হিশাম ইখতিয়ার

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
হিশাম ইখতিয়ার
আঞ্চলিক কমান্ডের
জাতীয় নিরাপত্তা ব্যুরো
কাজের মেয়াদ
৯ জুন ২০০৫ – ১৮ জুলাই ২০১২
আঞ্চলিক সচিববাশার আল-আসাদ
পূর্বসূরীমোহাম্মদ সাঈদ বেখেইতান
উত্তরসূরীআলী মামলুক
সিরিয়ান আঞ্চলিক শাখার আঞ্চলিক কমান্ডের সদস্য
কাজের মেয়াদ
৯ জুন ২০০৫ – ৮ জুলাই ২০১৩
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্ম১৯৪১
দামেস্ক, সিরিয়া
মৃত্যু২০ জুলাই ২০১২ (বয়স ৭০–৭১)
দামেস্ক, সিরিয়া
জাতীয়তাসিরিয়ান
সামরিক পরিষেবা
পদSyria-Liwa.jpg মেজর জেনারেল

মেজর জেনারেল হিশাম ইখতিয়ার (আরবি: هشام اختيار‎‎) (১৯৪১ – ২০ জুলাই ২০১২) (পারিবারিক নামটি ইখতিয়ার, বখতিয়ার, বেখতিয়ার, বেখতিয়ার এবং অন্যান্য রূপ হিসাবেও প্রতিলিপিকৃত) ছিলেন সিরিয়ার একজন সামরিক কর্মকর্তা এবং রাষ্ট্রপতি বাশার আল-আসাদের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা।[১]

প্রাথমিক জীবন[সম্পাদনা]

হিশাম ১৯৪১ সালে দামেস্কে একটি সুন্নি পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন।[২][৩]

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

হিশাম ২০০১ থেকে ২০০৫ সাল পর্যন্ত সাধারণ নিরাপত্তা অধিদপ্তরের পরিচালক ছিলেন।[৪][৫] তিনি সিরিয়ায় মুসলিম ব্রাদারহুডের কার্যক্রম পর্যবেক্ষণ ও তাদের দমনে কার্যকরী ভূমিকা পালন করা কর্মকর্তাদের একজন ছিলেন।[৬]

এরপর তাকে সিরিয়ার জেনারেল ইন্টেলিজেন্স ডিরেক্টরেটের প্রধান নিযুক্ত করা হয়।[৭] এছাড়া তিনি সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আসাদের উপদেষ্টা হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেছিলেন।[৭] তিনি ২০০৫ সালে বাথ পার্টির আঞ্চলিক কমান্ডের জাতীয় নিরাপত্তা ব্যুরো (এনএসবি)-এর পরিচালক নিযুক্ত হন।[৮][৯][১০]

বিতর্ক[সম্পাদনা]

হিশামকে আসাদের অভ্যন্তরীণ বৃত্তের অংশ হিসেবে গণ্য করা হতো।[১১] ২০০৬ সালে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ট্রেজারি ডিপার্টমেন্ট ঘোষণা করেছিল যে আমেরিকান নাগরিক এবং সংস্থাগুলিকে হিশামের সাথে কোনও লেনদেনে জড়িত হতে নিষেধ করা হয়েছিল, "নির্ধারিত সন্ত্রাসী সংগঠনগুলির জন্য সিরিয়া সরকারের সমর্থনে উল্লেখযোগ্যভাবে অবদান রাখার জন্য,"[১২] এবং ২০০৭ সালে হিশামকে আমেরিকার ভূখণ্ডে প্রবেশ নিষিদ্ধ সিরীয়দের তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছিল।[১৩] জানা গেছে, জেনারেল হিশামের বিরুদ্ধে ডেরার প্রাথমিক গণতন্ত্রপন্থী বিক্ষোভ দমনের অভিযোগ আনা হয়েছিল। দক্ষিণ শহরে নিরাপত্তা পরিষেবার দ্বারা শুরু করা নৃশংস ক্র্যাকডাউন সাম্প্রতিক দেশব্যাপী অস্থিরতা শুরু করতে সাহায্য করেছিল। ২০১১ সালের মে মাসে, মার্কিন ট্রেজারি বিভাগ এবং ইউরোপীয় ইউনিয়ন ন্যাশনাল সিকিউরিটি ব্যুরোর উপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে, এই বলে যে তারা সিরিয়ার নিরাপত্তা বাহিনীকে বিক্ষোভকারীদের বিরুদ্ধে চরম শক্তি প্রয়োগ করার নির্দেশ দিয়েছে।[২]

মৃত্যুর গুজব[সম্পাদনা]

২০১২ সালের ১৯ মে, ফ্রি সিরিয়ান আর্মির (এফএসএ) দামেস্ক কাউন্সিল ঘোষণা করে যে এফএসএ'র আল সাহাবেহ ব্যাটালিয়নের তাদের একজন কর্মী বাশার আসাদের ক্রাইসিস সেলের আট জন সদস্যকে সফলভাবে বিষ প্রয়োগ করেছে। একদল শীর্ষ সামরিক কর্মকর্তা যারা সিরিয়ার সেনাবাহিনীর দৈনিক অভিযান পরিচালনা করে। ফ্রি সিরিয়ান আর্মির দামেস্ক কাউন্সিল জানিয়েছে, হাসান তুর্কমানি, আসাফ শওকত, মোহাম্মদ আল-শার, দাউদ রাজহা, হিশাম ইখতিয়ার এবং মোহাম্মদ সাইদ বখতিয়ানসহ আট সদস্যের মধ্যে কমপক্ষে ছয়জন নিহত হয়েছে বলে তারা বিশ্বাস করে। তৎকালীন অভ্যন্তরীণ মন্ত্রী মোহাম্মদ আল-শার এবং তৎকালীন সহকারী ভাইস প্রেসিডেন্ট হাসান তুর্কমানি রাষ্ট্রীয় টিভিতে তাদের নিজের মৃত্যুর কথা অস্বীকার করে একে "স্পষ্টভাবে ভিত্তিহীন" বলে অভিহিত করেন।[১৪][১৫]

মৃত্যু[সম্পাদনা]

১৮ জুলাই ২০১২ দামেস্ক বোমা হামলায় হিশাম আহত হন।[১৬] ২০ জুলাই ২০১২ তারিখে, সিরিয়ার রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন ঘোষণা করে যে তিনি তার আঘাতের কারণে মারা গেছেন।[১৭]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. এশিয়া টাইমসে A hint of glasnost for Syria, লিখেছেন সামি মৌবায়েদের, ২২ জুন ২০০৫
  2. "List of persons and entities referred to in articles 3 and 4"। Official Journal of the European Union। ২৪ জুন ২০১১। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১  উদ্ধৃতি ত্রুটি: <ref> ট্যাগ বৈধ নয়; আলাদা বিষয়বস্তুর সঙ্গে "ojeu" নামটি একাধিক বার সংজ্ঞায়িত করা হয়েছে
  3. Gambill, Gary (ফেব্রুয়ারি ২০০২)। "The Military Intelligence Shakeup in Syria"। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১ 
  4. Fahim, Kareem (১৯ জুলাই ২০১২)। "Profiles of Syrian Officials Targeted in Damascus Blast"The New York Times। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১ 
  5. Haddad, Bassam (২০০৫)। "Left to its Domestic Devices: How the Syrian Regime Boxed Itself In" (PDF)। ২৯ অক্টোবর ২০১৩ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১ 
  6. "New members of the Ba'ath Party Regional Command"Wikileaks। ৮ ডিসেম্বর ২০০৫। সংগ্রহের তারিখ ২৫ মার্চ ২০১৩ 
  7. "Against all neighbors" (PDF)। Gloria Center। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  8. "Hisham Ikhtiar, director of the National Security Bureau (NSB)"BBC। ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১ 
  9. "By All Means Necessary!" (PDF)। Human Rights Watch। ডিসেম্বর ২০১১। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১ 
  10. Robert G. Rabil (২০০৬)। Syria, The United States, and the War on Terror in the Middle East। Greenwood Publishing Group। পৃষ্ঠা 191। আইএসবিএন 978-0-275-99015-2। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১ 
  11. "Bashar al-Assad's inner circle"BBC। ২০ জুলাই ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১ 
  12. Treasury Designates Two Syrian Officials ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ২০১০-০৫-২৮ তারিখে at the United States Treasury Department, 15 August 2006
  13. Bush bans US entry by Syrians with Lebanon links at Reuters, 25 June 2007
  14. "Six senior figures in Assad regime killed, rebel army says"The Guardian। মে ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১ 
  15. "High-ranking Syrian officials deny reports of their own assassinations"Al Arabiya। ২০ মে ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১ 
  16. Gianluca Mezzofiore (১৮ জুলাই ২০১২)। "Syria Civil War: Assad Brother-in-Law Assef Shawkat Killed in Damascus Suicide Bombing"International Business Times। ২০ জুলাই ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১ 
  17. "Syria blast: Security chief Ikhtiar dies from wounds"। BBC News। ২০ জুলাই ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ২ নভেম্বর ২০২১