শ্রীপালি বীরাক্কোডি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(Sripali Weerakkody থেকে পুনর্নির্দেশিত)
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
শ্রীপালি বীরাক্কোডি
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামশ্রীপালি শিরোমালা বীরাক্কোডি
জন্ম (1986-01-07) ৭ জানুয়ারি ১৯৮৬ (বয়স ৩৩)
কিরিন্ডিওয়েলা, শ্রীলঙ্কা
ব্যাটিংয়ের ধরনবামহাতি
বোলিংয়ের ধরনডানহাতি মিডিয়াম
ভূমিকাবোলার
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
ওডিআই অভিষেক১ ডিসেম্বর ২০০৬ বনাম পাকিস্তান
টি২০আই অভিষেক১২ জুন ২০০৯ বনাম পাকিস্তান
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
২০০৩-২০০৭ক্যান্ডিয়ান লেডিজ ক্রিকেট ক্লাব
২০০৮-২০৯স্লিমলাইন স্পোর্টস ক্লাব মহিলা
২০০৯-বর্তমানকোল্টস ক্রিকেট ক্লাব মহিলা
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা ওডিআই টি২০আই
ম্যাচ সংখ্যা ৭৩ ৪৯
রানের সংখ্যা ৫৫০ ১৮৮
ব্যাটিং গড় ১১.৯৫ ৭.৫২
১০০/৫০ ০/০
সর্বোচ্চ রান ২৯ ১৭
বল করেছে ২৪১০ ৭৩৭
উইকেট ৪২ ২৬
বোলিং গড় ৩৭.৪০ ২৯.৫৭
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ৩/১৯ ৩/২৩
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ১২/০ ১/০
উৎস: ক্রিকেটআর্কাইভ, ২৯ মে ২০১৭

শ্রীপালি শিরোমালা বীরাক্কোডি (জন্ম: ৭ জানুয়ারি, ১৯৮৬) কিরিন্ডিওয়েলা এলাকায় জন্মগ্রহণকারী প্রথিতযশা শ্রীলঙ্কান প্রমিলা আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার। শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য তিনি। ঘরোয়া ক্রিকেটে কোল্টস ক্লাবের পক্ষে খেলছেন। দলে তিনি মূলতঃ ডানহাতি মিডিয়াম-পেস বোলিং করে থাকেন।[১] এছাড়াও বামহাতে ব্যাটিংয়ে পারদর্শী শ্রীপালি বীরাক্কোডি

খেলোয়াড়ী জীবন[সম্পাদনা]

১ ডিসেম্বর, ২০০৬ তারিখে পাকিস্তানের বিপক্ষে তার একদিনের আন্তর্জাতিকে অভিষেক ঘটে। ১২ জুন, ২০০৯ তারিখে একই দলের বিপক্ষে টুয়েন্টি২০ আন্তর্জাতিকে অভিষেক হয় তার। ২০০৫ ও ২০১৩ সালের ক্রিকেট বিশ্বকাপে শ্রীলঙ্কা দলের প্রতিনিধিত্ব করেছেন। আসন্ন ক্রিকেট বিশ্বকাপকে সামনে রেখে ২৩ মে, ২০১৭ তারিখে ইনোকা রাণাবীরার অধিনায়কত্বে শ্রীলঙ্কা দলের ১৫-সদস্যদের তালিকা প্রকাশ করা হয়।[২] এতে তিনিও অন্যতম সদস্য মনোনীত হন।

২০১৪ সালে ইনছনে অনুষ্ঠিত ১৭শ এশিয়ান গেমসের স্বর্ণপদক বিজয়ী শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Sripali Weerakkody"ESPNcricinfo। সংগ্রহের তারিখ ৯ সেপ্টেম্বর ২০১২ 
  2. "Squads confirmed for ICC Women's World Cup 2017"International Cricket Council। সংগ্রহের তারিখ ২৩ মে ২০১৭ 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]