হার্মিনিয়া ব্রুমানা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
হার্মিনিয়া ব্রুমানা
Herminia Brumana.jpg
হার্মিনিয়া ব্রুমানা
জন্ম
হার্মিনিয়া ব্রুমানা

(১৮৯৭-০৯-১২)১২ সেপ্টেম্বর ১৮৯৭
মৃত্যু৯ জানুয়ারি ১৯৫৪(1954-01-09) (বয়স ৫৬)
নাগরিকত্বআর্জেন্টিনা Flag of Argentina.svg
পেশাশিক্ষক, লেখক, সাংবাদিক ও নাট্যকার
যে জন্য পরিচিতনৈরাজ্যবাদী, নারীবাদী
দাম্পত্য সঙ্গীঅ্যান্টোনিও সোলারি

হার্মিনিয়া কাতালিনা ব্রুমানা (স্পেনীয়: Herminia Brumana; জন্ম: ১২ সেপ্টেম্বর, ১৮৯৭ - মৃত্যু: ৯ জানুয়ারি, ১৯৫৪) পিগু এলাকায় জন্মগ্রহণকারী বিশিষ্ট আর্জেন্টেনীয় প্রমিলা শিক্ষক, লেখক, সাংবাদিক ও নাট্যকার ছিলেন। সর্বোপরি তিনি সমাজতান্ত্রিক ভাবধারা ও অরাজকতায় দীক্ষিত নারীবাদী কর্মী হিসেবে পরিচিতি পেয়েছেন। তিনি সর্বমোট নয়টি গ্রন্থ লিখেছেন। এছাড়াও, এগারোটি নাটক লিখলেও তিনটি প্রকাশিত হয়েছিল। মান্ডো আর্জেন্টিনো, এল হোগার এবং লা ন্যাসিওনসহ বিভিন্ন সাময়িকীতে প্রবন্ধ লিখেছেন হার্মিনিয়া ব্রুমানা[১] তিনি সক্রিয়ভাবে সমাজতান্ত্রিক আন্দোলনের সাথে নিজেকে ওতপ্রোতভাবে জড়িয়ে রেখেছিলেন। যদিও তাঁর চিন্তাধারা নৈরাজ্যবাদের কাছাকাছি ছিল, তবুও তিনিরাফায়েল বারেতের শিষ্য হিসেবে বিবেচিত হতেন।

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

বুয়েন্স আয়ার্সের দক্ষিণে পিগু শহরে ইতালীয় অভিবাসী দম্পতির সংসারে তাঁর জন্ম।[২] ১৯১৬ সালে নরমাল স্কুল অলাভারিয়ায় মাধ্যমিক শিক্ষা সম্পন্ন করেন। নিজ শহর পিগুতেই প্রাথমিক শিক্ষিকা হিসেবে যোগদান করেন।

১৯১৭ সালে পিগু সাময়িকী প্রতিষ্ঠা করেন। ১৯১৮ সালে তিনি তাঁর প্রথম গ্রন্থ প্রকাশ করেন যাতে ছাত্র, পালাব্রিতাসরা পড়াশোনায় উদ্বুদ্ধ হয়। ১৯২১ সালে ঐ বাড়ীতে সমাজতান্ত্রিক নেতা হুয়ান অ্যান্টোনিও সোলারির সাথে পরিচিত হন ও বুয়েন্স আয়ার্সে বসবাস করতে থাকেন।

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

বৃহত্তর বুয়েন্স আয়ার্স ও ক্যাপিটাল ফেডারেলের অনেকগুলো বিদ্যালয়ে শিক্ষকতা করেন তিনি। ১৯২৩ সালে দ্বিতীয় পুস্তক হেড অব ওম্যান প্রকাশ করেন। এ পুস্তককে হার্মিনিয়া সোলারি মহিলাদেরকে ঘিরে, মহিলাদের উদ্দেশ্য করে লিখেছেন[৩] যা তাঁর সাহিত্যের প্রধান উপাদান ও সক্রিয়তার পরিচয়জ্ঞাপক ছিল। বইয়ে তিনি বিভিন্ন সাধারণ প্রয়োজনীয় বিষয় যেমন - মহিলাদের আত্ম-কথন ও তাঁদের নিজস্ব স্বাধীনতার অর্থ প্রকাশ ঘটিয়েছেন।

১৯২৯ থেকে ১৯৩৯ সালের মধ্যে পরবর্তী দশ বছরে তিনি আরও পাঁচটি বই প্রকাশ করেন। সেগুলো হচ্ছে - মোজাইক (১৯২৯), ক্রেন (১৯৩১), কালার্ড চকস (১৯৩২), লেটার্স টু আর্জেন্টাইন ওম্যান (১৯৩৬) এবং আওয়ার ম্যান (১৯৩৯)। ব্রুমানা তাঁর বইগুলোয় নারীদের অধিকারের জন্য সংগ্রাম, মুক্ত ভালোবাসার অধিকার, বিবাহ-বিচ্ছেদের অধিকার, সামাজিক ন্যায়বিচার, দরিদ্র শিশুদের বিদ্যালয়ে উপস্থিতির সীমাবদ্ধতা সম্পর্কে তুলে ধরেছেন। ঐ দশকে ব্রাগাদোর বন্দীদের মুক্তির বিষয়ে প্রচারণামূলক কাজেও নিবেদিত প্রাণ ছিলেন। তিন যুব নৈরাজ্যবাদী পাস্কুয়ে ভুট্টো, রেকলাস দ্য দিয়াগো এবং সান্তিয়াগো মাইনিনি'র উপর ব্যাপক নির্যাতন করা হয় ও ১৯৩১ সালে তাঁদেরকে হত্যার অভিযোগে দোষীসাব্যস্ত করা হয়েছিল।[৪]

১৯৪১ সালে প্রাপ্তবয়স্কদের জন্য বুয়েন্স আয়ার্স শহরে স্কুল নং ৬ (ফিৎজ রয় ১৭১, বর্তমান বিদ্যালয় ১২; ডিই১৪) গঠনের জন্য কাজ করেন। সেখানে তিনি ব্যবহারিক বিষয়ে শিক্ষকতা করেন।[৫] তাঁর মৃত্যুর পর বিদ্যালয়টির পুণঃনামকরণ হয় হার্মিনিয়া ব্রুমানা নামে। মৃত্যুকালীন তিনি হার্মিনিয়া ব্রুমানা ফ্রেন্ডস সোসাইটি প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। এ সংস্থার মাধ্যমে ১৯৫৮ সালে তাঁর পূর্ণাঙ্গ সাহিত্যিক কাজগুলো প্রকাশ করা হয়েছিল। মৃত্যুর দশ বছর পর আইডিওলজি ও হার্মিনিয়া ব্রুমানার উপস্থিতি শীর্ষক গ্রন্থ প্রকাশ করা হয়। বেশ কিছু রাস্তা, স্কোয়ার, গ্রন্থাগার ও আর্জেন্টিনার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে তার নাম প্রতিষ্ঠিত হয়ে আছে।

উল্লেখযোগ্য রচনাসমগ্র[সম্পাদনা]

গদ্য[সম্পাদনা]

  • পালাব্রিতাস, ১৯১৮
  • কেবজাস দ্য মুজেরেস, ১৯২৩
  • মোজাইকো, ১৯২৯
  • লা গ্রুয়া, ১৯৩১
  • তিজাস দ্য কলরেস, ১৯৩২
  • কার্তাস এ তাস মুজেরেস আর্জেন্টিনাস, ১৯৩৬
  • নুয়েস্ত্রো হমব্রে, ১৯৩৯
  • মি ইলামো নাইবতা, ১৯৪৬
  • এ বুয়েন্স আয়ার্স লে ফালতা ইউনা কলে, ১৯৫৩

থিয়েটার[সম্পাদনা]

  • লা প্রোতাগোনিস্তা অলভিদাদা, ১৯৩৩

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Dujovich, Raquel Szlaska de (১৯৮৭)। Herminia C. Brumana en su proyección docente e intelectual (Spanish ভাষায়)। R. Szlaska de Dujovich। পৃষ্ঠা 61। 
  2. Samat, Marta Elena, Herminia Brumana, rebellious, Plus Ultra, 1974, Buenos Aires
  3. Solari, Herminia (২০০৪)। "Herminia Brumana to the human condition"Hispanic Essay Project। সংগ্রহের তারিখ জুন ৬, ২০১১ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  4. The process Bragado, Quesada Fernando, Korrigan, Buenos Aires, 1974
  5. "Herminia Brumana"Escuela 12 (Gobierno de la Ciudad de Buenos Aires)। সংগ্রহের তারিখ ৬ জুন ২০১১ 

গ্রন্থপঞ্জী[সম্পাদনা]

  • Bellucci, Mabel (1994). «Anarquismo y feminismo. El movimiento de mujeres anarquistas con sus logros y desafíos hacia principios de siglo». Todo es Historia abril (321): pp. 66–67.
  • Fletcher, Lea (1987). Una mujer llamada Herminia. Buenos Aires: Catálogos Editora.
  • Paniza, Delio (1954). Semblanza de Herminia Brumana. Buenos Aires: Montiel.
  • Rodríguez Tarditi, José (1956). Herminia Brumana, escritora y maestra. Buenos Aires.
  • Sámatan, Marta Elena (1974). Herminia Brumana, la rebelde. Buenos Aires: Plus Ultra.
  • Szlaska de Dujovich, Raquel (1987). Herminia C. Brumana en su proyección docente e intelectual. Buenos Aires: De la autora.
  • Wapnir, Salomón (1964). Perfil y obra de Herminia Brumana. Buenos Aires: Perlado.

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]