গডফ্রে লরেন্স

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
গডফ্রে লরেন্স
ক্রিকেট তথ্য
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
বোলিংয়ের ধরনডানহাতি ফাস্ট-মিডিয়াম
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট এফসি
ম্যাচ সংখ্যা ৭৭
রানের সংখ্যা ১৪১ ১০৭৯
ব্যাটিং গড় ১৭.৬২ ১২.৬৯
১০০/৫০ ০/০ ০/১
সর্বোচ্চ রান ৪৩ ৬০*
বল করেছে ১৩৩৪
উইকেট ২৮ ৩৪২
বোলিং গড় ১৮.২৮ ১৭.৯৭
ইনিংসে ৫ উইকেট ১৫
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ৮/৫৩ ৮/৪২
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ২/- ৫৪/-
উৎস: ক্রিকইনফো, ৪ নভেম্বর ২০১৮

গডফ্রে বার্নার্ড গুফি লরেন্স (ইংরেজি: Godfrey Lawrence; জন্ম: ৩১ মার্চ, ১৯৩২) রোডেশিয়ার সলসবারিতে জন্মগ্রহণকারী প্রথিতযশা দক্ষিণ আফ্রিকান সাবেক আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার। দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ১৯৬১ থেকে ১৯৬২ সময়কালে সংক্ষিপ্তকালের জন্য দক্ষিণ আফ্রিকার পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছেন।[১] ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটে রোডেশিয়ার প্রতিনিধিত্ব করেছেন। দলে তিনি মূলতঃ ডানহাতি ফাস্ট-মিডিয়াম বোলার হিসেবে খেলতেন। এছাড়াও, নিচেরসারিতে ডানহাতে ব্যাটিংয়ে স্বীয় সক্ষমতা প্রদর্শন করেছেন গডফ্রে লরেন্স

ঘরোয়া ক্রিকেট[সম্পাদনা]

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে রোডেশিয়ার পক্ষে ১৯৫২-৫৩ মৌসুম থেকে ১৯৬৫-৫৫ মৌসুম পর্যন্ত খেলেছেন। ১৯৬৫-৬৬ মৌসুমে ওয়েস্টার্ন প্রভিন্সের বিপক্ষে ব্যক্তিগত সেরা প্রথম-শ্রেণীর বোলিং পরিসংখ্যান গড়েন। প্রথম ইনিংসে ৩/৫৬ লাভ করার পর ১০ নম্বরে ব্যাটিংয়ে নেমে অপরাজিত থাকেন ৩২ রানে। এরপর দ্বিতীয় ইনিংসে ৮/৪২ পান।[২] এরপর ১৯৬৬-৬৭ মৌসুমে নাটাল বি দলের পক্ষে দুই খেলায় অংশ নিয়েছিলেন।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে দক্ষিণ আফ্রিকার পক্ষে পাঁচটি টেস্টে অংশগ্রহণের সুযোগ পেয়েছেন গডফ্রে লরেন্স। ৮ ডিসেম্বর, ১৯৬১ তারিখে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে গডফ্রে লরেন্সের। রোডেশিয়া থেকে আসা দীর্ঘদেহী ডানহাতি ফাস্ট-মিডিয়াম বোলার গডফ্রে লরেন্স নবরূপে গঠিত দক্ষিণ আফ্রিকা দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন। ১৯৬১-৬২ মৌসুমে সফরকারী নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে অনুষ্ঠিত সিরিজে প্রথম অংশগ্রহণ করেন। জোহেন্সবার্গে সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টে ৮/৫৩ পেয়েছিলেন।[৩]

এ সিরিজে তিনি চমৎকার খেলা উপহার দেন। ১৯৬৫-৬৬ মৌসুম পর্যন্ত কারি কাপে সুন্দর ক্রীড়াশৈলী উপহার দিলেও আর কোন টেস্ট সিরিজে অংশ নিতে তাঁকে দেখা যায়নি।

ব্যক্তিগতজীবন[সম্পাদনা]

ব্যক্তিগত জীবনে বিবাহিত গডফ্রে লরেন্সের সন্তান স্টিফেন লরেন্স ১৯৯০-এর দশকে শীর্ষস্থানীয় অস্ট্রেলীয় রুলস ফুটবলার ছিলেন।[৪]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Godfrey Lawrence"। www.cricketarchive.com। সংগ্রহের তারিখ ৯ ফেব্রুয়ারি ২০১০ 
  2. Western Province v Rhodesia 1965–66
  3. South Africa v New Zealand, Johannesburg 1961–62
  4. "Stephen Lawrence"। AFL Queensland। সংগ্রহের তারিখ ২৭ জুলাই ২০১০ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]