নানুম ওরু তোড়িলালি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
নানুম ওরু তোড়িলালি
নানুম ওরু তোড়িলালি (১৯৮৬) পোস্টার.jpeg
প্রেক্ষাগৃহে মুক্তির পোস্টার
পরিচালকসি ভি শ্রীধর
প্রযোজকসি ভি শ্রীধর
রচয়িতাসি ভি শ্রীধর
শ্রেষ্ঠাংশে
সুরকারইলাইয়ারাজা
চিত্রগ্রাহকপি ভাস্কর রায়
সম্পাদকএম উমানাথ
প্রযোজনা
কোম্পানি
চিত্রালয় ফিল্মস
পরিবেশকচিত্রালয় ফিল্মস
মুক্তি
  • ১ মে ১৯৮৬ (1986-05-01)
দেশভারত
ভাষাতামিল

নানুম ওরু তোড়িলালি (তামিল: நானும் ஒரு தொழிலாளி, অনুবাদ 'আমিও একজন শ্রমিক') হচ্ছে ১৯৮৬ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত একটি তামিল চলচ্চিত্র। চলচ্চিত্রটির কাহিনী লেখক, পরিচালক এবং প্রযোজক ছিলেন সি ভি শ্রীধর। চলচ্চিত্রটিতে নায়ক-নায়িকা হিসেবে ছিলেন কমল হাসন এবং আম্বিকা, আরো গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে ছিলেন জয়শঙ্কর, ভি এস রাঘব এবং দেবীকা। ১৯৮৬ সালের ১ই মে চলচ্চিত্রটি মুক্তি পেয়েছিলো।

অভিনয়ে[সম্পাদনা]

  • কমল হাসন - ভারত
  • আম্বিকা - মীনা
  • জয়শঙ্কর - সুন্দর
  • রাজীব - কুমার
  • ভি এস রাঘব
  • দেবীকা
  • ভেন্নিরাআড়াই মূর্তি

প্রযোজনা[সম্পাদনা]

সি ভি শ্রীধর ছিলেন চলচ্চিত্রটির মূল পরিকল্পনাকারী, তিনি ১৯৮০ সালে শক্তি নামের একটি চলচ্চিত্র বানানোর কথা ভেবেছিলেন, যেটা ছিলো এই চলচ্চিত্রেরই পূর্বসূরী। ১৯৭৮ সালের চলচ্চিত্র ইলামাইল উঞ্জাল আড়ুকিরাদু-এর সফলতার পর (পরিচালক সি ভি শ্রীধর) শ্রীধর আবার কমল হাসনকে দিয়ে একটা চলচ্চিত্র পরিচালনা করতে চাচ্ছিলেন। নায়িকা আম্বিকার সঙ্গে কমলের এটাই প্রথম চলচ্চিত্র হতে যাচ্ছিলো যদিও তার আগে কাক্কী ছাট্টাই তৈরি হয়ে মুক্তি পেয়ে যায়, আম্বিকা কমলের সঙ্গে সুইমস্যুট পরে আছেন - এরকম একটা আলোকচিত্র বের করেছিলেন পরিচালক শ্রীধর এই নানুম ওরু তোড়িলালি চলচ্চিত্রের জন্য যেটার নাম আগে তিনি শক্তি রাখবেন বলে ভেবেছিলেন। চলচ্চিত্রটি তৈরি করতে সময় লেগে যায় এবং শ্রীধর চলচ্চিত্রটির নাম মিন্ডুম সূর্যোদয়াও রাখার কথা ভাবছিলেন। ১৯৮৬ সালের এপ্রিলে এই নানুম ওরু তোড়িলালির মুক্তি পাবার কথা থাকলেও চলচ্চিত্রটি একই বছরের মে মাসে মুক্তি পায়।[১] ঐ সময় (১৯৮৬ সালের মার্চে) তামিলনাড়ুতে নির্বাচন হচ্ছিলো আর নির্বাচনে 'দ্রাবিড় মুনেত্র কড়গম' দলটি জিতে যায়, যাদের দলের প্রতীক ছিলো 'উঠতি সূর্য' আর শ্রীধর তখন মিন্ডুম সূর্যোদয়া নামটি বদলে ফেলেন এবং নানুম ওরু তোড়িলালি রাখেন কারণ মিন্ডুম সূর্যোদয়া শব্দের অর্থ হচ্ছে 'উঠতি সূর্য'। ১৯৭০-এর দশকের মাঝখানদিকেও শ্রীধর এমজিআরকে নিয়ে এরূপ একটি চলচ্চিত্র বানানোর কথা ভাবলেও তা আলোর মুখ দেখেনি।[১][২]

অভিনেত্রী দীপা এবং অভিনেতা রাজীব চলচ্চিত্রটির একটি কাওয়ালি গানে অভিনয় করেছিলেন।[৩]

সঙ্গীত[সম্পাদনা]

চলচ্চিত্রটির সঙ্গীত পরিচালনা করেছিলেন ইলাইয়ারাজা[৪] বালি ছিলেন গানগুলোর গীতিকার।

গানের শিরোনাম
নং.শিরোনামগীতিকারকণ্ঠশিল্পীদৈর্ঘ্য
১."আয়িরাতিল নি ওরুদান"বালিএস. জনকী৪ঃ১৪
২."এঞ্জেল আড়ুম এঞ্জেল"বালিএস জনকী৪ঃ২৯
৩."মান্ডাভেলি"বালিএস পি বলসুব্রাহ্মণ৩ঃ১৫
৪."নান পুভেদুতু"বালিএস পি বলসুব্রাহ্মণ , এস জনকী৪ঃ৩৭
৫."ওরু নিলাভুম মালারুম"বালিএস পি বলসুব্রাহ্মণ, এস জনকী৪ঃ৩২
৬."পাট্টু পুভে"বালিএস পি বলসুব্রাহ্মণ৪ঃ৩০
৭."সেমবুরাতি পুভে"বালিএস পি বলসুব্রাহ্মণ, এস জনকী৪ঃ৪১
মোট দৈর্ঘ্য:৩০:১৮

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "The Golden Era of Dr. IR and Dr. SPB"Hub 
  2. "Kamal Haasan replaced MGR"। The Times of India। ৩০ মে ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ ৮ সেপ্টেম্বর ২০১৬ 
  3. "Unnimary Vdo Thread...super hot ...u wont regret after watchin it - Page 64"masalaboard.com। ৩০ জুলাই ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৪ মে ২০২০ 
  4. "Naanum Oru Thozilali Songs"। raaga। সংগ্রহের তারিখ ২০১৩-১২-২৩ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]