কিবোর্ড

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(কি-বোর্ড থেকে পুনর্নির্দেশিত)
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
কম্পিউটার কিবোর্ড

কিবোর্ড ইংরেজি শব্দ key board থেকে এসেছে, যা এখন প্রায় বাংলা একটি শব্দ। বাংলা করলে দাঁড়াবে চাবির পাটাতন। কতগুলো কি একত্রে একটি ধারকের মধ্যে থাকায় এইরূপ নামকরণ। কম্পিউটারের কিবোর্ড এর কারণে বর্তমানে অনেকেই এর সম্পর্কে জানেন। কম্পিউটারের কিবোর্ড হল একটি টাইপরাইটার যন্ত্র বিশেষ যার মধ্যে কতগুলো বাটন বা চাবির সন্নিবেশ থাকে এবং এগুলো ইলেক্ট্রনিক সুইচ এর কাজ করে। সাধারণ কিবোর্ডেকে বলা হয় QWERTY. কিবোর্ডের ধরন ৫ রকমের হয়। যেমনঃ ফাংশন কি, আলফা নিউমেরিক কি, নিউমেরিক কি, মডিফায়ার কি ও কার্সর মুভমেন্ট কি।[১]

কী - বোর্ড (Key Board)

  কী বোর্ড  হল কম্পিউটারের একটি গুরুত্বপুর্ণ অংশ। এর মাধ্যমে আমরা আঙুলের সাহায্যে বিভিন্ন কী চেপে কম্পিউটারকে বিভিন্ন নির্দেশ দিতে পারি। প্রতিটি কী -এর ওপর বিভিন্ন অক্ষর,সংখ্যা ও চিহ্ন লেখা থাকে।কম্পিউটারে বিভিন্ন ডেটা এবং নির্দেশ ইনপুট করার জন্য কী-বোর্ড ব্যবহৃত হয় ।

কী বোর্ড  দুই প্রকার

১)   স্ট্যান্ডার্ড কী বোর্ড -(এই কী বোর্ডে ১০৪-১১০ টি কী থাকে)

২) এ্যাডভান্স কী বোর্ড- (এই কী বোর্ড-এ ১২০ থেকে ১৪০ টি পর্যন্ত বিভিন্ন প্রকার কী থাকে)

Key Board এর বিভিন্ন কী -এর পরিচয়

Key Board এর বিভিন্ন কী গুলি হল

1. Alphabet Keys(এ্যালফাবেট্ কী):- A-Z   অবধি ২৬ টি কী থাকে। এই কী বাক্য ও শব্দ গঠনের জন্য ব্যবহৃত হয়।এর সাহায্যে ইংরাজি বড় হরফে ও ছোট হরফে অক্ষর লিখতে পারি।

2. Numeric Keys(নিউমেরিক কী):-

  ০ থেকে ৯ পর্যন্ত ১০ টি কী দুবার করে থাকে।

এ গুলি হল নিউমেরিক(সংখ্যা) কী এর সাহায্যে আমরা

সংখ্যা লিখতে পারি ।

3. Enter Key(এন্টার কী):-

এই কী খুবই গূরুত্বপূর্ণ। অনেক বেশি বার এই

কী ব্যবহার হয়। কারসার কে পরবর্তী লাইনে নিয়েযেতে

এই কী ব্যবহার হয় ।কী‌-বোর্ড দুটি এন্টার কী থাকে।

4.  Esc Key ( এস্কেপ কী) :-

কী বোর্ডের একেবারে উপরে বাঁদিকের কোনায়

এই কী থাকে । সাধারণত বর্তমান কাজকে

বাতিল করে পূর্ববর্তী অবস্থানে ফিরে যেতে এই

কী ব্যবহার হয় ।

5. Arrow Key (অ্যারো কী) :-

এখানে চারটি কী একসাথে থাকে । প্রতিটির উপর

অ্যারো (তীর) চিহ্ন থাকে । এর সাহায্যে কারসার

কে ইচ্ছামতো ডানদিক-বাঁদিক, উপর-নীচে নিয়ে

যাওয়া যায় ।

6.Backspace Key (ব্যাকস্পেস কী):-

কারসারের বাঁদিকের অক্ষর মোছার জন্য  

এই কী ব্যবহার হয়।

7.Del. ,Delete key(ডেল,ডিলিট কী):-

কারসারের ডানদিকের অক্ষর মোছার জন্য  

এই কী ব্যবহার হয়।

8.Caps Lock Key ( ক্যাপস লক কী) :-এই কী অন থাকলে বড়ো হরফে লেখা

হয়, অফ থাকলে ছোটো হরফে লেখা হয় । ক্যাপস লক কী Toggle(টগল) Key নামে পরিচিত ।

9. Num Lock (  নাম লক কী) :-এটাও একটা টগল কী, যেটি  নিউমেরিক কী-প্যাডকে লক্ এবং আনলক্ করতে ব্যবহৃত হয় । এই কী অফ থাকলে কী তে লেখা অন্য কাজ গুলি করাযায় ।

10. Special Character Key (স্পেশ্যাল ক্যারেকটার কী ):-

১) গাণিতিক চিহ্ন - [+ (যোগ), -

(বিয়োগ), *(গুন), /(ভাগ), = (সমান), %(শতকরা)]

২) যতি (পাঙ্কচুয়েশন) চিহ্ন -[,(কমা) :(কোলন) ? ;(সেমি কোলন) ' “ ! .]

৩) অন্যান্য চিহ্ন -

[@, #, ^, &, ( )]

  এই কী গুলিতে দুটি করে অক্ষর থাকে । যেমন  উপরে : (কোলন) এবং নীচে ;(সেমি কোলন) এই দুটি চিহ্ন একই কী-তে লেখা রয়েছে। এই কী তে চাপ দিলে নীচের  অক্ষর অর্থ্যাৎ ;(সেমি কোলন) টাইপ হবে ।আর উপরের  অক্ষর  অর্থ্যাৎ : (কোলন) টাইপ করার জন্য শিফট কী (shift key) চেপে রেখে এই বটান চাপ দিতে হবে ।

11.Function Key(ফাংশান কী):- কী-বোর্ডে ১২ টি ফাংশান কী  থাকে । (F1, F2,....F12  ) এগুলির কাজ সফটওয়্যার এর উপর নির্ভরশীল ।

13. Ctrl(কন্ট্রোল), Alt(অল্টার), Shift(শিফট) :-এই কী গুলি কী- বোর্ডে দুটি করে থাকে । সাধারণত এই কী গুলি একক ভাবে কোনো কাজ করে না ।অন্য কী-র সাথে একযোগে ব্যবহারের সময় এগুলির কাজ পাওয়া যায় ।

সমাপ্ত

ফাংশন কি :[সম্পাদনা]

ফাংশন কি

কিবোর্ডে ফাংশন কি রয়েছে ১২টি। এগুলো ব্যবহার করা হয় - তথ্য সংযোজন, বিয়োজন বা নির্দেশ প্রদানের জন্য।

আলফা নিউমেরিক কি :[সম্পাদনা]

আলফা নিউমেরিক কি

কিবোর্ডের যে অংশ টাইপ রাইটারের মত বর্ণ এবং সংখ্যা (নম্বর) দিয়ে সাজানো থাকে, সেই অংশ হলো আলফা নিউমেরিক কি।

মডিফায়ার কি :[সম্পাদনা]

মডিফায়ার কি

শিফট, অপশন, কমান্ড, কন্ট্রোল ও অল্টার এগুলো হলো - মডিফায়ার কি।

কার্সর মুভমেন্ট কি :[সম্পাদনা]

কার্সর মুভমেন্ট কি

কিবোর্ডে কার্সর মুভমেন্ট কি থাকে ৪টি। এগুলোর মাধ্যমে কম্পিউটারে বিভিন্ন কাজে কার্সর মুভমেন্ট করা হয়, অনেকটা মাউসের মত।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]


  1. "What is a Keyboard?"www.computerhope.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৫-১১