাথমিক জীবন এবং শিক্ষা[সম্পাদনা]

অধ্যাপকনিত্যানন্দ সাহা ১৯৬০ সালে স্কটিশ চার্চ কলেজ থেকে সম্মানসহ স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করেছিলেন। এর দুইবছর পর ১৯৬২ সালে তিনি কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় অধিভুক্ত রাজাবাজার সায়েন্স কলেজ থেকে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি সম্পন্ন করেন। [২][৩] পরবর্তীকালে তিনি কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র হিসাবে ১৯৬৮ সালে ইন্ডিয়ান অ্যাসোসিয়েশন ফর দ্য কালটিভেশন অব সায়েন্স থেকে রসায়ন বিষয়ে ডক্টরেট ডিগ্রি অর্জন করেছিলেন।

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

তিনি স্কটিশ চার্চ কলেজের রসায়নের প্রভাষক হিসাবে কর্মজীবন শুরু করেছিলেন,[৪] এবং সহযোজন রসায়নের ক্ষেত্রে তার নিজস্ব গবেষণা শুরু করেছিলেন। তিনি ভারত ও ভারতের বাইরে বিভিন্ন দেশে বহুসংখ্যক ডক্টরাল-উত্তর গবেষণা প্রচেষ্টায় জড়িত ছিলেন। ১৯৮৬ সালে তিনি কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞান কলেজ ক্যাম্পাসের রসায়ন বিষয়ের অধ্যাপক হন। তিনি ১৯৯১ সালের ডিসেম্বর থেকে ২০০০ সালের জানুয়ারি পর্যন্ত পশ্চিমবঙ্গ কলেজ সার্ভিস কমিশনের চেয়ারম্যান হিসাবেও দায়িত্ব পালন করেছিলেন। [২]

২০০০ সালের ফেব্রুয়ারিতে তিনি কল্যাণী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য হিসাবে দায়িত্ব গ্রহণ করেন। এই দায়িত্বে থাকাকালে এপ্রিল, ২০০০ থেকে মার্চ, ২০০২ পর্যন্ত তিনি ভারতীয় বিশ্ববিদ্যালয় অ্যাসোসিয়েশন (অ্যাসোসিয়েশন অব ইন্ডিয়ান ইউনিভার্সিটিস) স্থায়ী কমিটির সদস্য ছিলেন এবং পরবর্তীকালে ২০০৩ থেকে ২০০৪ সাল পর্যন্ত আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় জ্যোতিপদার্থর্বিজ্ঞান ও জ্যোতির্বিজ্ঞান কেন্দ্রের পারিষদিক সদস্য ছিলেন। ২০০২ থেকে ২০০৫ সাল পর্যন্ত তিনি ব্যাঙ্গালুরুর ভারতীয় বিজ্ঞান সংস্থার কোর্টে সদস্য হিসাবেও দায়িত্ব পালন করেছিলেন। তিনি ২০০১ সালের এপ্রিল মাসে সাইপ্রাসে অনুষ্ঠিত কমনওয়েলথ অ্যাসোসিয়েশন বিশ্ববিদ্যালয়ের (অ্যাসোসিয়েশন অব কমনওয়েলথ ইউনিভার্সিটি) কার্যনির্বাহী প্রধানদের সম্মেলন এবং ২০০৩ সালের সেপ্টেম্বর মাসে যুক্তরাজ্যের বেলফাস্টে অংশ নিয়েছিলেন। তার জীবনের এই ক্রান্তিলগ্ন বছরগুলিতে তিনি তার সমস্ত প্রশাসনিক দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি শিক্ষকতা ও গবেষণা দুটো কাজই সফলতার সাথে চালিয়ে যেতে সক্ষম হয়েছিলেন, এই সময়কালে তিনি কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের রসায়ন বিভাগের অধ্যাপক পদ থেকে দায়বদ্ধতার সাথে হঠাৎই বিস্ময়করভাবে অবসর নিয়েছিলেন। [২]

পুরস্কার ও সম্মাননা[সম্পাদনা]

• ১৯৯৪ সালে ভারতীয় রসায়ন সমিতি (ইন্ডিয়ান কেমিক্যাল সোসাইটি) থেকে অধ্যাপক ড. প্রিয়দারঞ্জন রায় স্মৃতিপদক অর্জন,

• ১৯৯২-১৯৯৩ এবং ১৯৯৭-৯৯৯৯ সালে ভারতীয় রসায়ন সমিতির রসায়নবিদদের বার্ষিক সমাবেশের অজৈব রসায়ন বিভাগের সায়েন্টিস্ট-ইন-চার্জ নিযুক্ত,

• ২০০১ সালে তৎকালীন বেঙ্গল ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজ (বিশ্ববিদ্যালয় সমতুল্য) থেকে অধ্যাপক ড. বড়দানন্দ চট্টোপাধ্যায় স্মৃতি প্রভাষক পুরস্কার অর্জন,

• ২০০০-২০০১ সাল পর্যন্ত ভারতীয় রসায়ন সমিতি থেকে প্রকাশিত সাময়িকীর অজৈব ও বিশ্লেষণী রসায়ন বিভাগের সম্মানসূচক সম্পাদক নিযুক্ত,

• ২০০২-২০০৩ সাল মেয়াদে কলকাতার ইন্ডিয়ান সায়েন্স নিউজ অ্যাসোসিয়েশনের পারিষদিক সদস্যপদ,

• পশ্চিমবঙ্গ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি একাডেমির ফাউন্ডেশন ফেলো,

• ১৯৯০ সালের নভেম্বর থেকে ১৯৯৩ সালের জুলাই মাস পর্যন্ত কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক স্টাফ কলেজের সম্মানসূচক নির্বাহী নিযুক্ত।[২]

ফেলোশিপ (সভ্যপদ)[সম্পাদনা]

• অস্ট্রেলিয়ার নিউ সাউথ ওয়েলস বিশ্ববিদ্যালয়ের স্কুল অব কেমিস্ট্রির ইউনেস্কো গবেষণা ফেলো।

• সুইজারল্যান্ডের বাজেল বিশ্ববিদ্যালয়ের অজৈব রসায়ন ইনস্টিটিউটের পরিদর্শক গবেষণা সহযোগী (ভিজিটিং রিসার্চ অ্যাসোসিয়েট)।

• মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জর্জিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের রসায়ন বিভাগের রিসার্চ পরিদর্শক গবেষণা সহযোগী।[২]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "List of successive vice chancellors of the University of Kalyani"। ৩ ডিসেম্বর ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৪ অক্টোবর ২০২০ 
  2. In Memory of Prof. (Dr.) Nityananda Saha[স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  3. Some Alumni of Scottish Church College in 175th Year Commemoration Volume. Scottish Church College, April 2008. page 586
  4. Teaching Staff: Chemistry in 175th Year Commemoration Volume. Scottish Church College, April 2008. page 578