কেপলার-৪বি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
কেপলার-৪বি
বহির্গ্রহ বহির্গ্রহসমূহের তালিকা
Exoplanet Comparison Kepler-4 b.png
কেপলার-৪বি(ডানে) এর সাথে নেপচুন(বামে) এর আকৃতির পার্থক্য।
মাতৃ তারা
তারা কেপলার-৪[১]
তারামণ্ডল ড্রেকো
বিষুবাংশ (&আলফা;) 19 2মি 27.7সে
বিষুবলম্ব (&ডেল্টা;) +50° 8′ 8.7″
আপাত মান (mV) ১২.৬[১]
দূরত্ব১৬৩১ ly
(৫৫০[১] পিসি)
ভর (m) ১.০৯২ ± ০.০৭৩[২] M
ব্যাসার্ধ (r) ১.১৫৩৩ ± ০.০৪০[২] R
তাপমাত্রা (T) ৫৮৫৭[১] K
ধাতবতা [Fe/H] ০.১৭[১]
বয়স ৪.৫[৩] Gyr
ভৌত বৈশিষ্ট্যসমূহ
ভর(m)০.০৭৭[১] MJ
ব্যাসার্ধ(r)০.৩৫৭[১] আরজে
(৩.৮৭৮ R)
নাক্ষত্রিক প্রবাহ(F)~১৬৮
তাপমাত্রা (T) ১৬৫০[১]
কক্ষপথের রাশি
অর্ধ-মুখ্য অক্ষ(a) ০.০৪৫৫৮[১] AU
উৎকেন্দ্রিকতা (e) ০.২৫ ± ০.১২[৪]
কক্ষীয় পর্যায়কাল(P) ৩.২১৩৫[১] d
নতি (i) ৮৯.৭৬[১]°
আবিষ্কারের তথ্য
আবিষ্কারের তারিখ ২০১০-০১-০৪[৫]
আবিষ্কারক(সমূহ)
আবিষ্কারের পদ্ধতি ট্রানজিট (কেপলার মিশন)[৬]
অন্য সনাক্তকরণ পদ্ধতি ঘূর্ণন গতি
আবিষ্কারের অবস্থা কনফারেন্স ঘোষণা[৫]

কেপলার-৪বি, প্রাথমিক ভাবে KOI ৭.০১ নামে পরিচিত, এটি একটি বহির্গ্রহ যা নাসা'র কেপলার মহাকাশযান মিশন দ্বারা প্রথম আবিষ্কৃত হয়। এর ব্যাসার্ধ আর ভর নেপচুনের অনুরুপ। এটি এর নক্ষত্রের খুব নিকটবর্তী, এবং এটি সৌর জগৎ এর সব গ্রহের চেয়ে যথেষ্ট ভাল উত্তপ্ত। [১][৭] গ্রহটির আবিস্কার ৪ জানুয়ারি ২০১০ ওয়াশিংটন ডিসি.-এ ঘোষণা করা হয়, সাথে আর ৪টি গ্রহ কেপলার মহাকাশযান চিহ্নিত করে যা W.M. Keck পর্যবেক্ষণাগারের টেলিস্কোপ পরবর্তীকালে নিশ্চিত করে।

নামকরণ ও ইতিহাস[সম্পাদনা]

কেপলার-৮বি নামকরণ করা হয়েছে কারণ এটি কেপলার-৪ নক্ষত্রের সবচেয়ে নিকটবর্তী প্রথম গ্রহ হিসেবে আবিষ্কৃত হয়। কেপলার মহাকাশযানের নামে নামকরণকৃত - যা নাসার এমন একটি দূরবীন যে পৃথিবী থেকে দেখা যায় এরূপ নক্ষত্রের পথের মধ্যে সিগনাস ও লায়রা গতি পদ্ধতি ব্যবহার করে পৃথিবী সাদৃশ গ্রহ খোঁজার কাজে ব্যবহৃত হয়।এই পদ্ধতি ব্যবহার করে, নক্ষত্রের সামনে কোন গ্রহ অবস্থান করে এর উজ্জলতা কি পরিমান কমিয়ে আনে তার উপর ভিত্তি করে কেপলার এর পরিমাপ করে।[৬] প্রাথমিক ভাবে, কেপলার দূরবীক্ষণ এ কেপলার-৪বি একটি কেপলার কৌতূহল বিষয়বস্তু হিসেবে KOI ৭.০১ চিহ্নিত হয়।[৮]

এর ঘূর্ণন গতিবেগ উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন স্পেকট্রমিটার দ্বারা পরিমাপ করে W.M. Keck পর্যবেক্ষণাগার এবং নিচ্চিত করে একটি গ্রহে যা গুনাবলি থাকা দরকার, তা সব এর গ্রহে আছে।[৯] গ্রহটির অস্তিত্ব ঘোষণা করা হয় ৪ জানুয়ারী, ২০১০, সাথে আরও ৪টি গ্রহ চিহ্নিত করে কেপলারঃ কেপলার-৫বি, কেপলার-৬বি, কেপলার-৭বি এবং কেপলার-৮বি। এটি ছিল আমেরিকান অ্যাস্ট্রোনমিক্যাল সোসাইটির ২১৫তম অধিবেশন ওয়াশিংটন ডিসি. তে।[৫]

সংযুক্ত নক্ষত্র[সম্পাদনা]

মহাকাশে কেপলার-৪ তক্ষক মণ্ডলে অবস্থিত, যা আনুমানিক সৌরজগত থেকে ৫৫০ পারসেক দূরে। এর কার্যকর তাপমাত্রা প্রায় সূর্যের মতই ৫৮৫৭ কেলভিন, কিন্তু এর ভর ও ব্যাসার্ধ সূর্যের চেয়েও কিছুটা বড়, ১.০৯২ and ১.৫৩৩ .[২] এই নক্ষত্রটি বয়স প্রায় ৪.৫ বিলিয়ন বছর, এবং এর প্রধান হাইড্রোজেন স্তর পুরে শেষ হওয়ার পথে। দশ মিলিয়ন পর পর এটি দানব আকৃতির তারকা হয়ে উঠে।[৯]

বৈশিষ্ট্য[সম্পাদনা]

কেপলার-৪বি এর নক্ষতের কক্ষপথে ৩.২১৩ দিনে ঘুরে এবং ০.০৪৬ AUদুরত্তে থেকে।[৯] নক্ষত্র থেকে এর অবস্থান সূর্য থেকে বুধ গ্রহের দুরত্তের ও ১০ গুন কাছে। অতএব, কেপলার-৪ অধিকতর উষ্ণ, এর সুস্থির তাপমাত্রা ১৭০০ কেলভিন (২৬০০ ফারেনহাইট) এরচেয়ে বেশি।[৪] গ্রহটি পৃথিবী থেকে ২৫ গুন বড় এবং ব্যাসার্ধ পৃথিবী থেকে ৪ গুন বড়।[৯] এর আকৃতি এবং ভর প্রায় নেপচুনের সমতুল্য, কিন্তু তাপমাত্রার তুলনায় সৌরজগতের সকল গ্রহের চেয়ে উষ্ণ (শুক্র, সবচেয়ে উষ্ণ গ্রহের তাপমাত্রা মাত্র ৭৩৫ কেলভিন)। কেপলার-৪বি এর উৎকেন্দ্রতা প্রায় ০, তবে একটি স্বাধীন পুনঃপর্যবেক্ষণে তথ্য আবিষ্কৃত হয় যা ০.২৫ ± ০.১২।[৪]

কেপলারের আবিষ্কৃত পাঁচটি গ্রহের আপেক্ষিক আকৃতি দেখানো একটি ছবি। কেপলার-৪বি পাঁচটির মধ্যে ক্ষুদ্রতম, বেগুনি রংয়ে নির্দেশিত।

আরো দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Summary Table of Kepler Discoveries"। NASA। ২০১০-০৩-১৫। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৩-১৮ 
  2. Huber, Daniel; ও অন্যান্য (২০১৩)। "Fundamental Properties of Kepler Planet-candidate Host Stars using Asteroseismology"The Astrophysical Journal767 (2)। 127। arXiv:1302.2624অবাধে প্রবেশযোগ্যdoi:10.1088/0004-637X/767/2/127বিবকোড:2013ApJ...767..127H 
  3. Jean Schneider (২০১০)। "Planet Kepler-4 b"Extrasolar Planets Encyclopaedia। Jean Schneider। সংগ্রহের তারিখ ৫ আগস্ট ২০১২ 
  4. Kipping, David; Bakos, Gáspár (২০১১)। "An Independent Analysis of Kepler-4b through Kepler-8b"The Astrophysical Journal730 (1)। 50। arXiv:1004.3538অবাধে প্রবেশযোগ্যdoi:10.1088/0004-637X/730/1/50বিবকোড:2011ApJ...730...50K 
  5. Rich Talcott (৫ জানুয়ারি ২০১০)। "215th AAS meeting update: Kepler discoveries the talk of the town"Astronomy.comAstronomy magazine। সংগ্রহের তারিখ ১১ মার্চ ২০১১ 
  6. "Kepler: About the Mission"Kepler Mission। NASA। ২০১১। সংগ্রহের তারিখ ১১ মার্চ ২০১১ 
  7. Ron Cowen (২০১০-০১-০৪)। "Kepler space telescope finds its first extrasolar planets"। Science News। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০১-০৪ 
  8. Borucki, William J; ও অন্যান্য (২০১১-০২-০১)। "Characteristics of planetary candidates observed by Kepler, II: Analysis of the first four months of data" (PDF)http://kepler.nasa.gov। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-০৭  |প্রকাশক= এ বহিঃসংযোগ দেয়া (সাহায্য)
  9. Borucki, William J.; ও অন্যান্য (২০১০)। "Kepler-4b: A Hot Neptune-like Planet of a G0 Star Near Main-sequence Turnoff"The Astrophysical Journal Letters713 (2): L126। arXiv:1001.0604অবাধে প্রবেশযোগ্যdoi:10.1088/2041-8205/713/2/L126বিবকোড:2010ApJ...713L.126B 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

উইকিমিডিয়া কমন্সে কেপলার-৪বি সম্পর্কিত মিডিয়া দেখুন

স্থানাংক: আকাশের মানচিত্র ১৯মি ২৭.৭সে, +৫০° ৮′ ৮.৭″