বিষয়বস্তুতে চলুন

সোব্রিনো ডি বোতিন

স্থানাঙ্ক: ৪০°২৪′৫১.১৬″ উত্তর ৩°৪২′২৯.১১″ পশ্চিম / ৪০.৪১৪২১১১° উত্তর ৩.৭০৮০৮৬১° পশ্চিম / 40.4142111; -3.7080861
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
২০০৬ সালে ‍সোব্রিনো ডি বোতিন রেস্তোঁরা।

সোব্রিনো ডি বোতিন ১৭২৫ খ্রিস্টাব্দে প্রতিষ্ঠিত একটি স্প্যানিশ রেস্তোরা যা বিশ্বের সবচেয়ে পুরাতন রেস্তোরা, যা এখনো তার কার্যক্রম চালু রেখেছে। [১] শিল্পী ফ্রান্সিসকো ডি গোয়া রয়্যাল একাডেমি অফ ফাইন আর্টসে কাজের পূর্বে এই রেস্তোরায় ওয়েটারের কাজ করেছেন। উল্লেখ আর্নেস্ট হেমিংওয়ের উপন্যাসে এবং বেনিতো পেরেজ গাল্ডেসের ফোর্চুনেটা ওয়ািই জ্যাচিন্তা বইতে (১৮১৮ -১৮৮৭ সালে প্রকাশিত) এই রেস্তোরার উল্লেখ পাওয়া যায়।

ইতিহাস

[সম্পাদনা]

ফ্রাঞ্চের জিয়ান বোতিন এবং তার স্ত্রী এই রেস্তোঁরাটি ১৭৫২ সালে চালু করে, যার প্রকৃত নাম ছিল কাসা বোতিন। পরবর্তীতে তাদের এক ভাতিজা এটির দায়িত্ব ভার গ্রহণ করে এবং এর নাম পরিবর্তন করে রাখে সোবরিনো ডি বোতিন যা আজও টিকে আছে। সোবরিনো একটি স্প্যানিশ শব্দ যার অর্থ ভাতিজা।

রেস্তোঁরাটির ভিত্তি ১৫৯০ সালের এবং রেস্তোঁরাটির তুলনায় খুব পুরাতন।

মুল রন্ধনপ্রক্রিয়া ব্যবহার করা ছাড়াও, রেস্তোঁরাটির চুলার আগুন সর্বদা জ্বলিয়ে রাখা হয়, যা কখনই নিভানো হয় না। আর্নেস্ট হেমিংওয়ের উপন্যাস দ্য সান অলসো রাইজস -এর শেষের পৃষ্ঠায় রেস্তোঁরা ও তার কোচিনিলো আসাডো (দুগ্ধপান (ছোট বুঝাতে) করছে এমন শুকর) খাবারের বিশেষত্বটি উল্লেখ করা হয়েছে। এর আরও একটি বিশেষ খাবার হচ্ছে সোপা ডি আজো ( মুরগির ঝোলের মধ্যে প্রস্তুত করা ডিম যা শেরি এবং রসুনের সাথে পরিবেশন করা হয়):যা মাদ্রিলেনও প্রকাশকদের সাথে নিয়ে যাবার খাবার জন্য খুবিই প্রিয়।

বহিঃসংযোগ

[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র

[সম্পাদনা]
  1. "The World's Oldest Eatery, Casa Botin, Reigns in Spain"people.com। ১৬ আগস্ট ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১