জামিয়া হাফসা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
জামিয়া হাফসা
JH New.jpg
মাদ্রাসার সদ্য পুনঃসংস্কারকৃত প্রধান শাখার বহির্ভাগ
ধর্ম
অন্তর্ভুক্তিদেওবন্দি ইসলাম
নেতৃত্বমাওলানা আব্দুল আজিজ গাজী
অবস্থান
অবস্থানপাকিস্তান ইসলামাবাদ, পাকিস্তান
স্থাপত্য
প্রতিষ্ঠাতামাওলানা আবদুল্লাহ গাজী
সম্পূর্ণ হয়নির্মাণ–১৯৯২
পুনর্নির্মাণ–২০১০

জামিয়া হাফসা (جامعة حفصة) হলো লাল মসজিদ সংলগ্ন একটি মাদ্রাসা যা পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদে অবস্থিত। মসজিদ ও এর মাদ্রাসাগুলোর তত্ত্বাবধান করছেন আব্দুল আজিজ গাজী

এই মাদ্রাসা ও তৎসংলগ্ন লাল মসজিদের মালিক ছিলেন দুই ভাই মাওলানা আব্দুল আজিজআব্দুল রশিদ গাজী[১] যতক্ষণ না, লাল মসজিদ অভিযান শুরু হয় এবং এর পরবর্তী সংগ্রামে বড় ভাই আব্দুল আজিজ গ্রেপ্তার ও ছোট ভাই রশীদ গাজী নিহত হন।

মাদ্রাসাটি রক্ষণশীল প্রকৃতির।[২][৩]

২০০৬ সালে মূল ভবন

ইতিহাস[সম্পাদনা]

হাফসা মহিলা ইসলামি মাদ্রাসাটি ১৯৯২ সালে জামিয়া উল উলম আল ইসলামিয়া আল ফারিদিয়ার (ফারিদিয়া বিশ্ববিদ্যালয় নামেও পরিচিত) একটি শাখা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়। বিদ্যালয়গুলো ১৯৯২ সালে মাওলানা আবদুল্লাহ গাজী প্রতিষ্ঠা করেন, যিনি ১৯৯৮ সালের অক্টোবরে অজ্ঞাত বন্দুকধারী কর্তৃক নিহত হওয়া অবধি আচার্য ছিলেন। বর্তমানে মাওলানা আব্দুল আজিজ গাজী বিদ্যালয়টি পরিচালনা করছেন।[তথ্যসূত্র প্রয়োজন]

লাল মসজিদ অভিযানের পর তৎকালীন সরকার মূল বিদ্যালয়টি ভেঙে দেয়। পরবর্তীতে বিদ্যালয়টি ইসলামাবাদের সেক্টর জি-৭ এ পুনর্নির্মাণ করা হয়। পাকিস্তানের অন্যান্য স্থানে এর আরও কয়েকটি শাখা নির্মিত হয়েছে।[তথ্যসূত্র প্রয়োজন]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Musharraf confronts militants in standoff over religious school"the Guardian (ইংরেজি ভাষায়)। ২০০৭-০২-১৩। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০২-২৫ 
  2. "International Women's Day: With Shoes And Stones, Islamists Disrupt Pakistan Rally"NPR.org (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০২-২৫ 
  3. Ali, Kalbe (২০১৯-০৩-২৩)। "Maulana Abdul Aziz dodges ICT admin, delivers sermon at Lal Masjid"DAWN.COM (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০২-২৫ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]