জন মেনার্ড কেইনস

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
জন মেনার্ড কেইনস
কেইনসিয়ান অর্থনীতি
জন মেনার্ড কেইনস
জন্ম (১৮৮৩-০৬-০৫)৫ জুন ১৮৮৩
ক্যামব্রিজ, লন্ডন
মৃত্যু ২১ এপ্রিল ১৯৪৬(১৯৪৬-০৪-২১) (৬২ বছর)
ফার্লে, পূর্ব সাসেক্স, লন্ডন
জাতীয়তা ব্রিটিশ
কাজের ক্ষেত্র রাজনৈতিক অর্থনীতি, সম্ভাবনা
শিক্ষায়তন কিং'স কলেজ, ক্যামব্রিজ
যাদের বিরোধীতা করেছেন মার্ক্স · হায়ক · Walras · Marshall · Pigou
যাদের দ্বারা প্রভাবিত হয়েছেন স্মিথ · রিকার্ডো · হিউম · Mill · ম্যালথাস · Gesell · Moore · Marshall · Wicksell · Robertson · Kalecki
যাদের প্রভাবিত করেছেন Whitaker · Lynch · Kuznets · স্যামুয়েলসন · Hicks · Shackle · Vickrey · গলব্রেইথ · Minsky · Shiller · স্টিগ্‌লিট্‌স · ক্রুগম্যান · Roubini
অবদান ব্যষ্টিক অর্থনীতি, Keynesian Economics, Liquidity preference, Spending multiplier, Aggregate Demand-Aggregate Supply model

জন মেনার্ড কেইনস (ইংরেজি: John Maynard Keynes) ছিলেন একজন প্রখ্যাত ব্রিটিশ অর্থনীতিবিদ। তার মতবাদ আধুনিক সামষ্টিক অর্থনীতির তাত্ত্বিক এবং ব্যবহারিক ক্ষেত্রে ব্যাপক পরিবর্তন সাধনের পাশাপাশি সরকারি অর্থনৈতিক নীতিগুলিতেও গভীর প্রভাব বিস্তার করে। তিনি ব্যবসায়িক চক্রের (Business Cycle) অনুঘটকসমূহের ওপর পূর্বের কাজগুলোর প্রভূত উন্নতিসাধন করেন। তিনি অর্থনৈতিক মন্দার ক্ষতিকর প্রভাব কমানোর জন্য বাজার ব্যবস্থা ও মুদ্রাব্যবস্থার প্রয়োগের পক্ষে মত দেন। তার ধারণাগুলোই কেইনসিয়ান অর্থনৈতিক মতবাদ এবং এর অন্যান্য শাখা-প্রশাখার মূল ভিত্তি।

১৯৩০ এর দশকে কেইনস অর্থনৈতিক চিন্তাধারায় এক বিপ্লবের সূত্রপাত করেন, যা নব্য-ধ্রুপদী অর্থনীতির পুরোনো ধারণাগুলোকে খন্ডন করে, যেখানে মনে করা হতো যে মুক্ত বাজারব্যবস্থা স্বল্প থেকে মাঝারি মেয়াদে স্বয়ংক্রিয়ভাবে পূর্ণকর্মসংস্থান প্রদান করবে, যতক্ষণ পর্যন্ত শ্রমিকরা তাদের মজুরির পরিমানের ব্যাপারে নমনীয় থাকবে। কেইনস পক্ষান্তরে যুক্তি দেখিয়েছিলেন যে মোট চাহিদা অর্থনৈতিক কার্যকলাপের পরিমান নির্ধারণ করে এবং অপর্যাপ্ত মোট চাহিদা দীর্ঘ সময়ের জন্য উচ্চ বেকারত্ব সমস্যা তৈরি করতে পারে। ২য় বিশযুদ্ধ আরম্ভের পরবর্তি সময়ে প্রধান পশ্চিমা দেশগুলো কেইনস এর অর্থনৈতিক নীতির ধারণাগুলো গ্রহণ করে নেয়। ১৯৫০ ও ৬০' এর দশক-এ কেইনসিয়ান অর্থনীতির সাফল্যের কারণে প্রায় সব পুজিঁবাদী সরকার এর নীতিগত পরামর্শগুলো অনুসরণ করা শুরু করে।

কেইনস'কে আধুনিক সামষ্টিক অর্থনীতির অন্যতম একজন জনক ও বিংশ শতাব্দীর সবচেয়ে প্রভাবশালী অর্থনীতিবিদ হিসেবে গণ্য করা হয়ে থাকে। [১][২][৩][৪] ১৯৯৯ সালে টাইম ম্যাগাযিন কেইনস কে বিংশ শতাব্দীর ১০০ সবচেয়ে গুরুতপূর্ণ ও প্রভাবশালী ব্যাক্তির তালিকায় স্থান দেয় এই বলে যে, সরকারের উচিত অর্থ আয়ের পূর্বেই ব্যয় করা, তার এই বৈপ্লবিক ধারণাই সম্ভবত পুঁজিবাদকে রক্ষা করেছে।"[৫]

প্রকাশনাসমূহ[সম্পাদনা]

  • ১৯১৩ Indian Currency and Finance
  • ১৯১৪ Ludwig von Mises's Theorie des Geldes (EJ)
  • ১৯১৫ The Economics of War in Germany (EJ)
  • ১৯১৯ The Economic Consequences of the Peace
  • ১৯২১ A Treatise on Probability
  • ১৯২২ The Inflation of Currency as a Method of Taxation (MGCRE)
  • ১৯২২ Revision of the Treaty
  • ১৯২৩ A Tract on Monetary Reform
  • ১৯২৫ Am I a Liberal? (N&A)
  • ১৯২৬ The End of Laissez-Faire
  • ১৯২৬ Laissez-Faire and Communism
  • ১৯৩০ A Treatise on Money
  • ১৯৩০ Economic Possibilities for our Grandchildren
  • ১৯৩১ The End of the Gold Standard (Sunday Express)
  • ১৯৩১ Essays in Persuasion
  • ১৯৩৩ An Open Letter to President Roosevelt (New York Times)
  • ১৯৩৬ The General Theory of Employment, Interest and Money
  • ১৯৪০ How to Pay for the War: A radical plan for the Chancellor of the Exchequer

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Daniel Yergin and Joseph Stanislaw। "book extract from The Commanding Heights" (PDF)। Public Broadcasting Service। সংগৃহীত 13 November 2008 
  2. "How to kick-start a faltering economy the Keynes way"। BBC। 22 October 2008। সংগৃহীত 13 November 2008 
  3. Cohn, Steven Mark (2006)। Reintroducing Macroeconomics: A Critical Approach। M.E. Sharpe। পৃ: 111। আইএসবিএন 0765614502 
  4. Davis, William L, Bob Figgins, David Hedengren, and Daniel B. Klein. "Economic Professors' Favorite Economic Thinkers, Journals, and Blogs," Econ Journal Watch 8(2): 126-146, May 2011.[১]
  5. Robert Reich (29 March 1999)। "The Time 100: John Maynard Keynes"Time (magazine)। সংগৃহীত 18 June 2009 [অকার্যকর সংযোগ]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

জন মেনার্ড কেইনস সম্পর্কে আরও তথ্য পেতে হলে উইকিপিডিয়ার সহপ্রকল্পগুলোতে অনুসন্ধান করে দেখতে পারেন:

Wiktionary-logo-en.svg সংজ্ঞা, উইকিঅভিধান হতে
Wikibooks-logo.svg পাঠ্যবই, উইকিবই হতে
Wikiquote-logo.svg উক্তি, উইকিউক্তি হতে
Wikisource-logo.svg রচনা সংকলন, উইকিউৎস হতে
Commons-logo.svg ছবি ও অন্যান্য মিডিয়া, কমন্স হতে
Wikivoyage-Logo-v3-icon.svg ভ্রমণ নির্দেশিকা, উইকিভয়েজ হতে
Wikinews-logo.png সংবাদ, উইকিসংবাদ হতে