হ্যারি স্টাইলস

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
হ্যারি স্টাইলস
Harry Styles November 2014.jpg
২০১৪-এ স্টাইলস
প্রাথমিক তথ্য
জন্ম নামহ্যারি এডওয়ার্ড
জন্ম (1994-02-01) ১ ফেব্রুয়ারি ১৯৯৪ (বয়স ২৫)
রেডিচ, ওরচেস্টারশায়ার,[১] ইংল্যান্ড, যুক্তরাজ্য
ধরন
পেশা
  • গায়ক
  • গীতিকার
  • অভিনেতা
বাদ্যযন্ত্রসমূহ
  • কন্ঠ
  • গিটার
কার্যকাল২০১০-বর্তমান
লেবেল
সহযোগী শিল্পী
ওয়েবসাইটhstyles.co.uk

হ্যারি এডওয়ার্ড স্টাইলস[৫] (জন্ম ১ই ফেব্রুয়ারি ১৯৯৪)[৬][৭] একজন ইংরেজ গায়ক, গীতিকার, এবং অভিনেতা। তিনি পরিচিত ছেলেদের ব্যান্ড ওয়ান ডাইরেকশন এর একজন সদস্য হিসেবে। তিনি তার কর্মজীবন শুরু করেন তার ব্যান্ড হোয়াইট এসকিমো এর মাধ্যমে, যেটি হলমেস চ্যাপেল, চেশায়ারে স্থানীয়ভাবে সঙ্গীত পরিবেশন করতো। ২০১০-এ, স্টাইলস একজন একক শিল্পী হিসেবে ব্রিটিশ টেলিভিশন ধারাবাহিক দ্য এক্স ফ্যাক্টর এ অডিশন দেন। একক শিল্পী হিসেবে মনোনয়নের পরে, স্টাইলস অন্য চারজন প্রতিযোগী, নিয়াল হোরান, জায়ান মালিক, লিয়াম পাইন, লুইস টমলিনসন এদেরকে নিয়ে ফিরে আসে, ওয়ান ডাইরেকশন দলটি গঠনের লক্ষ্যে।

স্টাইলস এবং তার ওয়ান ডাইরেকশন সঙ্গীরা প্রকাশ করে আপ অল নাইট (২০১১), টেক মি হোম (২০১২), মিডনাইট মেমোরিস (২০১৩), ফোর (২০১৪), এবং মেইড ইন দ্য এ.এম (২০১৫) অ্যালবামগুলো। তারা চারটি বিশ্বব্যাপি ট্যুরে সঙ্গীত পরিবেশন করে, একটি কনসার্ট চলচ্চিত্র ওয়ান ডাইরেকশন: দিস ইজ আস, এবং কিছু অ্যাওয়ার্ড অর্জন , এগুলোর মধ্যে ৫টি ব্রিট অ্যাওয়ার্ড এবং ৪টি এমটিভি ভিডিও মিউজিক অ্যাওয়ার্ড অর্জন করে।

২৩ জুন ২০১৬-এ বিলবোর্ড কর্তৃক প্রকাশিত হয়েছিলো যে স্টাইলস কলাম্বিয়া রের্কডস এর সঙ্গে একটি তিন-অ্যালবাম একক রের্কডিং চুক্তি করেছেন, যেটি ওয়ান ডাইরেকশনেরও রের্কডিং লেবেল।[৮] এটির প্রথম একক "সাইন অব দ্য টাইমস" এর পর, ১২ মে ২০১৭-এ তার নিজ নামের শিরোনামে অভিষেক অ্যালবাম প্রকাশিত হয়। জুলাই ২০১৭-এ স্টাইলস তার অভিনয় কর্মজীবনের সূচনা করেছেন যুদ্ধভিত্তিক চলচ্চিত্র ডানকির্ক-এ অভিনয়ের মাধ্যমে।[৯]

প্রারম্ভের জীবন[সম্পাদনা]

স্টাইলস রেডিচ, ওরচেস্টারশায়ার-এ জন্ম গ্রহণ করেন।[১][১০][১১] তিনি অ্যারি কক্স ও ডেসমন্ড ডেস স্টাইলসের পুত্র। যিনি একটি আর্থিক প্রতিষ্ঠানে কাজ করতেন।[১২][১৩][১৪][১৫] তার পূর্ব পুরুষদের অনেকেই নরফল্কের খামারের শ্রমিক ছিল।[১৬] স্টাইলস হলমেস চ্যাপেল, চেশায়ারে বেড়ে উঠেছেন, তার বড় বোন, জেমা, সহ তার পিতা-মাতা সেখানে স্থানান্তরের পরে,[১৭] যখন তিনি একজন শিশু ছিলেন।[৫] তিনি হলমেস চ্যাপেল কমপ্রিহেনসিভ বিদ্যালয়ে ভর্তি হন।[১৮] স্টাইলসের পিতা-মাতার বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটে যখন তার বয়স সাত ববছর এবং পরে তার মা পুনরায় বিবাহ করেন।[১৯] তার একজন সৎ বড় ভাই রয়েছে, যিনি স্টাইলসের সৎ পিতার সন্তান।[২০] ১৬ বছর বয়সে, হলমেস চ্যাপেলের ডব্লিউ. ম্যান্ডেভ্যালি বেকারিতে পার্ট-টাইম কাজ করতেন।[২১]

একজন শিশু হিসেবে, স্টাইলস গান গাইতে পছন্দ করতেন, তিনি এলভিস প্রেসলি এবং ফ্রেডি মারকুরিকে তার সঙ্গীত প্রভাবক হিসেবে উল্লেখ করেছেন।[২২] হলমেস চ্যাপেল কমপ্রিহেনসিভে থাকাকালিন, স্টাইলস ছেলেদের ব্যান্ড এসকিমোর প্রধান শিল্পী ছিলেন,[২৩] যেটি স্থানীয় একটি ব্যান্ড সঙ্গীত প্রতিযোগিতায় প্রথম হয়েছিলো।

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

দ্য এক্সটা ফ্যাক্টর উপস্থাপিকা ক্যারোলিন ফ্লাকের সঙ্গে স্টাইলসের নভেম্বর ২০১১ থেকে জানুয়ারি ২০১২ পর্যন্ত সম্পর্ক ছিলো, দুইজনের বয়সের মাঝে ১৪ বছরের ব্যবধান অনেক আলোচনা-সমালোচনার জন্ম দিয়েছিলো।[২৪] স্টাইলস অক্টোবর ২০১২ থেকে জানুয়ারি ২০১৩ পর্যন্ত গায়িকা টেইলর সুইফট এর সঙ্গে ডেটিং করেছেন।[২৫][২৬] তিনি একজন প্রবল চিত্রকর্ম সংগ্রাহক[২৭]

২০১৬-এ, প্রচারমাধ্যম প্রকাশ করে যে, স্টাইলস ব্রেক্সিট বিতর্কে হাউজ অব লর্ডস এ অংশ নিয়েছে।[২৮] দ্য সানডে টাইমস এর প্রশ্ন, ২০১৭ সালের ব্রিটিশ সাধারন নির্বাচনে তিনি কাকে ভোট দিবেন, তিনি উত্তর দেন, "সৎভাবে, আমি সম্ভবত তাকেই ভোট দিতে যাচ্ছি যে ব্রেক্সিটের বিপক্ষে।"[২৯][৩০]

চলচ্চিত্র তালিকা[সম্পাদনা]

চলচ্চিত্র[সম্পাদনা]

বছর শিরোনাম ভূমিকা টীকা
২০১৩ ওয়ান ডাইরেকশন: দিস ইজ আস তিনি নিজে ডকুমেন্টারি কনসার্ট চলচ্চিত্র
২০১৪ হোয়ার উই আর - দ্য কর্নসাট ফিল্ম তিনি নিজে কনসার্ট চলচ্চিত্র
২০১৭ ডানকির্ক এলেক্স

টেলিভিশন[সম্পাদনা]

বছর শিরোনাম ভূমিকা টীকা
২০১২ আইকার্লি তিনি নিজে পর্ব: "আইগো ওয়ান ডাইরেকশন"
২০১৭ স্যাটারডে নাইট লাইভ মিক জ্যাগার/তিনি নিজে/সঙ্গীত অতিথি/সিভিল ওয়ার সৈন্য পর্ব: "জিমি ফ্যালন/হ্যারি স্টাইলস"

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Harry Styles born in Redditch - confirmed"। Redditch Standard। ৩ জানুয়ারি ২০১৪। ৩ জানুয়ারি ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ 
  2. Cooper, Leonie। "Harry Styles-'Harry Styles' review"NME। সংগ্রহের তারিখ ১২ মে ২০১৭ 
  3. "Soft rock with an edge"The Straits Times। ১৭ মে ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জুন ২০১৭ 
  4. Powers, Ann (১৬ মে ২০১৭)। "Styles Of The Times"NPR। সংগ্রহের তারিখ ৭ জুলাই ২০১৭ 
  5. Jepson, Louisa (২০১৩)। Harry Styles - Every Piece of MeSimon & Schusterআইএসবিএন 9781471128479। সংগ্রহের তারিখ ১৬ অক্টোবর ২০১৩ 
  6. Oliver, Sarah (২০১৩)। Harry Styles and Niall Horan: the Biography - Choose Your Favourite Member। John Blake। আইএসবিএন 1782193723। সংগ্রহের তারিখ ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৩ 
  7. Parker, T.K. (২০১২)। What Do You Know About Harry Styles? The Unauthorized Trivia Quiz Game Book। What Do You Know Publications। আইএসবিএন 1476941165। সংগ্রহের তারিখ ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৩ 
  8. "Harry Styles Signs Recording Contract With Columbia: Exclusive"। সংগ্রহের তারিখ ২০১৬-০৮-২৮ 
  9. McNary, Dave (২০১৬-০৩-১১)। "Harry Styles, Fionn Whitehead to Star in Christopher Nolan WW2 Action-Thriller 'Dunkirk'" (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৬-০৮-২৮ 
  10. Des Styles (২২ ডিসেম্বর ২০১৩)। "Des Styles, 'Funny stuff.. Bromsgrove Advertiser says H might be born there? He was born in Redditch, we were there just in time! We lived in Evesham. X'" 
  11. "One Direction Interview Milano"। YouTube। ২১ ডিসেম্বর ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ২ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ 
  12. "Mums of One Direction stars reveal how the boys have grown into music sensations". Daily Record. Trinity Mirror. 16 April 2012. Retrieved 10 September 2013.
  13. "Harry Edward Styles – Ancestry.co.uk". Ancestry.com. Retrieved 11 May 2012.
  14. "Styles's grandfather proud of him". Times Of India. Retrieved 10 September 2013.
  15. Longmire, Becca (১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৩)। "Harry Styles' Mum Anne Twist Has A Blast As She Parties With Denise Welch (PHOTO)"। Entertainmentwise। সংগ্রহের তারিখ ২ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ 
  16. Smith, Richard (১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৩)। "One Direction's roots revealed: Varied lives of the boys' ancestors from barber to button maker - 3am & Mirror Online"। Mirror.co.uk। সংগ্রহের তারিখ ২ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ 
  17. Liz Thomas. "Beatlemania takes a whole new Direction! Thousands gather in Montreal to catch a glimpse of the band". Daily Mail. Retrieved 10 September 2013.
  18. Belinda Ryan (29 September 2010). "Holmes Chapel X Factor star Harry Styles can win show say school bandmates". Crewe Chronicle (Trinity Mirror). Retrieved 10 September 2013.
  19. Lewis Panther (24 June 2012). "One Direction star Harry Styles's dad on bond between him and his boy". Daily Record (Trinity Mirror). Retrieved 10 September 2013.
  20. "Can You Match the One Direction Guys to Their Siblings?"j-14। j-14। ১০ এপ্রিল ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ 
  21. Kate Simms (17 November 2010). "Harry Styles has got the X Factor in Holmes Chapel". BBC News (BBC). Retrieved 10 September 2013.
  22. "One Direction: Chart stars in their own words"The SunNews Group Newspapers। ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১১। সংগ্রহের তারিখ ১৭ মার্চ ২০১২ 
  23. "Holmes Chapel X Factor star Harry Styles can win show say school band mates"। Crewe Chronicle। সংগ্রহের তারিখ ১৭ মার্চ ২০১২ 
  24. "Harry Styles and Caroline Flack"Daily Mirror। সংগ্রহের তারিখ ৮ নভেম্বর ২০১৪ 
  25. "Taylor Swift + Harry Styles of One Direction Photographed Together"। Popcrush.com। ২ ডিসেম্বর ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৩ 
  26. "Taylor Swift, Harry Styles Break Up: What Went Wrong"। UsMagazine.com। ৮ জানুয়ারি ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৩ 
  27. "One Direction's Harry Styles Drops $4 Million on a Jean-Michel Basquiat Painting"Complex। ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ জুন ২৫, ২০১৭ 
  28. "One Direction's Harry Styles attended a Brexit debate at the House Of Lords today"NME (ইংরেজি ভাষায়)। ৫ জুলাই ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ১০ জুন ২০১৭ 
  29. Murison, Krissi (১১ মে ২০১৭)। "Exclusive interview: Harry Styles on his new album and life after One Direction"The Sunday Times। সংগ্রহের তারিখ ১০ জুন ২০১৭ 
  30. "Harry Styles opens up about his sexuality"NME। ১৫ মে ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ১০ জুন ২০১৭ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]