ওয়াল্টন গ্রুপ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ওয়াল্টন কোম্পানি লিমিটেড
প্রাইভেট কোম্পানি লিমিটেড
প্রতিষ্ঠাকাল১৯৭৭
প্রতিষ্ঠাতাএস এম নজরুল ইসলাম [১]
সদরদপ্তরজীবন বীমা ভবন (৩য় তলা), ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রধান ব্যক্তি
এস এম নুরুল আলম রিজভী (চেয়ারম্যান)
পণ্যসমূহকনজিউমার ইলেক্ট্রনিক্স, অটোমোবাইল, মোবাইল ফোন, হোম এপ্লায়েন্স
কর্মীসংখ্যা
২০,০০০+
স্লোগানআমাদের পণ্য
ওয়েবসাইটwaltonbd.com

ওয়াল্টন (WALTON) হচ্ছে একটি বাংলাদেশী ব্র্যান্ড; যার সদর দপ্তর ঢাকায় অবস্থিত। এর মূল কারখানাটি গাজীপুর জেলার চন্দ্রাতে অবস্থিত। ওয়াল্টন গ্রুপ এর প্রায় সকল পণ্য ওয়াল্টন নামে নামে বাজারজাত করা হয়। ওয়াল্টন মটর্স, ওয়াল্টন মোবাইল ও ওয়াল্টন ইলেক্ট্রনিক্স হচ্ছে এই গ্রুপের অধীনস্থ তিনটি শাখা। ওয়াল্টন ইলেক্ট্রনিক পণ্য, যানবাহন ও টেলিযোগাযোগের পণ্য গুলো উৎপাদন করে থাকে।

ওয়ালটন বাংলাদেশের সর্বোচ্চ করদাতাদের মধ্যে একটি এবং দেশের অর্থনীতিতে এর শক্তিশালী প্রভাব রয়েছে। ওয়ালটন বাংলাদেশের বৃহত্তম কোম্পানিগুলোর মধ্যে একটি। এটি বাংলাদেশে ফ্রিজের সবচেয়ে বড় প্রস্তুতকারক, যার বাজারে সর্বোচ্চ বাজার শেয়ার রয়েছে।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

ওয়াল্টন গ্রুপ ১৯৭৭ সালে এস. এম নুরুল আলম রিজভির হাত ধরে বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান স্বরূপ যাত্রা শুরু করে। তবে এর মূল প্রতিষ্ঠাতা হচ্ছেন এস এম নজরুল ইসলাম[১] যিনি বর্তমান চেয়ারম্যান এস এম নুরুল ইসলাম রিজভির পিতা। ১৯৭০-এর দশকে ওয়াল্টন ইস্পাত শিল্পে প্রবেশ করেছিল এবং ২০০০এর দশকে এসে ইলেক্ট্রনিক্স ও অটোমোবাইল ব্যবসায় প্রবেশ করে।

অর্থনৈতিক অবস্থা[সম্পাদনা]

অটোমোবাইল ও ইলেক্ট্রনিক্স ব্যবসায় ওয়াল্টন সর্বাধিক আয় করে। ওয়াল্টন দেশের অন্যতম সর্বোচ্চ রাজস্ব প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান। ২০১৫ সালের ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্যমেলায় সাতবারের মত সর্বোচ্চ রাজস্ব দাতার পুরস্কার লাভ করে।[২]

ওয়াল্টন হাই-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড[সম্পাদনা]

এটি ওয়াল্টন গ্রুপের একটি প্রতিষ্ঠান। ২০০২সালে গাজীপুরের চন্দ্রায় এর ভবনের কাজ শুরু হয় এবং ২০০৬সালে কাজ শেষ হয়। এখানে রেফ্রিজারেটর, ফ্রিজার, মটর সাইকেল, এ.সি তৈরি করা হয়।

ওয়াল্টন মাইক্রো-টেক কর্পোরেশন[সম্পাদনা]

ওয়াল্টন মাইক্রো-টেক কর্পোরেশন ওয়াল্টন হাই-টেক ইন্ডাস্ট্রির পাশেই অবস্থিত। এখানে টিভি (এলসিডি, সিআরটি), হোম এপ্লায়েএন্স (ব্লেন্ডার, রাইস কুকার, ইন্ডাকশন কুকার, এয়ার ফ্রায়ার, রিচার্জেবল ফ্যান, হেয়ার ড্রায়ার, ডিভিডি প্লেয়ার ইত্যাদি), এলইডি লাইট, ব্যাটারি, ইলেক্ট্রিক মটর ইত্যাদি।

পণ্য[সম্পাদনা]

ওয়াল্টন মোবাইল[সম্পাদনা]

ওয়াল্টন মোবাইল হচ্ছে অন্যতম সর্বোচ্চ বিক্রিত পণ্য । বাংলাদেশে বিক্রি হয়েছে ওয়াল্টনের অ্যানড্রয়েড মোবাইল। বর্তমানে তরুণদের পছন্দ ওয়াল্টনের স্মার্টফোন

ওয়াল্টন মোটর সাইকেল[সম্পাদনা]

ওয়াল্টন মোটর সাইকেল ওয়াল্টন হাই-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ কর্তৃক উৎপাদিত হয়। অন্যতম বিক্রিত মোটর সাইকেল বাংলাদেশে । এগুলো তৈরি করতে জাপানি প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়।[৩]

রেফিজারেটর এন্ড এয়ারকন্ডিশনিং[সম্পাদনা]

টেলিভিশন[সম্পাদনা]

কম্পিউটার[সম্পাদনা]

২০১৮ সালের জানুয়ারি মাস থেকে প্রথম বারের মত দেশীয় কারখানায় ওয়ালটন কম্পিউটার ও মনিটর বানানো শুরু করা হয়।

ওয়াটার পাম্প[সম্পাদনা]


তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. ওয়ালটন গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা আর নেই - দৈনিক সমকাল
  2. Rahman, Md Mahfuzur (১০ ফেব্রুয়ারি ২০১৫)। "Walton receives Best Taxpayer Award at DITF" (ইংরেজি ভাষায়)। 
  3. "Walton At Every Home"www.waltonbd.com