ভর

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
ঢালাই লোহার তৈরি একটি বাটখারা। ভর: 2kg (4.44lb), উচ্চতা: 4.9cm (1.9in), প্রস্থ: 9.2cm (3.6in)

ভর (ইংরেজি: Mass) পদার্থবিজ্ঞানের একটি মৌলিক তত্ত্বগত ধারণা। ভর হলো বস্তুর একটি মৌলিক বৈশিষ্ট্য যা বল প্রয়োগে বস্তুতে সৃষ্ট ত্বরণের বাধার পরিমাপক। নিউটনীয় বলবিদ্যায় ভর বস্তুর বলত্বরণ এর সাথে সম্পর্কিত। ভরের প্রায়োগিক ধারণা হচ্ছে বস্তুর ওজন। ভরের পরিমাপ সম্ভব নয়। তবে অভিন্ন অবস্থায় বা পরিবেশে ওজন দ্বারা বিভিন্ন বস্তুর তুলনামূলক ভরের ধারণা পাওয়া যায়।

বস্তুর ভরের কখনো পরিবর্তন হয় না। কিন্তু অবস্থানগত কারণে একই বস্তুর ওজন বিভিন্ন হতে পারে, কারণ ওজন মাধ্যাকর্ষণের ফল। সুতরাং বস্তুর ভর অপরিবর্তনীয় হলেও পৃথিবীর কেন্দ্রে, পৃথিবী পৃষ্ঠে এবং মহাকাশে এর ওজন বিভিন্ন হয়।

সংজ্ঞা[সম্পাদনা]

পদার্থের একক পরিমাণকে ভর বলা হয়।

প্রমাণ ভর[সম্পাদনা]

কোন বস্তুর মধ্যে যে পরিমাণ জড়পদার্থ থাকে তাকে বস্তুর ভর বলে।

একক ও মাত্রা[সম্পাদনা]

এস.আই. এককে ভরের এককের নাম কিলোগ্রাম (kilogram or kg), সি.জি.এস. (C.G.S.) পদ্ধতিতে ভরের একক গ্রাম(g) এবং ব্রিটিশ এককের(F.P.S) নাম পাউন্ড (lb) । ভরের মাত্রা হলো । এককের(F.P.S) এর Full Form ফুট,পাউন্ড এবং সেকেন্ড এছাড়াও রয়েছেM.K.S পদ্ধতি এই পদ্ধতিকে S.I পদ্ধতিও বলা হয় এই পদ্ধতিতে ভরের একক কিলোগ্রাম

এককের প্রয়োজনীয়তা[সম্পাদনা]

>> ভৌত রাশির সঠিক পরিমাপের জন্য নিম্নলিখিত কারণে ভৌত রাশির একক ব্যবহৃত হয়:

বৈশিষ্ট্য[সম্পাদনা]

, যেখানে হলো আলোর বেগ।[১]

আরো দেখুন[সম্পাদনা]

কিলোগ্রাম

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. খান, ড. আমির হোসেন ও ইসহাক, প্রফেসর মোহাম্মদ এবং ইসলাম, ড. মো. নজরুল ২০১৯. পদার্থবিজ্ঞান দ্বিতীয় পত্র: একাদশ ও দ্বাদশ শ্রেণি. (ষষ্ঠ সংস্করণ). আইডিয়াল বুকস, ঢাকা.