আনক্যানি স্টোরিস (ম্যাগাজিন)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
আনক্যানি স্টোরিস এর একমাত্র ইস্যুটির প্রচ্ছদ, তারিখ এপ্রিল ১৯৪১; নরম্যান স্যন্ডারস এর আঁকা।

আনক্যানি স্টোরিস ছিল একটি পাল্প ম্যাগাজিন, এপ্রিল ১৯৪১ সালে যার একটি মাত্র সংখ্যা প্রকাশিত হয়েছিল। এর প্রকাশক ছিলেন আব্রাহাম এবং মারটিন গুডম্যান, যারা "উইয়ারড ম্যানেস" পাল্প পত্রিকার জন্য বেশি পরিচিত ছিলেন; যাতে কাহিনীর ভেতর অতিরিক্ত পরিমাণে যৌনতা অন্তর্ভুক্ত থাকত, যা সে যুগের বিজ্ঞান কল্পকাহিনীর মধ্যে  প্রচলিত ছিল। দ্য গুডম্যান ১৯৩৮ থেকে ১৯৪১ সাল পর্যন্ত মারভেল সাইন্স স্টোরিস প্রকাশ করেছিল, এবং মারভেল সাইন্স স্টোরিস এর প্রকাশনা বন্ধ হবার পরপরই আনক্যানি স্টোরিস আবির্ভূত হয়, সম্ভবত মারভেল সাইন্স স্টোরিস এর অব্যবহৃত উপাদান গুলো ব্যবহার করার জন্যেই। কাহিনীগুলোর মান ছিল খুবই খারাপ; মূল গল্প, রে ক্যুমিংসের "কামিং অব দ্য জায়ান্ট জারমস", "তার সবচেয়ে ভয়াবহ গল্প " হিসাবে বর্ণনা করা হয়েছে।

প্রকাশনার ইতিহাস[সম্পাদনা]

মারভেল সাইন্স স্টোরিস এর নভেম্বর ১৯৪০ ইস্যুটির প্রচ্ছদ, জে. ডব্লিউ.স্কট এর আঁকা।

যদিও ১৯২০ সালের আগে থেকেই কল্প বিজ্ঞানের কাহিনী প্রকাশিত হত, ১৯২৬ সালে হুগো গেরন্সব্যাক এর পাল্প পত্রিকা আম্যাজিং স্টোরিস বাজারে আবির্ভূত হবার পূর্বে এটা কোন আলাদা ধারা হিসেবে বাজারজাত হয়নি,[১] ১৯৩১ সালের পর মিরাকল সাইন্স এন্ড ফ্যান্টাসি স্টোরিস প্রকাশিত হবার পর ১৯৩৮ সাল পর্যন্ত আর নতুন কোন কল্প বিজ্ঞান পত্রিকা প্রকাশিত হয়নি, যখন আব্রাহাম এবং মারটিন গুডম্যান, দুই ভাই একাধিক ছাপা সক্ষম প্রকাশনা কোম্পানির মালিক হলেন, তারা মারভেল সাইন্স স্টোরিস প্রকাশ করলেন। গুডম্যানদের পত্রিকাগূলো "উইয়ারড ম্যানেস" পাল্প এর অন্তর্ভুক্ত ছিল —এমন একটি ধারা যা যৌন ও ধর্ষকামের অন্তর্ভুক্ত, গল্পের কাহিনীতে মহিলাদের বিপদের মধ্যে ফেলা হত, সাধারণত হুমকির কারণ অতিপ্রাকৃত হলেও কিন্তু শেষ পর্যন্ত এটি কোন মনুষ্য খলনায়কের কাজ হিসেবে প্রতীয়মান হত। গুডম্যানদের পত্রিকার পোর্টফলিওর এই "যৌন ও ধর্ষকাম" এর প্রভাব তাদের প্রকাশিত মারভেল সাইন্স স্টোরিস এ প্রতিফলিত হয়: এটি সরাসরি "উইয়ারড ম্যানেস" পাল্প ধারার ছিল না, কিন্তু লেখকদের গল্পে অধিক পরিমাণে সেক্স রাখতে বলা হত যা সে যুগের বিজ্ঞান কল্প কাহিনীর মধ্যে প্রচলিত ছিল। [২]

মারভেল সাইন্স স্টোরিস  এপ্রিল ১৯৪১ সংখ্যায় শেষ প্রকাশিত হয়, এবং গুডম্যান আনক্যানি স্টোরিস এর একমাত্র সংখ্যাটি এই মাসেই প্রকাশ করেন। মারভেল সাইন্স স্টোরিস এর মতই, সম্পাদক ছিলেন রবার্ট ও. এরিসম্যান।[৩] কাহিনীগুলোর মান ছিল খুবই খারাপ—কল্পবিজ্ঞান গবেষক মাইক অ্যাশলের মতে, রে ক্যুমিংসের মূল গল্প "কামিং অব দ্য জায়ান্ট জারমস" ছিল "তার সবচেয়ে ভয়াবহ গল্প "। অ্যাশলে ধারণা করেন যে পত্রিকাটি প্রকাশের একমাত্র কারণ হচ্ছে মারভেল সাইন্স স্টোরিস এর অব্যবহৃত উপাদান গুলোকে ব্যবহার করা [৪] সম্ভবত সেই কারণেই গুডম্যানরা তখন ক্রমশ বিকাশমান কমিক-বুক মার্কেটের দিকে আলোকপাত শুরু করেন। [৩]

রে ক্যুমিংস ছাড়াও, অন্যান্য লেখকেরা হচ্ছেন ডেভিড এইচ কেলার, এফ.এ. কুমের, আর. ডিউইট মিলার, এবং ডেনিস পিলমার। গল্পের শিরোনাম গুলো জোরালোভাবে অন্যান্য গুডম্যান প্রকাশনার মত সেক্স ওরিয়েন্টেড ছিল না, যেমন শিরোনাম ছিল "ব্লাড- ব্রাইডস অব দ্য লুস্টিং করপ্সেস (লোলুপ মৃতের রক্তাক্ত বধু)", এরিসম্যান শিরোনামে কিছু মশলা যুক্ত করতেন: যেমন, কেলার এর গল্প  "দ্য চেস্টনাট মের (বাদামী ঘোড়া)" কে পরিবর্তন করে তিনি করেন "স্পিড উইল বি মাই ব্রাইড (গতিই হবে আমার বধু)"।[৩]

গ্রন্থপঞ্জি বিবরণ[সম্পাদনা]

আনক্যানি স্টোরিস ছিল পাল্প ফরম্যাটের, ১১২ পৃষ্ঠার এবং মূল্য ছিল ১৫ সেন্ট; একমাত্র ইস্যুটির ক্রম ছিল ভলিউম ১, সংখ্যা ১। প্রকাশক ছিল নিউ ইয়র্কের ম্যানভিস পাবলিকেশন্স; সম্পাদক ছিলেন রবার্ট ও. এরিসম্যান।

পাদটীকা[সম্পাদনা]

  1. Edwards & Nicholls (1992), pp. 1066–1068.
  2. Ashley (2000), pp. 120−123.
  3. Mike Ashley & Robert Weinberg, "Uncanny Stories", in Tymn & Ashley, Science Fiction, Fantasy and Weird Fiction Magazines, pp. 683–684.
  4. Ashley (2000), p. 163.

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  • Ashley, Mike; Weinberg, Robert (1985). "Uncanny Stories". In Tymn, Marshall B.; Ashley, Mike. Science Fiction, Fantasy, and Weird Fiction Magazines. Westport CT: Greenwood Press. pp. 683–684. ISBN 0-313-21221-X. 
  • Ashley, Mike (2000). The Time Machines:The Story of the Science-Fiction Pulp Magazines from the beginning to 1950. Liverpool: Liverpool University Press. ISBN 0-85323-865-0. 
  • Edwards, Malcolm; Nicholls, Peter (1993). "SF magazines". In Clute, John; Nicholls, Peter. The Encyclopedia of Science Fiction. New York: St. Martin's Press, Inc. ISBN 0-312-09618-6.