এম রফিকুল ইসলাম

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
এম রফিকুল ইসলাম
৮ম উপাচার্য, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, বাংলাদেশ
কাজের মেয়াদ
৩ এপ্রিল ২০০৪ – ১০ জুলাই ২০০৬
পূর্বসূরীমুহাম্মাদ মুস্তাফিজুর রহমান
উত্তরসূরীফয়েজ মুহাম্মাদ সিরাজুল হক
ব্যক্তিগত বিবরণ
জাতীয়তাবাংলাদেশী
প্রাক্তন শিক্ষার্থীরাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়
পেশাবিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক

ড. এম. রফিকুল ইসলাম একজন বাংলাদেশী শিক্ষাবিদ, অধ্যাপক ও লেখক। তিনি ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, বাংলাদেশের অষ্টম উপাচার্য ছিলেন।[১] তিনি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের বিশিষ্ট অধ্যাপক ছিলেন।[২][৩] তিনি ৩ এপ্রিল ২০০৪ থেকে ১০ জুলাই ২০০৬ পর্যন্ত ২ বছরেরও বেশি সময় ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

তিনি ২০১২ সালে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের জিয়া পরিষদের সভাপতি ছিলেন।[৪] তিনি ২০১৯ সালে পুন্ড্র ইউনিভার্সিটি অফ সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি, বগুড়ার কোষাধ্যক্ষ ছিলেন।

উপাচার্য পদ[সম্পাদনা]

তিনি ৩ এপ্রিল ২০০৪ সালে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, কুষ্টিয়ার উপাচার্য নিযুক্ত হন। নভেম্বর ২০০৫ সালে, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতি (ইবিশিস) উপাচার্য এম রফিকুল ইসলামের বিরুদ্ধে বিশ্ববিদ্যালয়ের দুর্নীতি ও অনিয়ম এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাদেশ লঙ্ঘনের জন্য অভিযোগ তোলে।[৫] স্থানীয় চাকরি প্রার্থীদের চাপ এবং রাজনৈতিক সমস্যার কারণে রফিকুল ইসলাম ২০০৬ সালের জুলাই মাসে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে তার পদত্যাগপত্র জমা দেন।[৬][৭]

আরো দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Engineer, Nazmus Shahadat, Senior Software। "Islamic University"iu.ac.bd। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১১-২৭ 
  2. "ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ৩৪তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী আজ" (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১১-৩০ 
  3. "Marking the 84th birth anniversary of late president Ziaur Rahman"Daily Sun (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১১-২৭ 
  4. "বিডিনিউজকর্মীদের উপর হামলার আরো নিন্দা-প্রতিবাদ"bangla.bdnews24.com। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১১-২৭ 
  5. "Corruption allegations brought against IU VC"bdnews24.com। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০৬-১২ 
  6. Dainikshiksha। "ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি হলেই 'শনির দশা' - Dainikshiksha"Dainik shiksha (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১১-২৭ 
  7. প্রতিবেদক, নিজস্ব। "১১ উপাচার্যের কেউই মেয়াদ শেষ করতে পারেননি"Prothomalo। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১১-২৭ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]